ভার্চুয়াল পাঠশালা জেনে নিন ফেসবুকের A টু Z

30
2761

সবাইকে সালাম দিয়ে আমার প্রথম টিউন করছি আজ। কেমন আছেন সবাই? আশা করি ভালো আছেন। আজ আমি আপনাদের সামনে তুলে ধরবো ফেসবুকের যাবতীয় খুটিনাটি, যা নতুন ব্যবহারকারীদের অনেক উপকারে আসবে। তাহলে শুরু কারা যাক…

১৯৮২ সালে টাইম-এর দৃষ্টিতে সেরা ব্যাক্তি ছিল কম্পিউটার। সে সময় কম্পিউটারের জনপ্রিয়তা বাড়তে থাকে ব্যপকভাবে। এরপর ২০০৬ সালে সেরা ব্যক্তি নির্বাচিত হন “You” অর্থাৎ আপনি। আপনি নিজেই অনলাইনের ভবিষ্যৎ। আপনার হুকুমেই চলবে আপনার কম্পিউটার বা অনলাইন। আপনার হাতের মুঠোয় পুরো বিশ্ব। তাই আপনি তো সেড়া হবেনই। ১৯৮২ থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত ২৫ বছরের ব্যবধানে অনলাইন কমপিউটিং বেশ শক্ত অবস্থান তৈরি করে নিয়েছে। অনলাইন ব্লগিং-এর যাত্রা শুরু এই সময়টাতেই। মত প্রকাশের মুক্ত প্লাটফর্ম হিসেবে ব্লগিং ধীরে ধীরে বেশ জনপ্রিয় হতে থাকে। এরই ধারাবাহিকতায় ২০১০ সালের সেরা ব্যক্তি নির্বাচিত হন ফেসবুকের জনক মার্ক জুকারবার্গ। অনলাইন কমপিউটিং-এর জগতে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যম হিসেবে ফেসবুক ব্যপক জনপ্রিয়তা অর্জন করেছে।

ভার্চুয়াল পাঠশালা জেনে নিন ফেসবুকের A টু Z

সার্চ জায়ান্ট গুগলকে পিছনে ফেলে গত বছর ফেসবুক যুক্তরাষ্ট্রে সর্বাধিক ভিজিট করা এক নম্বর ওয়েবসাইটে চলে আসে। একটি গবেষনাধর্মী প্রতিষ্ঠানের তথ্য-উপাত্তের ভিত্তিতে এই গবেষনা তথ্য প্রকাশ করা হয়। প্রতিষ্ঠানটির দেয়া তথ্যানুযায়ী, ২০১০ সালে যুক্তরাষ্ট্রের ইন্টারনেট ব্যবহারকারীদের মধ্যে ৮.৯৩ শতাংশ ভোট পেয়ে ফেসবুক প্রথম অবস্থানে চলে আসে। যেখানে গুগলের অবস্থান ছিল ৭.১৯ ভোট পেয়ে দ্বিতীয় অবস্থানে। তাই আজ আমরা গ্রেট জায়ান্ট সাইট ফেসবুকের কিছু ছোট-খাট টিপ্‌স & ট্রিক্‌স নিয়ে আলোচনা করবো।

ভার্চুয়াল পাঠশালা জেনে নিন ফেসবুকের A টু Z

►ফেসবুক টিপ্‌স & ট্রিক্‌স

রেজিস্ট্রেশন করা:

ফেসবুকে যে কেউ রেজিস্ট্রেশন করতে পারে। এজন্য www.facebook.com সাইটে যান। এবার Sign Up অংশের ফরম পূরণ করে Sign Up বাটনে ক্লিক করুন এবং Security Check এর শব্দদ্বয় লিখে Sign Up বাটনে ক্লিক করলে ফেসবুকের একাউন্ট খোলা হবে। এরপরে ইমেইলে প্রাপ্ত ফেসবুকের মেইলের লিংকে ক্লিক করে ইমেইল ঠিকানা নিশ্চিত করতে হবে।

মোবাইলে ফেসবুক: ফেসবুকের ভক্তরা চাইলে তাদের GPRS উপযোগী মোবাইলেও ফেসবুক ব্যবহার করতে পারেন। এজন্য m.facebook.com ঢুকে স্বাভাবিকভাবে ইমেইল এবং পাসওয়ার্ড দ্বারা প্রবেশ করতে পারবেন। এর ইমেইল ঠিকানা ছাড়াও মোবাইল নম্বর ব্যবহার করে ফেসবুকে একাউন্ট খোলা যায়। এজন্য m.facebook.com থেকে Need an account? Sign up using your phone here এর here লেখা লিংকে ক্লিক করুন এবং নাম, কান্ট্রি কোডসহ মোবাইল নম্বর, পাওয়ার্ড দিয়ে Sign up করুন। এরপরে ফেসবুক থেকে প্রাপ্ত এসএমএস এর পিন নম্বরট পরবর্র্তী পেজে দিয়ে একাউন্ট সক্রিয় করুন। এই একাউন্ট দ্বারা কম্পিউটারে ব্যবহার করতে চাইলে লগইন করার সময় ইমেইলের স্থলে মোবাইল নম্বর এবং পাসওয়ার্ড দ্বারা লগইন করতে হবে।
মোবাইল দ্বারা একাউন্ট নিশ্চিত করা: বন্ধুদের যুক্ত করতে গেলে বা অন্য ক্ষেত্রে Security Check ডায়ালগ আসে, যা বেশ বিরক্তিকর। এটা থেকে মুক্তি পেতে Sick of these? এর Verify your account লিংকে ক্লিক করুন তাহলে Confirm Your Phone ডায়ালগ বক্স আসবে। এবার Phone Number: এ আপনার মোবাইল নম্বর লিখে Confirm বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে আপনার মোবাইলে ফেসবুক থেকে কোড সম্বলিত ম্যাসেজ আসবে, এখানে উক্ত কোড লিখে Confirm বাটনে ক্লিক করুন। ব্যাস এরপরে আর Security Check ডায়ালগ আসবে না।

বাংলাতে ফেসবুকের ইন্টারফেস:

সমপ্রতি ফেসবুকের ভাষার তালিকায় বাংলা ভাষা যুক্ত করা হয়েছে। ইতিপূর্বে এ্যাপলিকেশন দ্বারা বাংলা ইন্টাফেস দেখা যেতো। বর্তমানে উভয় পদ্ধতিতে বাংলা ইন্টারফেসে ফেসবুক দেখা যাবে।

