জেনে নিন , কীভাবে আমি একজন ভাল শ্রোতা হলাম ?

0
542

যদিও অনেক পূর্বের কথা তবে আশা করি আপনাদের অনেক কাজে লাগবে । তখন শ্রোতা হিসেবে আমি তেমন ভাল ছিলাম না, তাই নতুন কার সাথে ভাল বন্ধুত্ব করতে পারি নি অথবা সে আমার বন্ধু, কিন্তু আমার সম্পর্কে তার ভাল ধারণা তৈরী করতে পারি নি ।
 

জেনে নিন , কীভাবে আমি একজন ভাল শ্রোতা হলাম ?

এই সমস্যার সমাধান খুঁজে পেলাম অবশেষে
যখন কিছু পদ্ধতি  জানলাম আমার এক বড়  ভাইয়ের কাছ থেকে । 
সে আমাকে বললো এর সমাধান অতি সহজ।
তুমি শুধু দুই টি  পদ্ধতি অবলম্বন করবে

১.যিনি কথা বলবেন তার মুখের দিকে তাকিয়া থাকবে

২.বক্তার দিকে খানিকটা ঝুকে মন দিয়ে কথা গুলো শুনবে

যেমন ধর, এই যে আমি তোমার সাথে কথা বলছি আর তুমি আমার কথা শুনার জন্য আগ্রহ প্রকাশ করছ ,কারণ আমি যে বিষয় বলছি এটা তোমার জানা অতিব জরুরি তাই আমার কথা অতি মনোজক  সহকারে সুশুনছ তাই আমার কাছেও বক্তা হিসেবে আমর অনেক ভাল লাগছে । ঠিক তার কাছেও অনেক ভাল লাগবে এবং তোমার সম্পর্কে তার অনেক ভালো ধারণা হবে।

আমি তাকে  প্রশ্ন করলাম যদি সে আমার বড় হয় তাহলে আমি কি তার মুখে তাকিয়ে থাকব ?
উত্তরে সে বল্লো আরে বোকা এতে সম্যসার কি আছে ? বরং সে খুশি হবে কারণ  তুমি যখন তার মুখের দিকে তাকিয়া থাকবে সে ভাববে তুমি হয়ত তার প্রতিটি কথা শুনার জন্য খুবই আগ্রহী।

আর ভাল হয়, যদি তুমি তার কথা বলার সময় মাঝে মাঝে ভাল প্রশ্ন করতে পার।  যেমনটা কিছু সময় পূর্বে  আমায় প্রশ্ন করলে – যদি সে আমার বড় হয় তাহলে আমি কি তার মুখে তাকিয়ে থাকব ? এই প্রশ্ন টি আমাদের কথা বলার বিষয় সম্পকিত ছিল। 

মনে রাখবে বক্তা যেই হোক না কেন তার কথা বলার বিষয় যাই হোক না কেন তার কথা ভাল ভাবে শুনবে যদিও তুমি সেই বিষয় আগ্রহী নও তবুও।
কেন না এতেকরে  তোমার সম্পর্কে তার কোন ভুল ধারণা হবে না।

আর সাবধান যখন তুমি শ্রোতা তখন ভুল করেও আমি , আমার, আমাকে এই শব্দ গুল বলবে না বরং চেষ্টা করবে তার রসম্পর্কে জানতে তাই আপনি ,আপনার,আপনাকে  এই শব্দ গুল বেশি বেশি বলার জন্য।
বক্তা তখনি খুব সুশি হবে যখন বক্তার কাছেই তার সমম্পর্কে জানতে চাইবে।

আমি এখন এই পদ্ধতি গুল প্রয়োগ করার ফলে একজন ভাল শ্রোতা ও ভাল বন্ধু। 
 

লেখা টি নেয়া হয়েছে আমার নিজের ওয়েব থেকে।

www.MasumBillah.info

একটি উত্তর ত্যাগ