*** অভূতপূর্ব এক ঘড়ি ****

7
921
*** অভূতপূর্ব এক ঘড়ি ****

Ezaj Ahmed

আমি হাটিতেছি দূরগম পথে
খুজিতেছি ঠঁাই ,
আসিলাম ঘুরিতে ঘুরিতে
প্রযুকতি দুনিয়ায় ।
*** অভূতপূর্ব এক ঘড়ি ****

পবিত্র মক্কা নগরীতে বসানো হয়েছে অভূতপূর্ব এক ঘড়ি। এটি হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ঘড়ি। এমনকি লন্ডনের বিগবেনের চেয়েও ৫ গুণ বড়। সারা বিশ্বের মুসলমানদের নতুন একটি সময় উপহার দেয়ার জন্য মক্কার সর্বোচ্চ ভবন আবরাজ আল-বাইত কমপ্লেক্সে স্থাপন করা হয়েছে এটি।

*** অভূতপূর্ব এক ঘড়ি ****
আর তা দেখা যাবে ৩০ কিলোমিটার দূর থেকেও। সৌদি আরব আশা করছে, চতুর্মুখী এ নতুন ঘড়ি মক্কাকে গ্রিনিচ মান সময়ের বিকল্প সময় প্রতিষ্ঠায় সহায়তা করবে।

সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা এসপিএ’র তথ্যমতে, পবিত্র হেরাম শরীফের ৪০০ মিটার উপরে চতুর্মুখী ওই ঘড়িটির প্রতি পাশে আড়াআড়িভাবে ৪৬ মিটারে (১৫১ ফিট) আধুনিক প্রযুক্তির উজ্জ্বল টাইলস বসানো হয়েছে।

Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

এসপিএ জানিয়েছে, সৌদি আরবের সর্বোচ্চ এ ভবনটির উচ্চতা হবে ৬০১ মিটার (১৯৮৩ ফিট), এর ফলে তাইওয়ানের ৫০৯ মিটার উচু তাইপে ১০১কে ছাড়িয়ে এ ভবনটি বিশ্বের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ভবন হিসেবে স্বীকৃতি পাবে।

তবে এটি থেকে দুবাইয়ে নির্মিত বিশ্বের সর্বোচ্চ ভবন বুর্জ খলিফা (৮২৮ মিটার)’র উচ্চতা অনেক বেশি। ২৫০ জন উচ্চ প্রশিক্ষিত মুসলিম কর্মী ঘড়িটির ফ্রেমের কাজ করেছেন।

লন্ডনের বিখ্যাত বিগবেন ঘড়ির ব্যাসের চেয়ে এ ঘড়িটির ব্যাস ছয়গুণ বড়। এর সামনে আরবি হরফে লেখা থাকবে ‘বিসমিল্লাহির রাহমানির রাহিম’, এর নিচে স্থাপন করা হচ্ছে ২০ লাখ উজ্জ্বল আলোর বাতি।

ঘড়িটির উপরের দিকে স্থাপন করা হয়েছে ২১০০০ সাদা ও সবুজ রঙের বাতি। প্রতিদিন পাঁচ বার নামাজের সময় সঙ্কেত দিতে এটি জ্বালানো হলে ৩০ কিলোমিটার দূর থেকে তা দেখা যাবে। মুসলমানদের বিশেষ দিনগুলোতে লম্বালম্বিভাবে স্থাপিত ১৬টি লাইট আকাশের দিকে ১০ কিলোমিটার উঁচুতে আলো নিক্ষেপ করবে।

টিউনারপেজের নতুন টিউন আপনাকে ইমেইল করব?
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

7 মন্তব্য

  1. সুবহানাল্লাহ! প্রত্যেক মুসলমানদের উচিত কাফিরদের গ্রীনিচ মিন টাইম বাদ দিয়ে ক্বাবা মিন টাইম এর অনুসরণ করা।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

2 × four =