পদ্ধতি ১) ফেসবুকে লগইন করে Accounts Settings এ যান। এবার Language ট্যাবে গিয়ে Primary Language: অংশে বাংলা নির্বাচন করলে কিছুক্ষণের মধ্যে ফেসবুকের চেহারা বাংলাতে রূপান্তরিত হবে।

পদ্ধতি ২) এজন্য www.new.facebook.com/translations ঠিকানাতে যান এবং Allow বাটনে ক্লিক করে এ্যাপলিকেশনটি যুক্ত করুন। এবার Set your language ড্রপডাউন থেকে বাংলা নির্বাচন করুন ব্যস কিছুক্ষণের মধ্যে ফেসবুকের সকল ইন্টারফেস বাংলাতে আসবে।

বন্ধুদের আমন্ত্রণ জানানো:

বন্ধুদের মেইলের মাধ্যমে আমন্ত্রণ জানাতে Friends থেকে Invite Friends এ ক্লিক করুন। এবার To: তে বন্ধুদের ইমেইল লিখে Invite বাটনে ক্লিক করুন। আর যদি আপনার ইমেইল থেকে বন্ধুদের ইমেইল ঠিকানা আনতে চান তাহলে Import Email Addresses এ ক্লিক করে বা ইমেইলের লগোর উপরে ক্লিক করে ইউজার, পাসওয়ার্ড দিয়ে Find Friends বাটনে ক্লিক করুন, তাহলে মেইলে থাকা সকল মেইল ঠিকানা আসবে। এবার যাকে যাকে আমন্ত্রণ জানাতে চান সেই মেইল ঠিকানাগুলো নির্বাচন করে Add to Invite বাটনে ক্লিক করলে To: তে চলে আসবে। এছাড়াও Friends মেনু থেকে Find Friends এ গিয়ে বা হোম পেজে থাকা অবস্থায় ডানের Suggestions থেকে পছন্দের ব্যাক্তিকে আমন্ত্রণ জানাতে Add as Friend এ ক্লিক করুন। এছাড়াও নাম বা ইমেইল ঠিকানা দ্বারা সার্চ করেও আমন্ত্রণ জানাতে পারেন।

আমন্ত্রণ গ্রহন করা: কেউ আপনকে আমন্ত্রণ জানালে হোম পেজের ডানে Requests এ দেখা যায়। এখানে ফ্রেন্ড রিকোয়েষ্ট, প্রুফ ইনভাইটেশন, সাজেশন ইত্যাদি থাকে। আপনি যেকোন একটিতে ক্লিক করে Confirm Request পেজ থেকে আমন্ত্রণ গ্রহন করতে পারেন।

গ্রুফ তৈরী করা এবং যোগ দেওয়া:

স্ট্যাটাসবারে প্রুফ আইকনে ক্লিক করে বা www.facebook.com/groups.php ঠিকানাতে যান। এবার পছন্দের গ্রুফটির উপরে ক্লিক করে Join this Group এ ক্লিক করে Add group membership? ডায়ালগ থেকে Join এ ক্লিক করে গ্রুফে যোগ দিতে পারেন। আর গ্রুফ থেকে বের হতে Leave Group এ ক্লিক করে Remove group membership? ডায়ালগ থেকে Remove এ ক্লিক করলেই হবে। এছাড়াও নিজের একটি গ্রুফ তৈরী করতে চাইলে গ্রুফ পেজ থেকে +Create a new Group বাটনে ক্লিক করে পরবর্তী পদক্ষেপ অনুসরণ করুন।

আরো ইমেইল যুক্ত করা বা পরিবর্তন করা:

ফেসবুক যে ইমেইল দ্বারা রেজিস্ট্রেশন করা হয় এবং পরবর্তিতে উক্ত ইমেইল দ্বারা ফেসবুকে লগইন করতে হয়। কিন্তু আপনি চাইলে উক্ত ইমেইল ঠিকানা পরিবর্তন বা আরো ইমেইল ঠিকানা যুক্ত করতে পারবেন। এজন্য ফেসবুকে লগইন করে Accounts Settings এ যান। এবার Email এর change এ ক্লিক করে New Email: এ নতুন আরেকটি ইমেইল ঠিকানা লিখে Add New Email বাটনে ক্লিক করুন এবং Change Email বক্সে ফেসবুকের বর্তমান পাসওয়ার্ড লিখে Confirm বাটনে ক্লিক করুন। এবার নতুন যুক্ত করা মেইলে কনফার্মেশন মেইল যাবে উক্ত মেইলের লিংকে ক্লিক করে ইমেইল ঠিকানাটি নিশ্চিত করতে হবে। সদ্য যুক্ত করা ইমেইলটি ডিফল্ট হিসাবে থাকবে। এভাবে আরো মেইল ঠিকানা যুক্ত করা যাবে। আগের মেইলটি মুছে ফেলতে চাইলে Accounts Settings এ যান। এবার Email এর change এ ক্লিক করে যে মেইলটি মুছে ফেলতে চান তার ডানের Remove লিংকে ক্লিক করুন এবং ফেসবুকের বর্তমান পাসওয়ার্ড লিখে Confirm বাটনে ক্লিক করুন। ব্যাস আগের মেইলটি ফেসবুক থেকে মুছে যাবে।
ফেসবুকের ছবিতে বন্ধুদের ট্যাগ করা: ফেসবুক বর্তমানে সবচেয়ে জনপ্রিয় সামাজিক সাইট। এখানে ভিডিও এবং ছবি শেয়ার করা যায় তেমনই এসব ছবিতে বন্ধুদেরকে ট্যাগ করা যায়। একটি গ্রুপ ছবি যদি বিভিন্ন বন্ধুকে ট্যাগ করতে চান তাহলে ছবিটি আপলোড করে ছবিটির উপরে ক্লিক করে প্রদর্শন করুন। এবার নিচের Tag This Photo এ ক্লিক করে যে বন্ধুতে ট্যাগ করতে চান ছবির সেই যায়গাই ক্লিক করলে বক্স এবং ডানে ট্যাগ উইন্ডো আসবে। যে বন্ধুকে ট্যাগ করতে চান উক্ত বন্ধু যদি আপনার ফ্রেন্ড লিষ্টে থাকে তাহলে তা নির্বাচন করুন, আর যদি না থাকে তাহলে Type any name or tag: এ বন্ধুর নাম লিখে Tag বাটনে ক্লিক করুন। এভাবে ইচ্ছামত বন্ধুদেরকে ট্যাগ করতে পারবেন। শেষে Done Tagging এ ক্লিক করে ট্যাগ শেষ করুন।
আপনি যে যে বন্ধুদেরকে ট্যাগ করেছেন সেই সেই বন্ধুর ওয়ালে আপনার ট্যাগ করা ছবি প্রদর্শিত হবে। আপনি চাইলে এভাবে অন্যের ফটো এ্যালবামে নিজেরও বা অন্যদেরকেও ট্যাগ করতে পারবেন। একইভাবে নোটে এবং ভিডিওতে ট্যাগ করা যায়।
ইউজার নাম সেট করা: সমপ্রতি ফেসবুক ব্যবহাকারীদের ইউজার নাম সেট করার সুযোগ দিয়েছে। এজন্য লগইন করা অবস্থায় www.facebook.com/username/ এ যান এবং পছন্দের ইউজার নাম সেট করুন। আপনি যদি akash নাম সেট করেন তাহলে আপনার ফেসবুকের ঠিকানা হবে www.facebook.com/akash/ যেখানে আগে প্রোফাইল আইডি দেখাতো।

