২০১১ সালের সেরা ১০ ব্যবস্যা সফল মুভি (হলিউড)

11
1531

দেখতে দেখতে চলে গেল ২০১১ সাল। কাউকে যদি জিজ্ঞাসা করা হয় কেমন কাটলো বছরটি, তাহলে মিশ্র উত্তর আসবে তা সবাই জানে। তেমনি ২০১১ সালের মুভিগুলো কেমন লাগলো, এই প্রশ্নের উত্তরও মিশ্র আসবে। তবে যে যাই বলুক গত বছর হলিউড আর বলিউড ফিল্ম পাড়ায় ব্যাপক ব্যবস্যা হয়েছে। অন্তত এই দুই ইন্ডাস্ট্রির দিকে তাকালে কেউ বলবে না যে পৃথিবী জুড়ে অর্থনৈতিক মন্দা চলছে। গত বছর প্রায় ৫০০ মুভি মুক্তি পেয়েছে শুধু হলিউড এ। তাই বলে সব ছবিই বক্স অফিস কাপায়নি। তবে যেগুলো কাপিয়েছে সেগুলো রীতিমত ঝড় তুলেছে। এই রকম সেরা ১০ টি হলিউড আর বলিউড মুভি নিয়ে আমার এই পোস্ট। প্রথমবার শুধু হলিউড এর সেরা দশ দিলাম আশা করি শীঘ্রই বলিউড এর সেরা দশ নিয়ে হাজির হবো। তাহলে শুরু করা যাকঃ

 

Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

#১ । Harry Potter and the Deathly Hallows – Part 2 : হ্যারি পটার সিরিজের সর্বশেষ ছবি ”Harry Potter and the Deathly Hallows – Part 2”। ছবিটি আন্তর্জাতিকভাবে মুক্তি পায় ১৩ই জুলাই। ছবিটির কাহিনী পূর্বের সিক্যুয়েল অনুযায়ী এগিয়েছে। এর আগের ছবি “Harry Potter and the Deathly Hallows – Part ১” এর ইতি টানা হয়েছে এই পর্বের মাধ্যমে। অসংখ্য রেকর্ড আর পুরষ্কার অর্জনের পাশাপাশি ছবিটি সেরা তিন এ স্থান করে নিয়েছে All Time Highest Grossing Film এর চার্টে। এছাড়াও নবম ছবি হিসেবে পার করেছে এক বিলিওন ডলার আয় করার মাইলস্টোন। ছবিটির বাজেট ছিল ২৫০ মিলিওন মার্কিন ডলার আর ছবিটি আয় করেছে ১৩২৮ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। ফ্যান্টাসী আর একশন নির্ভর ছবিটি বিখ্যাত Warner Bros. এর ব্যানারে নির্মিত। ডেভিড ইয়াটাস এর পরিচালনায় মুভিতে অভিনয় করেছে ড্যানিয়েল রডক্লিফ, রূপার্ট গ্রিনিট, এমা ওয়াটসন প্রমূখ।

 

#২ ।     Transformers: Dark of the Moon : মিচেল বে পরিচালিত ট্রান্সফর্মার সিরিজের সর্বশেষ মুক্তিপ্রাপ্ত ছবি “Transformers: Dark of the Moon” । ২৩ শে জুন বিশ্বব্যাপি মুক্তির পরই আলোচনার কেন্দ্রে চলে আসে ছবিটি। অসাধারন ভিসুয়াল ইফেক্টস আর মুভি নির্মানশৈলী দুই মিলে বক্স অফিসে ঝড় তুলে ফেলে ছবিটি। Paramount Pictures এর ব্যানারে নির্মিত মুভিটি একের পর এক ভাংতে থাকে বিভিন্ন রেকর্ড। দশম ছবি হিসাবে স্থান করে নেই ১ বিলিওন ডলার আয়ের মাইলস্টোন। মুভিটি সিক্যুয়েল হলেও আগের গল্পে পরিবর্তন আনা হয়েছে। ১৯৫ মিলিওন মার্কিন ডলার বাজেটের নির্মিত ছবিটি ১১২৪ (প্রায়) মিলিওন মার্কিন ডলার আয় করে All Time Highest Grossing Film এর চার্টে সেরা চার এ স্থান করে নিয়েছে মুভিটি। শিলা বে উফ, ট্রিসি গিবসন, জোস ডামেল প্রমুখ ছবিটিতে অভিনয় করেছেন। এখন পর্যন্ত ট্রান্সফর্মার সিরিজের সবচেয়ে ব্যবস্যা সফল ছবি এটি।

 

