স্মার্টফোন ও ট্যাবের ব্যাটারি ব্যবহারে সতর্কতা

0
338

স্মার্টফোন ও ট্যাব আমাদের নিত্যদিনের সঙ্গী হয়ে উঠেছে। অনেকেই স্মার্টফোন থেকে একদিন বিচ্ছিন্ন থাকতে পারেন না। আর এটি অতিমাত্রায় চার্জ দেয়ায় প্রায়ই ব্যাটারি বিস্ফোরিত হয়ে দুর্ঘটনার খবর পাওয়া যায়। এ ছাড়া ইলেকট্রিক শকেও আহত হন অনেকে। তাই এটি চার্জের ক্ষেত্রে কিছু সতর্কতা মেনে চলা খুব প্রয়োজন।

স্মার্টফোন ও ট্যাবলেটের চার্জার আলাদা রাখুন

স্মার্টফোন ও ট্যাবলেটে চার্জ দেওয়ার ক্ষেত্রে শেয়ারিং অ্যাডাপ্টার ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। কারণ এদের চার্জিংয়ের জন্য আলাদা মাত্রার বিদ্যুৎ দরকার। কমবেশি হলে দুটো গ্যাজেটই নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

 সারা রাত ফোনে চার্জ দেবেন না

সারা রাত ফোনে চার্জ দেওয়াটা খুব ঝুঁকিপূর্ণ। এতে ব্যাটারি মাত্রাতিরিক্ত চার্জ হয়ে গরম হয়ে যায়। ফলে ব্যাটারির আয়ুস্কাল কমে যায়। দিনে বাড়তি সময়ে মনে করে ফোনে চার্জ দিন।

 নিয়মিত ব্যাটারি বদলান

যদি আপনার স্মার্টফোনের চার্জ তাড়াতাড়ি শেষ হয়ে যায়, তবে বুঝতে হবে ব্যাটারির আয়ু প্রায় ফুরিয়ে এসেছে। এর জন্য একটা ছোট পরীক্ষা করতে হবে। ব্যাটারিটা খুলে দেখুন সেটি ফুলেছে কি না? নিশ্চিত হওয়ার জন্য সমতল পৃষ্ঠে ব্যাটারিটি রেখে ঘোরান। যদি ব্যাটারি ঠিকমতো ঘোরে, তাহলে বুঝতে হবে ব্যাটারি বদলানো জরুরি।

 নন-ব্র্যান্ডের ব্যাটারি ব্যবহার করবেন না

ব্যাটারি কেনার সময় সতর্ক থাকুন। মূল প্রতিষ্ঠানের অনুমোদিত সার্ভিস সেন্টার থেকে আসল ব্যাটারি কিনুন। নন-ব্র্যান্ডের ব্যাটারি ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। কারণ এসব ব্যাটারি নিরাপদ কি না, সেটার কোনো নিশ্চয়তা নেই। সস্তা নন-ব্র্যান্ডের ব্যাটারি আপনার ফোনের ক্ষতি করতে পারে।

 ফোন চার্জে থাকার সময় কথা বলবেন না

ফোন চার্জে থাকার সময় ফোনে কথা বলা থেকে বিরত থাকুন। চার্জিংয়ের সময় ব্যাটারি গরম হয়ে থাকে, কথা বলার সময়ও ব্যাটারি গরম হয়। মাত্রাতিরিক্ত গরম হয়ে গেলে ব্যাটারি বিস্ফোরিত হওয়ার আশঙ্কা থাকে। একান্তই কথা বলতে হলে ব্লুটুথ হেডসেট ব্যবহার করে কথা বলতে পারেন। নয় তো চার্জার খুলে কথা বলুন। নিজের নিরাপত্তা আগে।

LEAVE A REPLY

thirteen + 15 =