সার্চ থেকে নিজেকে বিরত রাখা:

ফেসবুকে ইমেইল ঠিকানা দ্বারা বা নাম দ্বারা সার্চ করলে প্রোফাইল দেখায় এবং আমন্ত্রণ করার সুযোগ দেয়। আপনি চাইলে নিজেকে এই সার্চ থেকে বিরত রাখতে পারেন এবং চাইলে শুধুমাত্র বন্ধু এবং বন্ধুর বন্ধুদের সার্চ করার সুযোগ দিতে পারেন। এজন্য Settings থেকে Privacy Settings এ যান। এবার Search এ ক্লিক করে Search Visibility অংশে কারা ফেসবুকে আপনাকে সার্চ করে পাবে তা নির্বাচন করুন। আর সার্চে আপনার কি কি তথ্য দেখাবে তা নির্বাচন করুন Search Result Content থেকে। অনান্য সার্চ ইঞ্জিন থেকে নিজেকে প্রদর্শিত না করতে চাইলে Public Search Listing এ আনচেক করুন।

ব্লক করা: নির্দিষ্ট কোন বন্ধু বা অনাকাঙ্খিত ব্যাক্তিকে আপনার প্রোফাইল বা অনান্য তথ্য দেখা থেকে বিরত রাখতে তাকে ব্লক করে রাখতে পারেন। এজন্য Settings থেকে Privacy Settings এ যান। এবার নিচের Block People এর অংশের টেক্সট বক্সে নাম লিখে Block বাটনে ক্লিক করুন। এবার যাকে ব্লক করতে চান সার্চের ডানে Block Person এ ক্লিক করুন। এভাবে আপনি একাধিক ব্যক্তিবর্গকে ব্লক করে রাখতে পারেন। কাউকে ব্লক করলে সে আপনাকে কোথাও সার্চ করে যেমন পাবে না তেমন তার সাথে পূর্বে বন্ধত্ব থাকলেও তা শেষ হয়ে যাবে। আর আনব্লক করতে চাইলে Block List থেকে Remove লিংকে ক্লিক করলেই হবে।

জিমেইলের সাথে যুক্ত করা: ফায়ারফক্স ব্যবহাকারীরা Xoopit এ্যাডঅন্স ব্যবহার করে জিমেইলের সাথে ফেসবুককে যুক্ত করতে পারেন। ফলে জিমেইল থেকে ফেসবুকে ছবি, ভিডিও যেমন দেখা যাবে তেমনই জিমেইল থেকেও শেয়ার করা যাবে। এজন্য https://addons.mozilla.org/en-US/firefox/addon/8257 থেকে এ্যাডঅন্স ইনস্টল করে নিন। এরপরে জিমেইল একাউন্টে লগইন করে Xoopit এ লগইন করতে হবে। বিস্তারিত পাবেন http://vimeo.com/3287784 এখানে।

টুইটার এবং ফেসবুক: টুইটার মিনি ব্লগ বেশ জনপ্রিয়। আপনি চাইলে টুইটারের স্ট্যাটাস ফেসবুকে যুক্ত করতে পারেন। এমনকি ফেসবুক থেকেও টুইটারে পোস্ট করতে পারেন। এজন্য http://apps.facebook.com/twitter/ এ্যাপলিকেশনটি যুক্ত করুন। এবার টুইটারের ইউজার নাম এবং পাসওয়ার্ড দ্বারা লগইন করুন। ব্যাস এখন থেকে আপনার টুইটারে কোন পোস্ট করলে তা ফেসবুকের ওয়ালে যেমন দেখাতে তেমনই ফেসবুকের টুইটার এ্যাপলিকেশনে আপনি কিছু লিখলে তা টুইটারে এবং ফেসবুকে দেখাবে।

ফায়ারফক্সের মাধ্যমে ফেসবুকে পোস্ট করা: ফায়ারফক্সের Fire Status এ্যাডঅন্স দ্বারা আপনার স্ট্যাটাস ফেসবুকসহ আরো বিভিন্ন সাইটে পোস্ট করতে পারবেন। এজন্য https://addons.mozilla.org/en-US/firefox/addon/8973 থেকে এ্যাডঅন্সটি ইনস্টল করে নিন। এবার স্ট্যটাস বারের ডানের Fire Status আইকনে কিক্ল করুন তাহলে স্ট্যটাস বারের উপরে একটি বার আসবে। এখানে আনার স্ট্যটাস লিখে ডানের ফেসবুক নির্বাচন করে Send বাটনে ক্লিক করুন তাহলে ফেসবুকের লগইন উইন্ডোজ আসবে লগইন করলে স্ট্যটাস ফেসবুকের ওয়ালে পোস্ট হবে।

ফায়ারফক্সের সাইটবারে ফেসবুক চ্যট:

অনান্য সাইট ব্রাউজ করার পাশাপাশি ফায়ারফক্সের সাইটবারে ফেসবুকের বন্ধুদের সাথে চ্যাটিং করতে পারবেন। এজন্য www.facebook.com/presence/popout.php সাইটে যান এবং পেজটি বুকমার্ক করুন। এবার Bookmarks মেনুতে গিয়ে উক্ত বুকমার্কের উপরে মাউসের ডান বাটন ক্লিক করে Properties এ ক্লিক করুন। এখানে Load this bookmark in sidebar চেক করে Save Change বাটনে ক্লিক করে সেভ করুন। এখন থেকে Bookmarks মেনু থেকে বুকমার্ক করা ফেসবুক চ্যাটের উপরে ক্লিক করলে সাইটবারে শুধু চ্যাটিং অপশনটি আসবে।

