ওয়েবসাইট ব্যবহারকারীরা পছন্দ করে না যে সকল কারণে

0
187
নিদির্ষ্ট কিছু বিষয়ের কারণে ওয়েবসাইটে ভিজিটররা বিরক্ত হন। নিজের অবচেতন মনেই সিদ্ধান্ত নেন তিনি কি ওয়েবসাইটে থাকবেন নাকি বের হয়ে যাবেন ? ব্যবহারকারীর আগ্রহের জায়গাটি সঠিকভাবে ধরে রাখতে না পারলে , কোন কারণে ব্যবহারকারী বিরক্ত হলে ব্যবহারকারী সাইট থেকে বের হয়ে যায়

business-website ওয়েবসাইট ব্যবহারকারীরা পছন্দ করে না যে সকল কারণে

ব্যবহারকারী ওয়েবসাইট ত্যাগ করার ৬ টি কারণ
ক. মোবাইল বান্ধব না হওয়া প্রভাব: বাউন্স রেট বৃদ্ধি পাওয়া মোবাইলের মাধ্যমে সার্চের সংখ্যা ক্রমাগত বৃদ্ধি পাচ্ছে। সাইট যদি মোবাইল বান্ধব না হয় ব্যবহারকারী সার্চ থেকে সাইটে প্রবেশের পর পুনরায় গুগল সার্চে ফিরে আসে । তাই বাউন্স রেট বৃদ্ধি পায়। তাই বাউন্স রেট কমাতে সাইট মোবাইল বান্ধব করুন । ফন্ট সাইজ, হাইপারলিংক, পেজ নেভিগেশন মোবাইল বান্ধব করুন।
২.অপ্রাসঙ্গিক হেডলাইন প্রভাব : উচ্চ বাউন্স রেট এবং সোশ্যাল শেয়ারের পরিমান কমে যাওয়া আকর্ষনীয় টাইটেল সাইটে ট্রাফিকের পরিমান বৃদ্ধি করলেও অপ্রাঙ্গিক (মুলত ভিতরের কন্টেন্টের সাথে টাইটেলের কোন সামঞ্জস্য না থাকলে) সাইটের বাউন্স রেট বেড়ে যাবে । সাইটের প্রতি ট্রাফিকের অনাস্থা তৈরী হবে এবং ভিজিটরের সংখ্যা কমে যাবে ।সোশ্যাল নেটওয়ার্কে শেয়ার কমে যাবে ।
৩. অতিরিক্ত পপ আপ : আপনার হোম পেজে যদি অতিরিক্ত সংখ্যায় পপ আপ থাকে তবে তা ব্যবহারকারীর বিরক্তির কারণ হতে পারে। ইমেইল সাইন আপের পপ আপ ব্যবহার করা যেতে পারে কিন্তু তা যেন কোনায় ক্লোজ বাটন থাকে। নিজেকে ব্যবহারকারী হিসাবে চিন্তা করুন, কোন সাইটে কোন তথ্যের জন্য প্রবেশের পর যদি চারদিক থেকে বিজ্ঞাপনের পপ আপে ভর্তি থাকে স্বাভাবিকভাবেই বিরক্ত হবেন।
৪. তথ্যবিহীন ও অগোছালো আর্টিকেল প্রভাব : সাইটে ব্যবহারকারীর সময় কমিয়ে দিবে আর্টিকেল অবশ্যই গোছালো এবং তথ্য সমৃদ্ধ হতে হবে। মনে রাখবেন তথ্য সমৃদ্ধ আর্টিকেল ট্রাফিককে সাইটের মধ্যে অনেকক্ষন ধরে রাখতে সহায়তা করবে ।
৫. অপেক্ষাকৃত ধীরগতির সাইট প্রভাব: কনভার্সন রেট কমিয়ে দিবে অধিকাংশ ট্রাফিক সাইট ত্যাগ লোড হওয়ার আগেই সাইট ত্যাগ করে। পেজের স্পিড ওয়েবসাইটের জন্য অত্যন্ত গুরুত্বপুর্ণ। ৪০ শতাংশ ব্যবহারকারী ৩ সেকেন্ডের অধিক সময় নিয়ে লোড হওয়া সাইটে প্রবেশই করেন না । তাছাড়া সাইটের গতি কম হলে সাইটটি গুগলে র‌্যাংকিং হারাতে পারে। ওয়েবসাইট লোডিং এর সময় বা ওয়েবসাইটের গতি বাড়ানোর জন্য পড়ুন : ওয়েবসাইটের গতি বাড়ানোর উপায়
৬. দুর্বল ছবি প্রভাব: পুনরায় ফিরে ভিজিটরের সংথ্যঅ হ্রাস, ও রেফারেল ট্রাফিক কমে যাওয়া
কিছু ভাল বই এর কথা চিন্তা করুন, যেগুলো পড়তে ভাল লাগে । সু্ন্দর চিত্র সংযুক্ত ভাল বই গুলো পড়ে আরাম পাওয়া যায়। ওয়েবসাইটের ক্ষেত্রে একই কথা প্রযোজ্য। সুন্দর পরিছ্ন্ন, সঠিক স্থানে স্থাপিত ছবি ব্যবহারকারীদের মনোযোগ আকর্ষন করে। ওয়েবসাইটে বারবার ফিরে আসতে সহায়তা করে।
ওয়েবসাইটে উপরোক্ত বিষয়ের সাথে এসইও বা সার্চ ইঞ্জিন মার্কেটিং এর সরাসরি সম্পর্ক রয়েছে। যে সকল ওয়েবসাইট ব্যবহারকারী কর্তৃক ভাল লাগে না তা এসইও এর জন্য সুবিধাজনক নয়। তাই এসইও এর সর্বাধিক সুবিধার জন্য উপরোক্ত বিষয় তথা সাইট ডিজাইনের প্রতি গুরুত্বদিন।
টিউনারপেজের নতুন টিউন আপনাকে ইমেইল করব?
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

1 + seven =