এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ

0
55

হ্যালো টিউনারবৃন্দ,
সবাই ভালো আছেন তো?
সবাইকে শুভেচ্ছা জানিয়ে শুরু করছি আমার আজকের টিউন ওয়ালটন Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
৯২৯০ টাকা দামের Primo H6 Lite এর সবথেকে আকর্ষণীয় দিক হলো এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা আর BSI সেন্সরযুক্ত ১৩ মেগাপিক্সেলের অটোফোকাস রেয়ার ক্যামেরা। এতে আরও আছে ৫.৫ ইঞ্চি ডিসপ্লে, ২ গিগাবাইট র‍্যাম, ১৬ গিগাবাইট রম, অ্যান্ড্রয়েড ৭.০ নউগ্যাট অপারেটিং সিস্টেম, ২৭০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি প্রভৃতি।
ফোনটির পারফরম্যান্স, ডিজাইন আর স্পেসিফিকেশনের ব্যাখ্যা-বিশ্লেষণ নিয়েই এই রিভিউ টিউনটি সাজানো হয়েছে।
Primo H6 Lite hands-on এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
বিস্তারিত রিভিউ শুরু করার আগে ফোনটির ফিচার আর পছন্দনীয় দিকগুলো দেখে নিন-
একনজরে Primo H6 Lite এর উল্লেখযোগ্য ফিচারসমূহ-

  • ১৩ মেগাপিক্সেল রেয়ার ক্যামেরা
  • ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা
  • ৫.৫ ইঞ্চি ডিসপ্লে
  • ২৭০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ার ব্যাটারি
  • ১.৩ গিগাহার্টজ কোয়াডকোর প্রসেসর
  • মালি-৪০০ জিপিউ
  • ১৬ গিগাবাইট রম
  • ২ গিগাবাইট র‍্যাম
  • নউগ্যাট অপারেটিং সিস্টেম

Primo H6 Lite hands-on এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
Primo H6 Lite এর পছন্দনীয় দিকসমূহঃ

  • এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা
  • BSI সেন্সরযুক্ত ১৩ মেগাপিক্সেলের রেয়ার ক্যামেরা
  • নউগ্যাট ওএস আর মাল্টি উইন্ডো

Primo H6 Lite review এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
আনবক্সিং:
Primo H6 Lite সাথে যা যা পাবেন-

  • ইউজার ম্যানুয়াল
  • ওয়ারেন্টি কার্ড
  • চার্জিং অ্যাডাপ্টার
  • ডাটা ক্যাবল
  • ইয়ারফোন

Primo H6 Lite Unboxing এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
বিল্ড কোয়ালিটি ও ডিজাইনঃ
ডিজাইনের দিক থেকে বেশ আকর্ষণীয় Primo H6 Lite; ১৫৪.৩ মিলিমিটার উচ্চতার Primo H6 Lite প্রস্থে ৭৭ মিলিমিটার আর পুরুত্বে ৭.৯ মিলিমিটার। ব্যাটারিসহ এই ফোনের ওজন ১৬০ গ্রাম।
Primo H6 Lite front এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
এই ফোনের রেয়ার ক্যামেরা, এলইডি ফ্ল্যাশ রয়েছে পেছনের অংশে আর সামনের দিকে উপরের অংশে আছে ফ্ল্যাশলাইট, ফ্রন্ট ক্যামেরা, প্রক্সিমিটি সেন্সর আর নোটিফিকেশন লাইট। এর ইউএসবি পোর্ট ও স্পিকার রয়েছে নিচের দিকে আর ৩.৫ মিলিমিটার অডিও পোর্টটি রয়েছে উপরের দিকে। এর ভলিউম কী ও পাওয়ার কী দুটোই একইপার্শ্বে-
Primo H6 Lite front এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
অপারেটিং সিস্টেম:
এই ফোনে অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে পাবেন অ্যান্ড্রয়েডের আপডেটেড সংস্করণ অ্যান্ড্রয়েড ৭.০ নউগ্যাট।
Primo H6 Lite os এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
ডিসপ্লে ও ইউজার ইন্টারফেস:
৫.৫ ইঞ্চি ডিসপ্লের Primo H6 Lite এর ডিসপ্লের রেজোল্যুশন ১২৮০x৭২০ পিক্সেল; দেখে নিন অ্যান্ড্রয়েড ৭.০ নউগ্যাট ওএসসমৃদ্ধ এই ফোনের ইউজার ইন্টারফেস-
Primo H6 Lite User Interface এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
ক্যামেরা পারফরম্যান্সঃ
ব্যবহারকারী যেনো দারুণ ছবি তুলতে পারেন সেজন্য এর ১৩ মেগাপিক্সেল রেয়ার ক্যামেরায় BSI সেন্সর ব্যবহৃত হয়েছে, সেইসাথে আছে এলইডি ফ্ল্যাশ, অটোফোকাস, টাচ ফোকাস, প্যানোরোমা, ফেস বিউটি ইত্যাদি।
Primo H6 Lite এর ক্যামেরা ইন্টারফেস ও সেটিংস–
Primo H6 Lite camera settings এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
Primo H6 Lite এর রেয়ার ক্যামেরায় তোলা ছবিঃ
Primo H6 Lite camera sample এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
আর সেলফি তুলতে চাইলে এই ফোনে পাবেন এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা।
Primo H6 Lite front camera sample এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
হার্ডওয়্যারঃ
১৬ গিগাবাইট ইন্টারনাল স্টোরেজের এই ফোনে ১২৮ গিগাবাইট পর্যন্ত এক্সটারনাল মেমোরী কার্ড ব্যবহার করা যায়, সেইসাথে এতে ২ গিগাবাইট র‍্যাম আছে।
Primo H6 Lite hands-on memory এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
স্মুথ পারফরম্যান্সের জন্য সাশ্রয়ী বাজেটের Primo H6 Lite এ ১.৩ গিগাহার্টজ কোয়াডকোর প্রসেসর, মিডিয়াটেকের চিপসেট আর মালি-৪০০ জিপিউ ব্যবহৃত হয়েছে।
Primo H6 Lite cpu chipset এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
বেঞ্চমার্ক:
AnTuTu বেঞ্চমার্কে Primo H6 Lite এর স্কোর এসেছিলো ২৪২১৫; অন্যদিকে GeekBench এ স্কোর এসেছে ৪১৪ (সিঙ্গেল-কোর) ও ১১৯০ (মাল্টি-কোর)
Primo H6 Lite antutu benchmark এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
Nenamark এ এই ফোনের স্কোর ৫৪.৪
Primo Primo H6 Lite hands-on review Nenamark Score এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
গেমিং পারফরম্যান্স:
কোয়াডকোর প্রসেসর ও ২ গিগাবাইট র‍্যাম থাকায় Primo H6 Lite এ এক্সট্রিম স্ক্যাটার, অ্যামেজিং স্পাইডারম্যান ২, ফুটবল ম্যানেজারসহ বিভিন্ন ধরণের এইচডি গেম বেশ স্মুথলি খেলতে পেরেছি।
Primo H6 Lite hands-on gaming performance এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
/>
মাল্টিমিডিয়া পারফরম্যান্সঃ
এই ফোনের অডিও সাউন্ড কোয়ালিটি পছন্দ হয়েছে। আর এতে ১০৮০ পি ফুল এইচডি ভিডিও কোন ধরণের ল্যাগ ছাড়াই চলেছে।