ফায়ারফক্সের জন্য ফেসবুক টুলবার:

ফায়ারফক্স ব্রাউজারের জন্য ফেসবুকের টুলবার ডাউনলোড করতে পাবেন http://developers.facebook.com/toolbar এখান থেকে।
পিজিনে ফেসবুকে চ্যাট করা: জনপ্রিয় ওপেন সোর্স ম্যাসেঞ্জার পিজিন দ্বারাও ফেসবুকের বন্ধুদের সাথে চ্যাটিং করতে পারবেন। এজন্য http://pidgin-facebookchat.googlecode.com থেকে প্লাগইনটি ডাউনলোড করে ইনস্টল করুন। এবার পিজিনে Accounts মেনু থেকে Manage Accounts এ ক্লিক করুন। এরপরে Add বাটনে ক্লিক করে Protocol থেকে Facebook নির্বাচন করুন এবং User Name এ ইমেইল ঠিকানা এবং ফেসবুকের পাসওয়ার্ড দিয়ে একাউন্ট যুক্ত করুন। এবং চ্যাটিং করুন ফেসবুকের বন্ধুদের সাথে। তবে এটা প্লাগইনটি বর্তমানে পোর্টেবল পিজিনে কাজ করবে না।

ফেসবুকের ছবির এ্যালবাম ডাউনলোড করা:

ফেসবুকে শেয়ার করা ছবির এ্যালবামের (বন্ধুর এ্যালবাম, গ্রুফ এ্যালবাম, ইভেন্ট এ্যালবাম) সমস্ত ছবি একসাথে ডাউলোড করতে পারবেন ফায়ারফক্সের একটি এ্যাডঅন্স দ্বারা। এজন্য https://addons.mozilla.org/en-US/firefox/addon/8442 থেকে এ্যাডঅন্সটি ইনস্টল করুন। এবার যে এ্যালবামটি ডাউনলোড করতে চাচ্ছেন তার উপরে মাউসের ডান বাটন ক্লিক করে Download Album with Face PAD এ ক্লিক পরবর্তী ম্যাসেজে Ok করুন। এবার একে একে ফাইলগুলোর সেভ ডায়ালগ বক্স আসবে সেখানে সেভ করলেই হবে।

নির্দিষ্ট বন্ধুদের ফ্রেন্ড বক্সে প্রর্দশিত করা:

আপনার ফেসবুক প্রোফাইল যারা দেখবে তারা আপনার ফ্রেন্ড বক্সে কতগুলো বন্ধু দেখবে বা কাদের কাদের দেখবে তা আপনি নির্ধারণ করে দিতে পারেন। ডিফল্ট হিসাবে ৬জন বন্ধু বিক্ষিপ্তভাবে প্রদশিত হয়। এটা নির্ধারণ করতে আপনার ছবি উপরে ক্লিক করে প্রোফাইলে যান। এবার বাম পাশের Friends এর ডানের পেনসিলে ক্লিক করুন। Show এর ড্রপডাউন থেকে কতগুলো বন্ধুকে দেখাতে চান তা নির্ধারণ করুন। এবার Always show these friends: এর নিচে আপনার বন্ধুদের নাম যোগ করুন। ব্যাস এখন থেকে আপনার নির্ধারিত বন্ধুদের ফ্রেন্ড বক্সে সবসময়ে দেখাবে। নির্ধারিত করা বন্ধুদের সংখ্যা কম হলে বাকীগুলো অনান্য বন্ধুদের মধ্য থেকে বিক্ষিপ্তভাবে প্রদশিত হবে।

ওয়ার্ডপ্রেসের পোস্ট ফেসবুকের ওয়ালে সয়ংক্রিয়ভাবে আনা: আপনার যদি নিজস্ব ওয়ার্ডপ্রেস ব্লগ থাকে তাহলে wordbook প্লাগইন দ্বারা আপনি উক্ত ওয়ার্ডপ্রেসের লেখা সয়ংক্রিয়ভাবে ফেসবুকে আনতে পারবেন। এজন্য http://wordpress.org/extend/plugins/wordbook/ থেকে প্লাগইনটি ডাউনলোড করে আপনার ওয়ার্ডপ্রেসে ইনস্টল করুন এবং আপনার ফেসবুকের ইমেইল এবং পাসওয়ার্ড দ্বারা সেটিং নিশ্চিত করুন। এরপর থেকে আপনার উক্ত ওয়ার্ডপ্রেসে কোন পোস্ট করলে তা ফেসবুকে লিংক হিসাবে চলে আসবে।

ডেক্সটপে ফেসবুক:

বিভিন্নভাবে ডেক্সটপে ফেসুবুক ব্যবহার করা যায়। এর মধ্যে রয়েছে

  • Seesmic Desktop (http://desktop.seesmic.com),
  • Facebooker (www.widgets.yahoo.com/widgets/facebooker),
  • Xobni (www.xobni.com),
  • Facebook Sidebar Gadget (www.facebooksidebargadget.com),
  • Scrapboy (www.scrapboy.com) এবং
  • Facebook AIR application (http://static.ak.fbcdn.net/fbair/Facebook_Desktop_for_AIR.zip) অন্যতম।

ফেসবুক দ্বারা ইয়াহুতে লগইন করাঃ

ইয়াহুতে লগইনের সময় নিচের দিকে Sign in with: এর নিচের ফেসুবকের আইকনে ক্লিক করুন, তাহলে একটি পপআপ উইন্ডো আসবে। এবার ফেসুবকে লগইন করা থাকলে (লগইন না করা থাকলে লগইন করে) Allow বাটনে ক্লিক করুন। এখন উপরের ডানে Already have a Yahoo! ID? এর Sign in to connect এ ক্লিক করুন এবং ইয়াহুর আইডি ও পাসওয়ার্ড দিয়ে Sign In বাটনে ক্লিক করুন তাহলে ইয়াহুতে লগইন হবে। এরপর থেকে ইয়াহুতে লগইন করতে ফেসবুকের আইকনে ক্লিক করলে ফেসবুক লগইন করা থাকলে ইয়াহুতে লগইন হবে। তবে চাইলে আপনি সুবিথা বাদ দিতে পারেন। এজন্য ফেসুবকে লগইন করে Account>Privacy Settings এ গিয়ে নিচের Apps and Websites এর Edit your settings for using apps, games and websites. এ ক্লিক করুন। Apps you use এর Edit Settings বাটনে ক্লিক করে Yahoo! আইকনের ডানের X বাটনে ক্লিক করলেই হবে।

