এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

11
2292
এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

গেমওয়ালা

হ্যালো! আমি ফাহাদ! গেমওয়ালা হয়ে টিউনারপেজে রয়েছি অনেকদিন ধরেই। আমি একজন পুরোনো টিউনার এই টিউনারপেজের। গেমস নিয়ে রয়েছি আমি তোমাদেরই সাথে। আশা করি আরো বেশ কিছুদিন থাকতে পারবো।
এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

কী খবর আপনাদের? কেমন আছেন? আশা করি ভালই আছেন। (যদিও লোডশেডিং এর জ্বালায় ভাল নেই)

অনেক দিন পর এলাম ব্লগিং এ। ইন্টার পরীক্ষা শেষ হতে হতে হয়ও না। থাক এসব বিষয়।

Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

এখন টিউন এ আসি।

অনেকেই তাদের মোবাইলে রিংটোন লোড করার জন্য ছুটে যান অডিও দোকানে। তারপর টাকার বিনিময়ে বাগিয়ে নেন গুটিকয়েক রিংটোন। তবে আপনি চাইলে আপনার পিসি দিয়েই রিংটোন বানাতে পারেন (আমার মতো)।

আপনার পিসি দিয়ে রিংটোন বানাতে চাইলে আপনার যা যা লাগবেঃ

১। একটি স্পিকার/হেডফোন সহ একটি কম্পিউটার।

২। একটি গান বা যেকোন অডিও ফাইল। (যেটা থেকে রিংটোন বানাবেন)

৩। Create Ringtone নামক একটি ছোট্ট সফটওয়্যার।

সফটওয়্যারটির ক্র্যাক সহ ডাউনলোড লিংক পোষ্টের শেষে দেওয়া আছে। আগে দেখুন , পরে পছন্দ হলে ডাউনলোড করিয়ে নিবেন।

যেভাবে রিংটোন বানাবেনঃ

১। প্রথমে Create Ringtone সফটওয়্যারটি ইন্সটল করে ক্র্যাক করে ফুল ভার্সন একটিভ করে নিয়ে সফটওয়্যারটি ওপেন করুন। নিচের মত একটি বক্স আসবে।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

২। এখন সরাসরি Ringtone লেখায় ক্লিক করুন। ক্রিয়েট রিংটোন অডিও কনভার্টটার সফটওয়্যারটি ওপেন হবে।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

৩। ফাইল থেকে ওপেন কমান্ড দিন।

ওপেন ডায়ালগ বক্স আসলে আপনার পছন্দের একটি অডিও ফাইল সিলেক্ট করুন যেটি কে রিংটোন এ রুপান-র করবেন।

৪। ফাইলটি ওপেন করলে নিচের মত আসবে।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

5। এখানে দেখছেন যে , অডিও ফাইলটি চিত্রাকারে ওপেন হয়েছে। এখন আপনাকে যা করতে হবে তা হলো, গ্রাফের যেকোন জায়গায় মাউসের বাম বাটনটি ক্লিক করে ড্রাগের মাধ্যমে একটি সিলেক্টশন তৈরি করুন। এই সিলেক্টশনকৃত অংশটুকুই হলো রিংটোন।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

৬। এখন কয়েকটি বিষয়ের দিকে আপনাকে নজর দিতে হবে। প্রথমত, আপনি যেই সিলেক্টশন টি তৈরি করলেন সেটি গানের / অডিও ফাইলের আপনার পছন্দ মত হয়েছে ত?? এটা জানার জন্য উপরের টুলবারের ডান দিকের প্রথম প্লে -বাটনে ক্লিক করতে হবে। এটিতে ক্লিক করলে শুধুমাত্র সিলেক্টকৃত অংশটি বাজবে।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

৭। এখন যদি আপনার সিলেক্টকৃত অংশটি আপনার পছন্দ না হয় তবে সিলেক্টশনের মাঝখানে কার্সরটি নিয়ে গানটির / অডিও ফাইটির আগে / পিছে নিতে পারেন এবং সিলেক্টশন টি বাজাতে পারেন। এই প্রক্রিয়ার মাধ্যমে গানটির / অডিও ফাইলটির মধ্যে রিংটোন এর জন্য আপনার পছন্দের অংশটি বাছুন।
এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

৮। দ্বিতীয় বিষয়টি হলো, রিংটোন এর দৈর্ঘ্য কতটুকু হবে?

এটি নির্ভর করছে আপনার উপর। সাধারণত একটি ফোনকল ৩০ সেকেন্ড ধরে বাজে। সেই হিসেবে রিংটোন এর সাধারণ দৈর্ঘ্য হচ্ছে ৩০ সেকেন্ড।
আপনি যেই সিলেক্টশনটি তৈরি করলেন সেটির দৈর্ঘ্য আপনি সর্বনিচে দেখতে পারবেন।
এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

৯। এখন হলো সেভ এর পালা।
সিলেক্টকৃত ফাইলটি সেভ করার আগে আপনাকে নির্বাচন করতে হবে যে আপনি কি ফরমেটে ফাইলটি সেভ করবেন।
mp3 & wav এর যেকোন একটি কে রিংটোন ফরমেট হিসেবে বাছুন।

