জেনে নিন শখের ট্যাবলেট কম্পিউটারের দরদাম ।

2
1324

প্রচলিত কম্পিউটারের মাউসের পরিবর্তে ট্যাবলেট কম্পিউটারে থাকে স্পর্শকাতর পর্দা, যা হাতের আঙুল বা অন্য অঙ্গভঙ্গি বুঝতে সম। টাইপের জন্য এতে প্রদর্শিত ও লুকানো যায় এমন ভার্চুয়াল কি-বোর্ড আছে। ল্যাপটপের চেয়ে সহজে বহন করা যায় বলে ট্যাবলেটের চাহিদা বাড়ছে। বর্তমানে অনেকের কাছে ট্যাবলেট শখের পণ্য হিসাবে পরিণত হয়েছে। প্রয়োজনীয় কাজের সব কিছু ছোট একটি ডিভাইসের মধ্যে নিয়ে বহন করার সুবিধা থাকায় ট্যাবলেটের কদর সব বয়সীদের কাছেই রয়েছে।

ট্যাবলেট কম্পিউটার সাধারনত ৭ ইঞ্চি বা তার চেয়েও আকারে বড় হয়ে থাকে। অ্যান্ড্রয়েড ট্যাবলেট ক্রমেই ব্যবহারকারীদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছে। এর প্রধান কারণ, অ্যান্ড্রয়েড ট্যাবলেট মধ্যম ও কম বাজেটের হওয়ায় সহজেই তা ব্যবহারকারীর হাতের নাগালে পৌঁছে যাচ্ছে। অ্যান্ড্রয়েড ছাড়াও নির্দিষ্ট অপারেটিং সিষ্টেমের অনেক ট্যাবলেট এখন বাজারে রয়েছে। অনেক ব্যাবহার কারিই এখন চান সব সময়ে অনলাইনে থাকতে। তাদের জন্য ট্যাবলেট আদর্শ ডিভাইস।

Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

গুগল নেক্সাস : গুগলের প্রথম ট্যাবলেট হলো নেক্সাস ৭। এর হার্ডওয়্যার নির্মাণ করেছে আসুস। এতে রয়েছে ১২৮০ বাই ৮০০ রেজুলেশন সমৃদ্ধ ৭ ইঞ্চি স্ক্রিন, এনভিডিয়া টেগরা থ্রি কোয়াড-কোর প্রসেসর, ১৬ গিগাবাইট অথবা ৩২ গিগাবাইট স্টোরেজ এবং ১.২ মেগাপিক্সেল সামনের ক্যামেরা। এর অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে রয়েছে অ্যান্ড্রয়েড ৪.২ জেলি বিন। এতে ওয়াই-ফাই, ব্লুটুথ, এনএফসি এবং অপশনাল হিসেবে সেলুলার সুবিধা রয়েছে। একবার চার্জে ১০ ঘণ্টা চলতে সক্ষম গুগল নেক্সাস ৭। এর মূল্য ১৮ হাজার টাকা। গুগল নেক্সাস ৭-এর বড় সংস্করণ গুগল নেক্সাস ১০। এতে রয়েছে ২৫৬০ বাই ১৬০০ রেজুলেশন সমৃদ্ধ ১০ ইঞ্চি স্ক্রিন, ডুয়াল কোর এআরএম কর্টেক্স এ১৫ প্রসেসর, কোয়াড কোর মালি টি৬০৪ গ্রাফিক্স প্রসেসর, ১৬ গিগাবাইট অথবা ৩২ গিগাবাইট স্টোরেজ, ৫ মেগাপিক্সেল পেছনের ক্যামেরা, ১.৯ মেগাপিক্সেল সামনের ক্যামেরা এবং ১১ ঘণ্টা ব্যাটারি ব্যাকআপ। অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে রয়েছে অ্যান্ড্রয়েড ৪.২ সংস্করণ। এর মূল্য ৩৫ হাজার টাকা।