ফেসবুক বাংলাদেশ:

ফেসবুকের আদলে তৈরী করা www.facebook.com.bd সাইটটি কিন্তু ফেসবুকের বাংলাদেশী সাইট নয়। মূল ফেসবুকের সাথে এই সাইটের কোন সম্পর্কও নেই। সুতারাং মূল ফেসবুক মনে করে এই সাইটি নিজ দায়িত্ত্বে ব্যবহার ক তে পারেন।

ফেসবুকের একাউন্ট বন্ধ করা:

আপনি যদি ফেসবুকের একাউন্টটি মুছে তাহলে উপরের ডানে Settings ট্যাব থেকে Account Settings এ ক্লিক করুন। এবার Deactivate Account এর Deactivate লিংকে ক্লিক করুন তাহলে Confirm Facebook Account Deactivation পেজ আসবে। এখানে কেন একাউন্ট বন্ধ করতে চাচ্ছেন তা নির্বাচন করে Deactivate বাটনে ক্লিক করুন তাহলে ফেসবুকের একাউন্টটি বন্ধ হয়ে যাবে। তবে যদি ভবিষ্যতে আবার একাউন্টটি সচল করতে চান তাহলে ফেসবুকে স্বাভাবিক ভাবে লগইন করলে রিএ্যাকটিভ মেইল যাবে আপনার মেইলে যেখানে ক্লিক করে পুনরাই একাউন্ট সচল করতে পারবেন।

সয়ংক্রিয়ভাবে ফেসবুকে লগইন করা:

জনপ্রিয় স্যোসাল নেটওয়ার্কিং সাইট ফেসবুকে আলাদা লগইন না করে গুগল, ইয়াহু, ওপেন আইডি ইত্যাদি দ্বারা সয়ংক্রিয়ভাবে লগইন করা যাবে। ফলে উপরোক্ত নেটওয়ার্কে লগইন করা থাকলে ফেসবুকে নতুন করে লগইন করতে হবে না। এটা অনেকটা নেটওয়ার্ক একত্রিভূত করার মত। এটি সক্রিয় করতে ফেসবুকে লগইন করে Accounts Settings এ যান। এবার Linked Accounts এর Add a new linked account এ ক্লিক করে যে (Google, MySpace, Yahoo, Vidoop, MyopenID, Verisign PIP, OpenID) একাউন্ট দ্বারা লগইন করতে চান সেটি নির্বাচন করুন এবং Link New Account এ ক্লিক করুন। যদি গুগল যুক্ত করতে চান তাহলে নতুন উইন্ডো থেকে জিমেইলে লগইন করুন এবং পরবর্তী উইন্ডো থেকে Allow বাটনে ক্লিক করুন। এভাবে আপনি একাধিক একাউন্ট যোগ করতে পারবেন। ফলে আপনি যুক্ত করা যে কোন একাউন্টেই লগইন করা থাকা অবস্থায় ফেসবুকে ঢুকলে আপনা আপনি লগইন হবে। তবে যুক্ত করা একাউন্টে লগআউট করলে ফেসবুকে সয়ংক্রিয়ভাবে লগআউট হবে না।

সরাসরি ফেসবুক বা অনান্য সাইটে ছবি আপলোড করা:

ফেসবুক, ফ্লিকআর, টিনিপিক, ওলফল বা ইমেজশ্যাকে ছবি আপলোড করতে ওয়েব সাইটে ঢুকে লগইন করে আপলোড করতে হয়। কিন্তু একটি সফটওয়্যার দ্বারা উক্ত ওয়েব সাইটগুলোতে না ঢুকে যদি ছবি আপলোড করা যায় তাহলে কেমন হয়! রাইটলোড সফটওয়্যার দ্বারা সহজেই এসব সাইটে ছবি আপলোড করা যায়। এজন্য www.rightload.org থেকে ৩.৩৩ মেগাবাইটের সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করে ইনস্টল করুন। ইনস্টল করার সময় অতিরিক্ত প্রায় ২.৬ মেগাবাইট ডাউনলোড হবে। এবার যে ছবিটিগুলো আপলোড করতে চাচ্ছেন তার নির্বাচন করে মাউসের ডান বাটন চেপে Upload to Rightload এ ক্লিক করে যে সাইটে আপলোড করতে চান তাতে ক্লিক করুন। তাহলে সফটওয়্যারটি চালু হবে এবং প্রথমবার লগইন এবং এই এ্যাপলিকেশনটিকে অনুমতি দেবার প্রয়োজন হবে। এবার ছবিগুলো আপলোড হবে এবং শেষ হবার পরে ম্যাসেজ আসবে।

ইমেইলের মাধ্যমে ফেসবুকে ছবি আপলোড করা:

জনপ্রিয় সোসাল নেটওয়াকিং সাইট ফেসবুকে ছবি শেয়ার করতে হলে ফেসবুকে আপলোড করতে হয়। কিন্তু ইমেইলের এ্যটাচ থাকা ছবি যদি ফেসবুকে শেয়ার করা যেত তাহলে কেমন হয়! ইমেইলের মাধ্যমে এ্যটাচ করা ছবি ফেসবুকে আপলোড করতে হলে ফেসবুকে লগইন করে www.facebook.com/mobile পেজে যেতে হবে। এবার Upload Photos via Email এ যে ইমেইল ঠিকানা আছে সেই ঠিকানাতে ছবি এ্যটাচ করে মেইল করলে তাৎক্ষনাত ফেসবুকে আপলোড হবে। ফেসবুকের এই ছবি Mobile Uploads নামে এ্যালবামের মধ্যে থাকবে। ফেসবুকে প্রাপ্ত ইমেইল ঠিকানা পছন্দ না হলে বা পরিবর্তন করতে চাইলে একই পেজে গিয়ে Find out more এ ক্লিক করে refresh your upload email এ ক্লিক করুন। এখন Reset বাটনে ক্লিক করলে নতুন ইমেইল ঠিকানা তৈরী হবে এবং তা ম্যাসজে উইন্ডোতে দেখাবে।

ব্লগের পোস্ট ফেসবুকে আনা:

