অক্টোপাসের আত্মরক্ষা অদ্ভুত কৌশল  FavoriteLoadingবুকমার্ক

সমুদ্রে পৃষ্ঠ থেকে ১০০০ মিটার নিচে যেখানে সূর্যের অতি দীর্ঘ তরঙ্গ দৈর্ঘ্যের লাল আলো প্রায় পৌছতে পারে না বললেই চলে। এজন্য শিকারির হাত থেকে বাঁচার জন্য প্রাণীরা অভিযোজিত হয়ে ধারণ করে লাল রঙ।

কিন্তু পানি পৃষ্ঠ থেকে ৫০০-৬০০ মিটার প্রাণীদের কথাই ধরুন (যেমন অক্টোপাস বা স্কুইড),বেচারাদের তো এমন হবার জো নেই।তাই তারা বেছে নিয়েছে ভিন্ন এক পদ্ধতি। এসব প্রাণীদের বেশির ভাগেরই শরীর হয় স্বচ্ছ। এই ধরনের কিছু অক্টোপাসকে ল্যাবরেটরিতে গবেষণা করলে বের হয়ে আসে কিছু অদ্ভুত তথ্য।

index অক্টোপাসের আত্মরক্ষা অদ্ভুত কৌশল

তার একটি হল এইসব স্বচ্ছ স্কুইড কিংবা অক্টোপাসের গায়ের উপর যখন তীব্র নীল আলো নিক্ষেপ করা হয় তখন চামড়ার ঠিক নিচে অবস্থানকারী পিগমেন্ট সমৃদ্ধ কোষের সহায়তায় এরা ধারণ করে লাল রঙ।

আর আমরাতো জানি নীল আলোয় লাল রঙ দেখা খুব মুশকিল। তাই এসব প্রাণী পিগমেন্ট সমৃদ্ধ কোষের সহায়তায় সূর্যের নীল রঙের আলোতে লাল রঙ ধারণ করে। তাই এরাও এভাবে বেঁচে যায় শিকারি প্রাণীদের হাত থেকে।

এই জাতীয় আরো টিউন

আপনিও লিখুন মতামতের উত্তর

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

16 − four =