আসুস ট্যাবলেট : আসুসের ট্রান্সফর্মার প্যাড একটি শক্তিশালী স্টাইলিশ ট্যাবলেট। পাতলা এবং হালকা ট্রান্সফর্মার প্যাডে রয়েছে ১৯২০ বাই ১২০০ রেজুলেশন সমৃদ্ধ ৭ ইঞ্চি ফুল এইচডি স্ক্রিন, শক্তিশালী এনভিডিয়া টেগরা থ্রি কোয়াড কোর প্রসেসর, ৩২ গিগাবাইট অথবা ৬৪ গিগাবাইট স্টোরেজ, ৮ মেগাপিক্সেল পেছনের ক্যামেরা, ২ মেগাপিক্সেল সামনের ক্যামেরা এবং ৯.৫ ঘণ্টা ব্যাটারি সুবিধা। এতে অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে রয়েছে অ্যান্ড্রয়েড ৪.০.৩ ‘আইসক্রিম স্যান্ডউইচ’। এর মূল্য ৪৫ হাজার টাকা। আসুসের ফোনপ্যাড ট্যাবলেট পিসিতে রয়েছে ৩জি মোবাইল ডেটা বা ইন্টারনেট ব্যবহারের পাশাপাশি ফোন কলের সুবিধা। এটি অ্যান্ড্রয়েড ৪.১ জেলিবিন মোবাইল অপারেটিং সিস্টেম প্লাটফর্মের ১.২ গিগাহার্জ ইন্টেল এটম প্রসেসরে চালিত ট্যাবলেট পিসি। ট্যাবলেট পিসিটিতে আরো রয়েছে ১ জিবি র‌্যাম, ৮ জিবি ডেটা স্টোরেজ, ডুয়াল ওয়েবক্যাম, ৮০২.১১ বি/জি/এন ওয়্যারলেস ল্যান, ব্লুটুথ ৩.০, জিপিএস, মাইক্রো ইউএসবি ২.০ ইন্টারফেস প্রভৃতি। সর্বোচ্চ ৯ ঘণ্টা পাওয়ার ব্যাকআপে সমৃদ্ধ এই ট্যাবলেট পিসিটির মূল্য ২৪,০০০ টাকা।

স্যামসাং গ্যালাক্সি ট্যাব ও নোট : স্যামসাং গ্যালাক্সি ট্যাব ২ দেখতে অনেকটা আইপ্যাড মিনির মতো। এতে রয়েছে ১০২৪ বাই ৬০০ রেজুলেশন সমৃদ্ধ ৭ ইঞ্চি স্ক্রিন, ১ গিগাহার্জ ডুয়াল কোর টেক্সাস ইনস্ট্রুমেন্টস ওএমএপি প্রসেসর, ৮, ১৬ বা ৩২ গিগাবাইট স্টোরেজ, ৩ মেগাপিক্সেল পেছনের ক্যামেরা, ভিজিএ সামনের ক্যামেরা এবং ৫ ঘণ্টা ব্যাটারি ব্যাকআপ। এতে অপারেটিং সিস্টেম অ্যান্ড্রয়েড ৪.০ ‘আইসক্রিম স্যান্ডউইচসহ অ্যান্ড্রয়েড ৪.১ জেলি বিনে হালনাগাদ করা যাবে। এর মূল্য ২০০ ডলার। স্যামসাং গ্যালাক্সি নোটে প্রয়োজনীয় তথ্য সংরক্ষণ করাসহ, প্ল্যান করা এবং যেকোনো ধরনের স্কেচ আঁকা যায় খুব সহজেই। এতে রয়েছে ১২৮০ বাই ৮০০ রেজুলেশন-সমৃদ্ধ ১০.১ ইঞ্চি স্ক্রিন, ১.৪ গিগাহার্টজ ইক্সিনোস কোয়াড কোর প্রসেসর, ১৬, ৩২ অথবা ৬৪ গিগাবাইট স্টোরেজ, ৫ মেগাপিক্সেল পেছনের ক্যামেরা, ১.৯ মেগাপিক্সেল সামনের ক্যামেরা এবং ১০ ঘণ্টা ব্যাটারি সুবিধা। এতে অপারেটিং সিস্টেম অ্যান্ড্রয়েড ৪.০ ‘আইসক্রিম স্যান্ডউইচসহ অ্যান্ড্রয়েড ৪.১ জেলি বিনে হালনাগাদ করা যাবে। এর মূল্য ৪৯৯ ডলার।