বর্তমানে ব্লগিং যেমন জনপ্রিয় তেমনই ফেসবুকও। যারা বিভিন্ন ব্লগ সাইটে ব্লগ লিখেন তারা চাইলে সহজেই তাদের পোস্টগুলোকে ফেসবুকে সয়ংক্রিয়ভাবে আপডেট করতে পারেন। ফেসবুক তাদের ব্যবহারকারীদের একটি ব্লগের তথ্য আপডেট করা সুযোগ দিয়েছে। এই সুবিধা পেতে ফেসবুকে লগইন করে নিচের স্ট্যটাসবার থেকে notes আইকনে ক্লিক করুন অথবা সরাসরি www.facebook.com/notes.php পেজে যান। এখন ডানের Notes Settings অংশে Import a blog » এ ক্লিক করুন। এবার ইমপোর্ট পেজে Web URL: এ ব্লগ সাইটির ঠিকানা লিখে চেক বক্স চেক করে Start Importing বাটনে ক্লিক করলে কিছু পোস্টের প্রিভিউ দেখাবে। এখন নিচের Confirm Import বাটনে ক্লিক করলে সর্বশেষ পোস্ট ফেসবুকে পোস্ট হিসাবে আপপেট হবে এবং পরবর্তীতে উক্ত ব্লগে কোন পোস্ট করলে তা সয়ংক্রিয়ভাবে ফেসবুকে আপডেট হবে। ব্লগ পোস্ট ফেসুবকে আনা বন্ধ করতে চাইলে Notes Settings অংশে Edit Import a blog » এ গিয়ে বন্ধ করা যাবে।

লুকিয়ে রাখুন ফেসবুকের বন্ধুদের তালিকা:

জনপ্রিয় সামাজিক ওয়েবসাইট ফেসবুকে প্রোফাইলে বন্ধুদের সংখ্যা এবং লিস্টে প্রদর্শিত হয়। তবে কেউ চাইলে প্রাইভেসির মাধ্যমে নিজের বন্ধুদের তালিকা অন্য বন্ধুদের বা নির্দিষ্ট কারো কাছ থেকে লুকিয়ে রাখা যায়। এজন্য বন্ধুদেরকে লিস্ট করে রাখলে সুবিধা হবে কারণ লিস্টগুলোকে সহজেই তালিকাভুক্ত করা যায়।
লিস্ট তৈরী করা: ফেসবুকে লগইন করে Friends থেকে All Friends এ যান। এবার বন্ধুদের নামের ডানে Add to list এ ক্লিক করে Create New List টেক্সট বক্সে নতুন গ্রুপের নাম লিখে (আগে থেকে লিস্টের নাম না থাকলে) এন্টার করুন আর তৈরী করা লিস্টে যুক্ত করতে চাইলে লিস্টের উপরে ক্লিক করলেই হবে। এভাবে প্রত্যেক বন্ধুকে ইচ্ছামত লিস্টে যুক্ত করুন।

বন্ধুদের তালিকা প্রদর্শন না করা:

এজন্য Settings>Privacy Settings এ যান। এবার Profile এ ক্লিক করে Friends এর ড্রপডাউন থেকে Customize এ ক্লিক করুন। এবার Only Friends চেক করে Except These People এর টেক্সট বক্স এ লিস্টের নাম লিখলে লিস্টটি দেখবে, লিস্টের উপরে ক্লিক করলে তা উপরের তালিকায় যোগ হবে। এভাবে আপনি যে যে লিস্টের বন্ধুকে বা লিস্ট ছাড়া কোন বন্ধুকে বন্ধুদের সংখ্যা এবং তালিকা দেখাতে না সেগুলো যোগ করে Okay করুন। এরপরে Save Changes বাটনে ক্লিক করে সেভ করুন। তাহলে উক্ত বন্ধুরা আপনার মোট বন্ধুর সংখ্যা এবং তালিকা দেখতে পারবে না তবে Mutual Friends এর সংখ্যা এবং তালিকা দেখতে পারবে।

ফেসবুকের ভিডিও ডাউনলোড করা:

জনপ্রিয় সামাজিক নেটওয়ার্ক ওয়েবসাইট ফেসবুকে সাধারণত ভিডিও ডাউনলোড করা যায় না। কিন্তু ফায়ারফক্স ব্যবহারকারীরা সহজেই একটি এ্যাড-অন্স ইনস্টল করে অনায়াসে যেকোন ভিডিও ডাউনলোডের পাশাপাশি কনভার্ট, এ্যামবেট এবং কোড কাস্টমাইজ করতে পারবে। এজন্য https://addons.mozilla.org/en-US/firefox/addon/9614 থেকে এ্যাড-অন্সটি ইনস্টল করে ফায়ারফক্স রিস্টার্ট করতে হবে। তাহলে ফেসবুকের ভিডিওর নিচে Download Video | Convert Video | Embed this Video | Customize Code আসবে। ভিডিও ডাউনলোড করলে MP4 ফরম্যাটে সেভ হবে। আর কনভার্ট করলে www.zamzar.com সাইটের মাধ্যমে অনলাইন কনভার্ট হবে।

অরকুটের বন্ধুদের ফেসবুকে আনা:

সামাজিক ওয়েবসাইট অরকুটে যাদের একাউন্ট আছে তারা চাইলে অরকুটের বন্ধুদেরকে ফেসবুকে আমন্ত্রণ জানাতে পারবেন সহজেই।
এজন্য www.facebook.com/find-friends/?orkut সাইটে যান এবং Click Here to Login to Orkut বাটনে ক্লিক করে অরকুট একাউন্টে লগইন করুন। অরকুটের টপবারে Friends এ ক্লিক করে নিচের ডানে Export contacts এর Export contacts বাটনে ক্লিক করে বন্ধুদের মেইল ঠিকানা (ধরি contacts.csv নামে) সেভ করুন।
এখন পূর্বের (ফেসুবকের) পেজে ফিরে এসে Browse বাটনে ক্লিক করে সেভ করা contacts.csv ফাইলটি নির্বাচন করে Find Friends বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে উক্ত contacts.csv ফাইলটিতে থাকা বন্ধুদের মধ্যে কতগুলো বন্ধু আপনার ফেসবুকে বন্ধু হিসাবে আছে, কতগুলোর ফেসবুকে একাউন্ট আছে অথচ আপনার বন্ধু হিসাবে নেই ইত্যাদি তথ্য দেখাবে। এখন যাদের ফেসবুকে একাউন্ট আছে অথচ আপনার বন্ধু হিসাবে নেই তাদেরকে বন্ধু হিসাবে যোগ করতে Select All Friends এ চেক করে নিচের Ad as Friends বাটনে ক্লিক করুন তাহলে সকলের কাছে আপনার আমন্ত্রণ পৌছে যাবে। এরপরে যাদের ফেসবুকে একাউন্ট নেই তাদের তালিকা আসবে। আপনি যদি সবাইকে ফেসবুকে একাউন্ট খোলার আমন্ত্রণ জানাতে চান তাহলে সকল ঠিকানা নির্বাচিত রেখে Invite to Join বাটনে ক্লিক করুন।
ব্যাস এভাবে আপনি অরকুটের বন্ধুদেরকে ফেসবুকেও বন্ধু হিসাবে পেতে পারেন।