ক) mp3 ফরমেটে সেভ করতে চাইলে আগে নিচের দিকের কনফিগারেশন মেনু থেকে এম.পি.৩ ফরমেট টি কনফিগার করে নিন।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

এখানে বিটরেট যত বেশি দিবেন রিংটোনটির অডিও কোয়ালিটি তত ভাল হবে এবং ফাইলের সাইজ বাড়বে। সাধারণত ১২৮ কেবিপিএস দিলেই হয়।

খ) wav ফরমেটে সেভ করতে চাইলে আগে নিচের দিকের কনফিগারেশন মেনু থেকে ওয়াভ ফরমেট টি কনফিগার করে নিন।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

১০। mp3 & wav এর কনফিগারেশন ঠিক করা হয়ে গেলে এখন শুধু রিংটোনটি সেভ করার পালা। যথানিয়মে টুলবার থেকে ফ্লপি-ডিস্ক আইকনে ক্লিক করে অথবা ফাইল মেনু থেকে Save my ringtone অথবা Ctrl+S কমান্ড দিন। নিচের মত ডায়ালগ বক্স আসবে।

এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

রিংটোন ফাইলটির নাম এবং ফাইলটির টাইপ (mp3 or wav) নির্ধারণ করে রিংটোন টি সেভ করুন।

এই তো, হয়ে গেল। নিজেই তৈরি করে ফেললেন রিংটোন! :D

এতক্ষণ শুধু সফটওয়্যারটির রিংটোন কনর্ভাটার নিয়ে ”বক বক” করছিলাম, এখন সফটওয়্যারটির অন্যান্য বৈশিষ্ট্য নিয়েও হালকা-পাতলা ”বক বক” করি!!

সফটওয়্যারটি শুধুমাত্র রিংটোন এর জন্য তৈরি করা হয় নি। এ সফটওয়্যারটির দ্বারা আপনি একই সাথে অনেক কাজ করতে পারবেন। যেমনঃ

১। যেকোন অডিও ফরমেট এর ফাইলকে এমপি৩ / ওয়াভ ফরমেটে কনর্ভাট করতে পারবেন।

২। এমপি৩ থেকে ওয়াভ কিংবা ওয়াভ থেকে এমপি৩ তে কনর্ভাট করতে পারবেন।

৩। আপনার পিসিতে ব্লু-টুথ এডাপটারের মাধ্যমে বা ল্যাপটপের ব্লু-টুথ এর মাধ্যমে এই সফটওয়্যার আপনার মোবাইলে সরাসরি রিংটোন / যেকোন ফাইল পাঠাতে পারে।

এছাড়াও এই সফটওয়্যারে রয়েছে আরো দুটি এক্সটা ফিচার রয়েছে। আর তা হল Wallpaper Converter & WAP.

WAP ফিচার টি ব্যবহার করতে হলে ইন্টারনেট সংযোগ থাকতে হবে এবং আরো কিছু ”ঝামেলা”র কাজ রয়েছে। তাই এটি ব্যবহার না করাই ভাল। (এটাকে আমি ”খানদানী” ফিচার বলে থাকি!)

এখন আসেন Wallpaper Converter এ। নাম দেখেই বুঝতে পারছেন এইটার কাজ কি। এই ফিচার এর দ্বারা আপনার পিসিতে সংরক্ষিত ছবি/ওয়ালপেপার সমূহকে আপনার মোবাইলের ব্যবহার উপযোগী করে তুলতে পারেন।
এবার নিজেই তৈরি করুন রিংটোন এবং আরো অনেক কিছু!

তো দেখলেন তো অনেক কাজের কাজি এই সফটওয়্যারটি।

এবং এই সফটওয়্যারটির ক্র্যাক সহ ডাউনলোড সাইজ মাত্র ২.৫০ এমবি। সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে নিন।
যারা ক্র্যাক করতে পারেন তারা তো পারেনই আর যারা পারেন না তাদের জন্য ডাউনলোড ফোল্ডারে ”কিভাবে ক্র্যাক করবেন” নির্দেশিকা দেওয়া আছে। এরপরও সমস্যা হলে কমেন্ট বক্স এর মাধ্যমে জানাতে পারেন।

ডাউনলোড লিংকঃ (২.৫০ এম.বি.)
http://www.ziddu.com/download/19293670/Create-Ringtonev4.92.TunerFaHaD.rar.html

মিডিয়াফায়ারে এই ২.৫০ এমবি ফাইল ১ ঘন্টা ধরে খালি ”আপলোডিং ” হতেই আছে হতেই আছে কিন্তু ”আপলোডেড” আর হয় না। তাই অন্য কোন উপায় না দেখে জিদ্দু লিংক দিতে বাধ্য হলাম।

ভাল থাকবেন।

পোষ্টটি পড়ার জন্য ধন্যবাদ।

টিউনারপেজের নতুন টিউন আপনাকে ইমেইল করব?
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting
Unlimited Web Hosting

11 মন্তব্য

  1. জটিল একটা পোস্ট,
    অনেক অনেক ধন্যবাদ সুন্দর পোস্টটির জন্য

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

3 × 3 =