কানেক্টিভিটি:
এই ফোনে OTA বা Over The Air আপডেট সুবিধা রয়েছে, যার ফলে পিসির সাথে সংযুক্ত করা ছাড়াই এর সফটওয়্যার আপডেট করা যাবে। ডুয়েল সিম সাপোর্টেড Primo H6 Lite এ ব্লুটুথ ৪.০, ওয়াইফাই, ওয়্যারলেস হটস্পট, জিপিএস, এ-জিপিএস ইত্যাদি সুবিধা আছে। এছাড়া এই ফোনে অ্যাক্সিলেরোমিটার, লাইট ও প্রক্সিমিটি সেন্সর আছে।
Primo H6 Lite OTA এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
/>
ব্যাটারি ব্যাকআপঃ
২৭০০ মিলিঅ্যাম্পিয়ারের লিথিয়াম-আয়ন ব্যাটারির Primo H6 Lite এর ব্যাটারি ব্যাকআপ ভালোই, একবার ফুল চার্জ দিয়ে স্বাভাবিক ব্যবহারে একদিন চালানো যায়। এর স্ক্রিন অন টাইম প্রায় ৬ ঘন্টা।
Primo H6 Lite Battery এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর হ্যান্ডস-অন রিভিউ
মূল্যঃ
দারুণ ডিজাইন, আকর্ষণীয় নানা ফিচার আর ১৩ মেগাপিক্সেল রেয়ার ক্যামেরার Walton Primo H6 Lite এর বর্তমান বাজারমূল্য ৯,২৯০ টাকা, কনফিগারেশন বিবেচনায় নিলে এই মূল্যকে যথেষ্ট সাশ্রয়ী বলতে হয়।

শেষ কথাঃ
প্রিয় পাঠক, এবার সিদ্ধান্তের পালা! স্লিম ডিজাইন, এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা, BSI সেন্সরযুক্ত ১৩ মেগাপিক্সেলের রেয়ার ক্যামেরা, অ্যান্ড্রয়েড নউগ্যাট অপারেটিং সিস্টেম ইত্যাদি দিক বিবেচনা করলে ১০ হাজার টাকা বাজেটের মধ্যে Primo H6 Lite অন্যতম শীর্ষ পছন্দের ফোন। বিশেষ করে এর এলইডি ফ্ল্যাশযুক্ত ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা আলাদাভাবে আপনার নজর কাড়তে সক্ষম।

আজ এপর্যন্তই। নতুন কোন টিউন নিয়ে দেখা হবে আবারও! সেই পর্যন্ত সবাই ভালো থাকুন। আল্লাহ্‌ হাফিজ।

একটি উত্তর ত্যাগ