ফেসবুকের প্রোফাইলে ভিন্ন ধারার ছবি:

জনপ্রিয় সামাজিক ওয়েবাসাইট ফেসবুকের প্রোফাইলের ছবিতে একটু ভিন্ন মাত্রা আনা যায় প্রোফাইল মেকার দ্বারা। এতে ফেসবুকের বন্ধুরা আপনার প্রোফাইলের ছবি ছাড়াও এ্যালবামের ছবি মিলে পূর্ণ একটি ছবি দেখতে পারবে।
এজন্য http://apps.facebook.com/profile-maker/ গিয়ে এ্যাপসটি সক্রিয় করে Upload Photo বাটনে ক্লিক করে পছন্দের ছবিটি আনুন। এবার Zoom এর স্ক্রল বাটন এ ক্লিক করে ছবিটি ছোট-বড় করতে পারেন। এবং Add or remove info lines এর – বা + এ ক্লিক করে ডানের ছবিগুলো উপরে-নিচে নিতে পারেন। এছাড়াও ছবির উপরে ক্লিক করে এদিকে-ওদিকে সরাতে পারেন। অবশেষে Create Profile বাটনে ক্লিক করলে কিছুক্ষণের মধ্যে প্রোফাইলে ছবি তৈরী হবে। এবার Go to Photo বাটনে ক্লিক করে নিচের Make Profile Picture লিংকে ক্লিক করুন। এবার আপনার ফেসবুকের বন্ধুরা আপনার ফেসবুকের প্রোফাইল দেখবে ভিন্ন আঙ্গিকে।

ফেসবুকে রিমোট লগআউট সুবিধা:

সাইবার ক্যাফে বা বন্ধুর কম্পিউটার ফেসবুক ব্যবহার করে যদি লগআউট করতে ভুলে যান বা কোন কারণে লগআউট করা না যায় তাহলে একাউন্টে নিরাপত্তা নিয়ে চিন্তিত থাকতে হয়। যদি পরবর্তিতে অন্য কোন কম্পিউটারে বসে পূববর্তী কম্পিউটারে লগআউট করা যায় তাহলে কেমন হয়! যেমনটি করা যায় জিমেইলে। ফেসবুক সমপ্রতি রিমোট লগআউট করার সুবিধা দিয়েছে, ফলে পূর্ববর্তী সেশনেগুলো থেকে সহজেই লগআউট করা যাবে নিজের একাউন্ট। এজন্য ফেসবুক লগইন করার সময় কম্পিউটারের নাম নিচ্ছে।
রিমোটলি লগআউট করতে ফেসবুকে লগইন করার পরে উপরে ডানে Accounts থেকে Account Settings যেতে হবে। এবার Account Security এ ক্লিক করলে Most Recent Activity শিরোনামে চলতি কম্পিউটারটি এবং Also Active শিরোনামে লগইন সক্রিয় অবস্থায় আছে এমন কম্পিউটারের সময় (তারিখ, সর্বশেষ সময়), কোথায় (শহর, প্রদেশ, দেশ, আইপি), ব্রাউজার, অপারেটিং সিস্টেম, কোন কম্পিউটারে ফেসবুক ব্যবহার করেছেন ইত্যাদি তথ্যসহ তালিকা দেখাবে। এখন তালকাভুক্ত পূর্ববর্তী কম্পিউটার থেকে লগআউট করতে উক্ত সেশনের ডানে End Activity লিংকে ক্লিক করলেই হবে।

স্কাইপ এ ফেসবুকের তথ্য:

ভার্চুয়াল পাঠশালা জেনে নিন ফেসবুকের A টু Z

জনপ্রিয় ইন্টারনেট ভিত্তিক ফোন সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান স্কাইপ এর সাথে আরেক জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগের ওয়েবসাইট ফেসবুকের চুক্তি হয়েছে বেশ কিছুদিন আগে। এই চুক্তির ফলে ভয়েস চ্যাট এবং এমএসএস করার সুবিধা আরো উম্মুক্ত হলো। এখন থেকে স্কাইপ থেকেই ফেসবুকের আপডেট পাওয়া যাবে এবং ফেসবুকের বন্ধুদেরকে স্কাইপ এ যুক্ত না করেই কল করা যাবে এবং এসএমএস করা যাবে। বর্তমানে উভয়রই নিবন্ধিত ব্যবহারকারীর সংখ্যা ৫০ কোটির ছাড়িয়ে গেছে। তবে নতুন এসব সুবিধা পেতে অবশ্য ৫.০ সংস্করণের স্কাইপ ইনস্টল থাকতে হবে। সফটওয়্যারটি অনলাইন সংস্করণ www.skype.com থেকে ডাউনলোড করা যাবে। আর অফলাইন সংস্করণ www.filehippo.com থেকে skype লিখে সার্চ করে ডাউনলোড করা যাবে।

  • স্কাইপ এ ফেসবুক যুক্ত করা:

এজন্য ভিউ ট্যাবে গিয়ে Add Facebook updates এ ক্লিক করলে Facebook নামে একটি ট্যাব আসবে। এবার See News feed in Skype বাটনে ক্লিক করে ফেসবুকে লগইন করলে ফেসবুকের আপডেটগুলো দেখাবে।

  • স্কাইপ থেকে ফেসবুকের বন্ধুদের কল বা এসএমএস করা:

ফেসবুক ট্যাবে নিউজ ফেডের ডানে কল এবং এমএসএস বাটন আসবে (সবার নয়)যাদের কল বা এসএমএস বাটন আসবে তাদেরকে উক্ত বাটনে ক্লিক করে কল করা যাবে বা এসএমএস পাঠানো যাবে।

  • স্কাইপ থেকে ফেসবুক মুছে ফেলা:

ফেসবুক ট্যাবের Disable News Feed বাটনে ক্লিক করে Are you sure you don’t want to show Facebook in Skype? এর Remove বাটনে ক্লিক করলে ফেসবুক স্কাইপ থেকে বিছিন্ন হয়ে যাবে। পরবর্তীতে চাইলে ভিউ ট্যাবে গিয়ে আবার ফেসবুককে স্কাইপ এ যুক্ত করা যাবে।

ফেসবুকের দুই ব্যবহারকারীর মিল খুঁজে পাওয়া:

জনপ্রিয় সামাজিক ওয়েবসাইট ফেসবুকের ব্যবহারকারীরা যদি তার আরেক বন্ধুৃর সাথে নিজের অথবা অন্য দুটি বন্ধুর মধ্যে অথবা অন্য যেকোন দুই ফেসবুক ব্যবহারকারীর মধ্যে কি কি মিল আছে তা জানতে পারতো তাহলে কেমন হবে! একটি একটি করে মিল না খুঁজে সহজেই দুই ফেসবুক ব্যবহারকারীর মধ্যে মিল খুঁজে পাওয়া যাবে www.facebook.com/mehdiakram?and=akabul এমন একটি লিংক থেকে। ফেসুবকে লগইন অবস্থায় ওয়েব ব্রাউজারের এড্রেসবারে উপরোক্ত লিংকটি লিখে এন্টার করলে mehdiakram এবং akabul ব্যবহারকারীর মধ্যে মিল আছে এমন বিষয়গুলো চলে আসবে। ব্যবহারকারীর নামের (ইউজার নেম) পরিবর্তে প্রোফাইল আইডি দিয়েও মিল বের করা যাবে। দুই ফেসবুক ব্যবহারকারীর মধ্যে মিল হিসাবে কমন বন্ধু, মন্তব্য করা পোস্ট, ছবি, ওয়াল পোস্ট, পছন্দের পেজ ইত্যাদি রয়েছে। এছাড়াও ডানে Browse Friendships এ এরকম কিছু বন্ধুর তুলনামূলক লিংক সাজেশন রয়েছে।

‘সুপাসিঙক’ দ্বারা ফেসবুক এবং টুইটারের মধ্যে সিঙক্রোনাইজ করা:

জনপ্রিয় সামাজিক সাইটের ফেসবুক এবং টুইটার অন্যতম। টুইটারে আপডেট করা স্ট্যাটাস যদি ফেসবুকে সয়ংক্রিয়ভাবে নেওয়া যেত তাহলে কেমন হতো। এরকমই কিছু এ্যাপলিকেশনগুলোর মধ্যে http://apps.facebook.com/supasync অন্যতম। সুপার সিঙক্রোনাইজ দ্বারা সহজেই ফেসবুকের ওয়ালের পোস্ট এবং টুইটারের স্ট্যাটাস এর মধ্যে সিঙক্রোনাইজ করা যায়। এজন্য এ্যালিকেশনটির পেজে গিয়ে Allow বাটনে ক্লিক করুন এবং পরবর্তী পেজ থেকে Sign in with Twitter বাটনে ক্লিক করুন। এখন টুইটারে লগইন করা থাকলে টুইটারের ইউজার নাম এবং পাসওয়ার্ড দ্বারা দিয়ে Allow বাটনে ক্লিক করুন। তাহলে টুইটারের সাথে অথেনটিকেটিং শেষে এ্যাপলিকেশনটির মূল পেজে ফিরে আসবে, যেখানে দরকারী পরিবর্তন করে Save Settings বাটনে ক্লিক করুন। ব্যাস এখন থেকে টুইটারের স্ট্যাটাস ফেসবুকের ওয়ালে চলে আসবে আর ফেসবুকের পোষ্ট টু্‌ইটারে আপডেট হবে।

পিকাসা থেকে ফেসবুকে ছবি আপলোড করা যাবে:

ভার্চুয়াল পাঠশালা জেনে নিন ফেসবুকের A টু Z

জনপ্রিয় সামাজিক সাইট ফেসবুকে ছবি আপলোড করা যাবে আরেক জনপ্রিয় ছবি আপলোড করার সফটওয়্যার গুগল পিকাসা দ্বারা। এজন্য পিকাসাতে কয়েক কিলোবাইটের একটি প্লাগইন ইনস্টল করলেই হবে। এই প্লাগইনটি পিকাসা ২.৫ বা এর পরবর্তী সংস্করণে ব্যবহার করা যাবে। প্লাগইন ইনস্টল করার জন্য কম্পিউটারে পিকাসা ইনস্টল থাকতে হবে। পিকাসা না থাকলে http://picasa.google.com থেকে ডাউনলোড করে ইনস্টল করা যাবে। এবার http://apps.facebook.com/picasauploader সাইটে গিয়ে INSTALL NOW বাটনে ক্লিক করলে Launch Application উইন্ডো আসবে। এখানে পিকাসা নির্বাচিত রেখে Ok করলে Confirm ম্যাসজে আসলে Yes করে Configures Buttons থেকে Add>> বাটনে ক্লিক করে Ok করলে পিকাসার নিচের ফেসবুক বাটন যুক্ত হবে। এই বাটনে ক্লিক করে পিকাসার মত ফেসবুকে ছবি আপলোড করা যাবে।

ডেক্সটপ থেকে জানা যাবে ফেসবুকের আপডেট:

জনপ্রিয় সামাজিক নেটওয়ার্ক ফেসবুকে কোন স্ট্যাটাস পোস্ট করতে, রিকোয়েস্ট বা ম্যাসেজ এসেছ কি না দেখতে ফেসবুকে লগইন করতে হয়। ওয়েব সাইটে না গিয়েও ফেসবুক নোটিফিকেশনস এ্যাপলিকেশন দ্বারা আপটেড জানা যাবে এবং পোস্ট করা যাবে। ৯০১ কিলোবাইটের এই ফ্রিওয়্যার সফটওয়্যারটি http://code.google.com/p/apjunktion-notifications থেকে ডাউনলোড করে ইনস্টল করে নিন। সফটওয়্যারটি ইনস্টল করতে মাইক্রোসফট ডট নেট ফ্রেমওয়ার্ক ইনস্টল থাকতে হবে। এখন সফটওয়্যাটি ইনস্টল করে লগইন করুন তাহলে একটি স্ট্যাটাসবারে ফেসবুকের বর্তমান স্ট্যাটাস দেখাবে। এখানে থেকে ফেসবুকে পোস্টও করা যাবে। ♦♦♦♦♦♦
(সংগ্রিহীত)

30 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