অ্যান্ড্রয়েড ডিভাইসের টিপস

0
364

আপনার অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন বা ট্যাবে ব্যক্তিগত বহু জিনিস থাকে। এতে থাকতে পারে নানা স্পর্শকাতর তথ্য। তাই একে গোপন রাখতে নিরাপত্তাব্যবস্থা জোরদার করতে হবে। এখানে নিন গুগলের দেওয়া কিছু টিপস।

১. অ্যান্ড্রয়েড স্মার্টফোন বা ট্যাবের ডিভাইস ম্যানেজার অন অবস্থায় রাখুন। যন্ত্রটি চুরি হলে বা অন্য কারো হাতে গেলে এটি দারুণ কাজ দেবে। গুগল অ্যাকাউন্টে সাইন ইন হয়ে আছেন কিনা তা নিশ্চিত করুন। এর ‘রিমোটলি লোকেট দিস ডিভাইস’ এবং ‘অ্যালাও রিমোট লক অ্যান্ড আর্স’ অপশন দুটি চালু রয়েছে।

২. পিন কোডের মাধ্যমে স্ক্রিন লক চালু রাখুন। ললিপপ ৫.০ বা তার পরের কোনো সংস্করণ থাকলে অটো আনলক ব্যবহার করতে পারেন।

৩. আপনার যোগাযোগের ফোন নম্বর অর্থাৎ ইমেইল বা ফোন নম্বর লক স্ক্রিনে অ্যাড করুন। এতে যন্ত্রটি হারিয়ে গেলে কেউ ফেরত দিতে চাইলে সহজে আপনার নম্বর পেয়ে যাবেন।

৪. ফোনের তথ্য এনক্রিপ্ট করে রাখুন। এতে সব তথ্য নিরাপদ থাকবে। অ্যান্ড্রয়েড জেলি বিন ৪.১ বা তার উন্নত সংস্করণে এ সুবিধা রয়েছে।

৫. অজানা কোনো সোর্স থেকে কোনো অ্যাপ ডাউনলোড করা থেকে বিরত থাকুন। তাই বিশ্বস্ত এবং চেনাজানা কোনো অ্যাপ মার্কেট থেকে অ্যাপ নিন। আর দেখে নিন অ্যাপটি এমন তথ্য চায় কিনা যা আপনি দিতে চান না। আরো বুঝে নিন, অ্যাপটি নামাতে গোপনে বা অন্য কোনো উপায়ে ফি কেটে নিচ্ছে কিনা। এসব তথ্য সম্পর্কে না জেনে কোন সোর্স থেকে অ্যাপ নামাবেন না।

৬. অনলাইনে থাকলে নানা ধরনের বিজ্ঞাপন আসবে। এসব বিজ্ঞাপনে ক্লিক করার আগে সাবধান থাকতে হবে। যে বিজ্ঞাপনে ক্লিক করলে আনপার পাসওয়ার্ড বা গোপন কোনো তথ্য জানতে চায় তা নিয়ে আর এগোবেন না।

৭. সবচেয়ে ভালো উপায়টি হলো ব্যাকআপ রাখা। এতে যাই ঘটুক না কেন, যাবতীয় তথ্য আবার ফেরত পাবেন।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

sixteen + 4 =