দেশে ৪ কোটি ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

0
262
দেশে ৪ কোটি ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

tarikul.h

আমি ভালোবাসি বিজ্ঞান এর তথ্য সমুহ নিয়ে ঘাটা ঘটি করতে, নিজে খুব একটা জানিনা কিন্তু নানান দেশি বিদেশি ওয়েবসাইট থেকে তথ্য প্রযুক্তি মুলক সংবাদ গুলো পড়তে এবং লিখতে আমার চমৎকার লাগে।
দেশে ৪ কোটি ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

প্রতি ১২ সেকেন্ডে একজন ফেসবুক ব্যবহারকারী বাড়ছে, যা আমাদের জন্মহারের চেয়ে বেশি বলে মন্তব্য করেছেন, তথ্য ও প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জোনাইদ আহমেদ পলক। তিনি বলেন, বাংলাদেশে ২০০৮ সালে ইন্টারনেট ব্যবহারকারী ছিল মাত্র ১০ লাখ। বর্তমানে তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে চার কোটির উপরে। তাতে দেখা যাচ্ছে ফেসবুক ব্যবহারকারী বা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোর ব্যবহারকারী বাড়ছে প্রতিনিয়ত।

৪ কোটি ইন্টারনেট ব্যবহারকারী দেশে ৪ কোটি ইন্টারনেট ব্যবহারকারী

Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর এক হোটেলে আর্টিক্যাল ১৯ আয়োজিত ‘কনসালটেশন ওয়িদ পার্লামেন্টারিয়ানস দি আইসিটি অ্যাক্ট, ২০২৬; ইমপ্লিক্যাশনস ফর ফ্রিডম অব অনলাইন এক্সপ্রেশন’শীর্ষক গোলটেবিল আলোচনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব বলেন।

পলক বলেন, আইনের জন্য মানুষ নয়, মানুষের জন্য আইন অনলাইনে কোনো কিছু প্রকাশ করলে তা দ্রুত বিশ্ব জুড়ে ছড়িয়ে পড়ে। কিন্তু অফলাইনে তার প্রভাব তেমন একটা পড়ে না। তাই বিশাল এই অনলাইনের সঙ্গে যারা জড়িত তাদের জন্য আন্তর্জাতিকভাবে অনলাইন আইন প্রয়োগের প্রয়োজন। এ ছাড়া আগের  দু’শ  বছরের আইনগুলোরও সংশোধন প্রয়োজন। সাইবার যত দ্রুত প্রসার ঘটছে তত দ্রুত আইন করার প্রয়োজনীয়তা দেখা দিয়েছে। তাই আইসিটি অ্যাক্ট নিয়ে উন্মুক্ত আলোচনার জন্য একটি সাউট তৈরি করেছি  যাতে সকলেই মতামত দিতে পারবে । সকলের মতামতের ভিত্তিতেই আইন সংশোধন করা হবে।

পুলক আরো বলেন, রামুতে যে ঘটনা ঘটলো তা কিভাবে ঘটানো হলো। কাবা শরীফের চাদরের অপব্যবহার করা হলো। ২০১৩ সালের ৫মে হেফাজতের ঘটনায় ওই রাতে ২৫ হাজার লোককে হত্যা করে লাশ ভারতে পাচার করা হয়েছে বলে যে সকল অভিযোগে সাইবারে প্রকাশ করা হলো এটা হয়তো সাইভার ক্রাইসিসের কারণে আমরা ভুক্তভোগী। তাই আমরা বলবো উন্নত দেশগুলোর সঙ্গে সাইবার ক্রাইসিস নিয়ে কাজ করতে হবে।

ব্লগার প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ব্লগারদের অধিকার, অনলাইনের ব্যবহার করে মতামত প্রকাশের অধিকার এবং অপরাধীদের শাস্তি নিশ্চিত করতে আইনের বিধান তৈরি করতে সংশ্লিষ্ট সকলের সঙ্গে কথা বলতে হবে।

আইসিটি এক্সপার্ট মোস্তাফা জব্বার বলেন, আমাদের সমগ্র আইন ব্যবস্থায় ত্রুটি আছে। কোনো কোনো আইন আছে, যা শত বছর আগের। কিন্তু এই  দু’শ  বছর আগের আইন বর্তমান ডিজিটাল যুগে প্রয়োগযোগ্য নয়। তাই আমাদের কমপক্ষে শতাধিক আইন পরিবর্তন করতে হবে। আর ব্লগারদের একটা ক্যাটাগরিতে রাখতে হবে। ব্লগাররা আসলে কী, তারা কি সাংবাদিক, নাকি অন্য কিছু, কোনো ক্যাটাগরিতে পড়ে তারা তা স্পষ্ট করতে হবে।

আর্টিক্যাল ১৯এর বাংলাদেশ এবং দক্ষিণ এশিয়ার পরিচালক তাহমিনা রহমানের সঞ্চালনায় আলোচনায় আরো উপস্থিত ছিলেন ব্রিটিশ হাই কমিশনের পলিটিক্যাল শাখার প্রধান অ্যাড্রিয়ান জনস, সংসদ সদস্য মোয়াজ্জেম হোসেন রতন, শিরিন আকতার, হোসনে আরা বেগম ডালিয়া, রুস্তম আলী ফরাজিসহ সাংবাদিক এবং অনলাইন অ্যাকটিভিস্টরা।

টিউনারপেজের নতুন টিউন আপনাকে ইমেইল করব?
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

fifteen + 9 =