#৩ । Pirates of the Caribbean: On Stranger Tides : জনি ডেপ অভিনীত পাইরেটস অফ দ্য ক্যারিবিয়েন সিরিজের চতুর্থ সিক্যুয়েল ‘Pirates of the Caribbean: On Stranger Tides’। পূর্বের তিনটি ছবিই গর ভার্বিন্সকি পরিচালনা করলেও এবার পরিচালনায় ছিলেন রব মার্শাল। তাই বলে মুভিটির জনপ্রিয়তা মোটেও যে নষ্ট হয়নি তার প্রমান বক্স অফিস। একাধিক রেকর্ড ভেঙ্গে আর বিভিন্ন পুরষ্কার জিতে সমালোচকদের জবাব দিয়েছেন রব মার্শাল। ১৮ই মে মুক্তির পর অষ্টম ছবি হিসাবে পার করেছে ১ বিলিওন ডলার আয়ের মাইলস্টোন। এছাড়াও All Time Highest Grossing Film এর চার্টেও অষ্টম স্থান দখল করেছে মুভিটি। অ্যাডভেঞ্চার আর রোমাঞ্চ দুই মিলে মুভিটি সবার কাছেই ভালো লেগেছে। ছবিটিতে জনি ডেপ ছাড়াও অভিনয় করেছে পেনেলুপ ক্রুজ, জেফরি রাশ প্রমুখ। Walt Disney Pictures এর ব্যানারে নির্মিত মুভিটির বাজেট মাত্র ১৫০ মিলিওন মার্কিন ডলার হলেও ছবিটি মোট আয় করেছে ১০৪৪ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার।

 

#৪ । Kung Fu Panda 2 : ২০০৮ সালে নির্মিত ” Kung Fu Panda” এর বিশাল সাফল্যের পর ছবিটির পরিচালক জেনিফার উ নেলসন ” Kung Fu Panda 2″ নির্মানের ইচ্ছার কথা ব্যক্ত করেছিলেন। অবশেষে তিন বছর পর তিনি একি প্রোডাকশান হাউজ DreamWorks Animation এর ব্যানারে ছবিটি রিলিজ দেন। ফলাফল আগের চেয়েও ভালো। ২৬শে মে মুক্তিপ্রাপ্ত অ্যানিমেটেড মুভিটি মুক্তির পরই বিভিন্ন বক্স অফিস রেকর্ড ভাঙ্গে। ১ ঘন্টা ৩২ মিনিটের ছবিটি তৈরী করতে খরচ হয় ১৫০ মিলিওন মার্কিন ডলার। আর মুভিটি আয় করে ৬৬৬ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। All Time Highest Grossing Film এর চার্টে এর অবস্থান শীর্ষ ৫০ এ।

 

#৫ ।     The Twilight Saga: Breaking Dawn – Part 1 : দ্য টোয়াইলাইট সাগা সিরিজের আগের তিনটি ছবির কাহিনীনির সাথে মিল রেখেই ‘ The Twilight Saga: Breaking Dawn – Part 1’ মুভিটি তৈরী করা হয়েছে। পরিচালক বিল কনডন এর ইচ্ছায় এই মুভির দুইটা পার্ট করা হয়েছে। রোমান্স আর ফ্যান্টাসি এর মিশেলে ছবি এগিয়ে চলে। সিরিজের অন্যান্য মুভির মতই এতিও দ্রুত সাফল্যের মুখ দেখে। Summit Entertainment এর ব্যানারে নির্মিত মুভিটি রিলিজ পায় ১৮ই নভেম্বর। ছবিটি নিয়ে প্রচুর সমালোচনা হলেও বক্স অফিসে এটি সফল হয়। ১১০ মিলিওন মার্কিন ডলার বাজেটে মুভিটা নির্মিত হয়। সব মিলিয়ে মুভিটি আয় করে ৬৬০ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। রবার্ট প্যাটিটসন, ক্রিশ্চেন স্টুয়ার্ট, টেইলর লটনার প্রমুখ মুভিটিতে অভিনয় করে। All Time Highest Grossing Film এর চার্টে এর অবস্থান শীর্ষ ৫০ এ। ছবিটির দ্বিতীয় পার্ট মুক্তি পাবে আগামী ১৬ই নভেম্বর।

 

#৬ । Fast Five : সকল গাড়ি রেস প্রেমীদের কাছে ” Fast & Furious” সিরিজ বেশ নাম করা। এই সিরিজের পঞ্চম সিক্যুয়েল ” Fast Five”। ছবিটির অভিনয় শিল্পী হিসাবে আগের সবাই থাকার পাশাপাশি নতুন চমক হিসাবে আসে “দ্য রক” খ্যাত রেসলার ডুয়েন জনসন। জাস্টিন লীন পরিচালিত মুভিটি ২০শে এপ্রিল মুক্তি পায়। Universal Pictures ব্যানারে নির্মিত ছবিটির বাজেট ধরা হয় ১২৫ মিলিওন মার্কিন ডলার। সব মিলিয়ে মুভিটি আয় করে ৬২৬ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। ডুয়েন জনসন ছাড়াও মুভিতে আরও অভিনয় করেন ভিন ডিজেল, পল ওয়াকার প্রমূখ।

