বাতাসে চলবে গাড়ি

0
284

ভাবুন তো, গাড়ি চলছে, অথচ কালো ধোঁয়া নেই। কার্বন ডাই অক্সাইড, মনো অক্সাইড, হাইড্রো কার্বন বা বেঞ্জিন নয়, গাড়ির বর্জ্য বলতে শুধুই পানি। তাও এতটাই বিশুদ্ধ যে আপনি অনায়াসে তা পান করতে পারেন। Winnd বাতাসে চলবে গাড়ি
শুনতে কল্প বিজ্ঞানের গল্পের মতো লাগলেও এই নতুন গাড়ি বাণিজ্যিকভাবে বাজারে আনতে চলেছে টয়োটা। নাম টয়োটা মিরাই।

পেট্রল বা ডিজেলে নয়, মিরাই চলবে বায়ুমন্ডলের সবথেকে বেশি পাওয়া যায় যে উপাদানটি, সেই হাইড্রোজেনে।

পেট্রল পাম্পে গিয়ে তেলের বদলে ভরে নিতে হবে হাইড্রোজেন। ব্যাস! গাড়ির ভিতরেই হাইড্রোজেন ও অক্সিজেনের মধ্যে রাসায়নিক বিক্রিয়া হবে ও গাড়ি চলতে শুরু করবে। বিক্রিয়ার অবশেষ হয়ে পড়ে থাকবে পানি। তাও বিশুদ্ধ।
নয়া এই গাড়ির গতিবেগ ১১১ মাইল প্রতি ঘণ্টা। একবার ফুল ট্যাঙ্ক গ্যাস ভরলে চলার ক্ষমতা রয়েছে ৩০০ মাইল। মাত্র ৯.৬ সেকেন্ডে এই গাড়ি ০ থেকে ৬২ মাইল গিতবেগ তুলতে সক্ষম। অ্যাক্সিডেন্ট হলেও এই গাড়িতে আগুন লাগার কোনও শঙ্কাই নেই, কারণ এই গাড়িতে তেলের ব্যবহারই নেই।

বাংলাদেশের টাকায় গাড়িটির দাম পড়বে প্রায় ৮২ লক্ষ টাকা।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

17 − 8 =