আইপ্যাড ম্যাক্সি : যারা বড় আকারের ট্যাবলেট পছন্দ করেন তাদের জন্য ১২ দশমিক ৯ ইঞ্চি মাপের একটি হালকা-পাতলা আইপ্যাড বাজারে আনতে পারে অ্যাপল। এ ট্যাবলেটটির নাম হতে পারে ‘আইপ্যাড ম্যাক্সি’। আল্ট্রাবুক বা হালকা-পাতলা ল্যাপটপগুলোর সাথে বাজারে প্রতিযোগিতা করতেই বড় মাপের হালকা-পাতলা ট্যাবলেট বাজারে আনতে পারে অ্যাপল। ২০১৪ সালের শুরুতে বড় মাপের ট্যাবলেট বাজারে আনতে পারে অ্যাপল। ডিজিটাল পাঠ্যবই ও শিা উপকরণ হিসেবে এটি জনপ্রিয়তা পেতে পারে। চলতি বছরে হালকা-পাতলা মডেলের ৯.৭ ইঞ্চি মাপের নতুন সংস্করণের আইপ্যাডের সাথে আইপ্যাড মিনির নতুন সংস্করণের ঘোষণা দিতে পারে অ্যাপল।

এইচপি টাচপ্যাড: বিশ্বজুড়ে ট্যাবলেট পিসি নিয়ে প্রযুক্তির অঙ্গনজুড়ে যত আলোচনা চলছে, তাতে নতুন মাত্রা এনেছে এইচপি। মাত্র ০.৭ কিলোগ্রাম ওজনের এইচপির টাচপ্যাডে রয়েছে ৯.৭ ইঞ্চি মাপের পূর্ণ স্পর্শকাতর স্ক্রিন ও এতে ব্যবহার করা হয়েছে কুয়ালকম প্রসেসর, যা টাচপ্যাডে কাজ করার গতি অনেক গুণ বাড়িয়ে দেয়। ‘টাচপ্যাড’ নামের এই ট্যাবলেট কম্পিউটারে রয়েছে ১৬ ও ৩২ গিগাবাইটের মেমোরি, ১.২ গিগাহার্জ প্রসেসর, ১৮ বিট রঙিন মাল্টিটাচ স্ক্রিন, ১ গিগাবাইট র‌্যাম, ওয়াইফাই, জিপিএস, ১.২ গিগাহার্জের ডুয়েলকোর প্রসেসর, কম্পাস, ৩.৫ মিলিমিটার অডিও জ্যাক ও চার্জার। ২.০ হাইস্পিড মাইক্রোইউএসবি কানেক্টর। অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে রয়েছে ওয়েবওএস। এইচপি টাচপ্যাডই প্রথম ট্যাবলেট কম্পিউটার, যেটিতে ওয়েবওএস সফটওয়্যার প্ল্যাটফর্ম ব্যবহার করা হয়েছে।

পেপার ট্যাব : কাগজের মতো পাতলা স্ক্রিনযুক্ত একটি ট্যাবলেট তৈরি করেছেন প্রযুক্তিবিদেরা। গবেষকদের দাবি, ‘পেপার ট্যাব’ নামের ট্যাবলেটটি নমনীয় হওয়ায় এটি ভাঁজ করা যাবে এবং পড়ে গেলেও কোনো তি হবে না। আগামী পাঁচ বছরের মধ্যেই ল্যাপটপের বিকল্প হিসেবে নমনীয় এ ট্যাবলেট মানুষের হাতের নাগালে চলে আসবে। প্রযুক্তিপণ্য নির্মাতা প্রতিষ্ঠান প্লাস্টিক লজিক, চিপ নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ইনটেল ও কানাডার কুইন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকেরা মিলে কাগজের মতো পাতলা এ ট্যাবলেট কম্পিউটার তৈরি করেছেন। ট্যাবলেটে ব্যবহৃত হয়েছে প্লাস্টিক লজিকের তৈরি ১০.৭ ইঞ্চি মাপের উচ্চ রেজুলেশনের নমনীয় ডিসপ্লে, ইন্টেলের কোরআই৫ প্রসেসর। গবেষকেরা জানিয়েছেন, কম্পিউটার স্ক্রিনের পাশাপাশি এ ট্যাবলেট ই-বুক হিসেবেও ব্যবহার করা যাবে। একটি ডিসপ্লে ব্যবহারের পরিবর্তে বইয়ের পাতার মতো একাধিক স্ক্রিন হিসেবে ব্যবহার করা যাবে এই ট্যাবে এবং প্রতিটি স্ক্রিনে আলাদা আলাদা অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করা যাবে।

আজ এখানেই শেষ করছি । আরও কিছু টিউন নিয়ে হাজির হব খুব শীঘ্রই । এই ধরনের পোস্ট এবং ওয়েব ডেভেলপমেন্ট এর উপর আমার ভিডিও টিউটোরিয়াল পাবেন আমার ব্লগ সাইট এ

টিউনারপেজের নতুন টিউন আপনাকে ইমেইল করব?
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

2 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

1 × 5 =