 

#৭ ।     The Hangover Part II : ২০০৯ এ মুক্তিপ্রাপ্ত কমেডি ফিল্ম ” The Hangover” এর সিক্যুয়েল ” The Hangover Part II”। Warner Bros. এর ব্যানারে নির্মিত মুভিটি আগের ছবিটির মতই ব্লকবাস্টার। ২৬শে মে মুক্তিপ্রাপ্ত মুভিটিতে পরিচালক টড ফিলিপস কমেডির প্রায় সব উপাদানই রেখেছিলেন। মাত্র ৮০ মিলিওন মার্কিন ডলার বাজেটে নির্মিত মুভিটি আয় করে ৫৮১ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। ব্রাডলি কুপার, এড হেলমস প্রমূখ ছবিটিতে অভিনয় করে।

 

#৮ ।     The Smurfs : রাজা গঞ্জেল পরিচালিত অ্যানিমেটেড মুভি ” The Smurfs” মূলত ” The Smurfs” কমিক সিরিজ থেকে নেয়া। এর ওপর ভিত্তি করে ‘৮০ এর দশকে টিভি সিরিয়ালও তৈরী করা হয়েছে। Columbia Pictures এর ব্যানারে নির্মিত মুভিটি 3D আকারে রিলিজ পায় ২৯শে জুলাই। ১১০ মিলিওন মার্কিন ডলার বাজেটে নির্মিত মুভিটি মোট আয় করে ৫৬৩ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার।

 

#৯ । Cars 2 : ২০০৬ সালে মুক্তিপ্রাপ্ত অ্যানিমেটেড মুভি ” Cars” এর দ্বিতীয় সিক্যুয়েল ” Cars 2″। আগের ছবির মতই এই ছবিও বক্স অফিসে বড় ধরনের ঝড় তোলে। Walt Disney Pictures এর ব্যনারে ছবিটি রিলিজ পায় ২৪শে জুন। ব্যাপক আলোড়ন তুলে মুভিটি সারা বিশ্বেই ভালো ব্যবস্যা করে। ২০০ মিলিওন মার্কিন ডলার বাজেটে নির্মিত মুভিটি সব মিলিয়ে আয় করে ৫৬০ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। ছবিটি পরিচালনা করেন জন লেসটার।

 

#১০ । Rio : কার্লোস সালাদানা পরিচালিত “Rio” 3D অ্যানিমেটেড মুভিটি রিলিজ পায় ২২শে মার্চ। 20th Century Fox এর ব্যানারে মুভিটি নির্মিত হয়েছে। এর চরিত্রগুলো বাছাই করা হয়েছে “Ice Age” সিরিজের চরিত্রগুলো থেকে। স্বল্প বাজেটের ছবি হলেও বক্স অফিসে এই মুভি ভালো পারফর্ম করে। ছবিটির বাজেট ৯০ মিলিওন মার্কিন ডলার হলেও সারা বিশ্বে সব মিলিয়ে এটি আয় করে ৪৮৫ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার।

সেরা  দশ ডাউনলোড : দশটি মুভি একসাথে পেতে ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন

বোনাস মুভি : Mission: Impossible – Ghost Protocol : মিশন ইমপসিবল সিরিজের চতুর্থ ছবি ” Mission: Impossible – Ghost Protocol” মুক্তি পায় ১৬ই ডিসেম্বর। যেহেতু ছবিটি মুক্তি পেয়েছে ডিসেম্বর মাসে তাই বক্স অফিস নিয়ম অনুসারে এটি ২০১১ এর Grossing Film চার্টে যুক্ত হবে না। এটি ২০১২ এর চার্টে যুক্ত হবে। Paramount Pictures এর ব্যানারে ছবিটি নির্মান করা হয়। বাজেট ধরা হয় ১৪৫ মিলিওন মার্কিন ডলার। এখন পর্যন্ত (১২ই জানুয়ারী) ছবিটি আয় করেছে ৪৬৫ মিলিওন (প্রায়) মার্কিন ডলার। ব্রাড বার্ড এর পরিচালনায় ছবিতে অভিনয় করেছে টম ক্রুজ, জেরেমি রেনার প্রমূখ। মুভিটি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন

দশটি মুভি ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন

মুভি ডাউনলোড করতে বা অন্য কোন সমস্যা হলে এখানে পোষ্ট করুন।

আজ এই পর্যন্তই। সবাইকে ধন্যবাদ।

 

টিউনারপেজের নতুন টিউন আপনাকে ইমেইল করব?
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

11 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

18 + 1 =