ফোনকে ইশারায় ডাকা যাবে

0
293

Sci-03-300x169 ফোনকে ইশারায় ডাকা যাবেদূর থেকেই মোবাইল ফোন ইশারা বুঝতে পারবেখুব শিগগির ইশারা-ইঙ্গিতে প্রয়োজনীয় নির্দেশনা দেওয়া যাবে মোবাইল ফোনকে। যুক্তরাষ্ট্রের গবেষকেরা দাবি করেছেন, তাঁদের তৈরি নতুন ‘ওয়্যারলেস সেন্সিং প্রযুক্তি’র সাহায্যে স্মার্টফোনকে জেশ্চার বা ইশারার বিষয়গুলো শেখানো যাবে এবং স্মার্টফোন তা বুঝে সেই অনুযায়ী কাজ করতে পারবে।
ওয়াশিংটন বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকেরা ‘ওয়্যারলেস সেন্সিং প্রযুক্তি’ নিয়ে কাজ করছেন। তাঁদের দাবি, এখন কিছু স্মার্টফোনে ক্যামেরার মাধ্যমে থ্রি-ডি জেশ্চার সেন্সিং প্রযুক্তি ব্যবহৃত হচ্ছে। কিন্তু এতে ব্যাটারির চার্জ দ্রুত শেষ হয়ে যায় এবং ইশারা শনাক্ত করার জন্য হাতের নড়াচড়া স্মার্টফোনের ক্যামেরায় স্পষ্ট হতে হয়। কিন্তু ‘ওয়্যারলেস সেন্সিং প্রযুক্তি’ কম শক্তি খরচ করে। এ ছাড়া প্রযুক্তিটির মাধ্যমে যেকোনো পাশ থেকেও ইশারা বুঝতে পারে স্মার্টফোন।
গবেষকেরা দাবি করেন, মোবাইল ফোনে ওয়্যারলেস ট্রান্সমিশনের সময় আশপাশের অঙ্গভঙ্গি শনাক্ত করা যায় বলে ফোন পকেটে বা ব্যাগের মধ্যে থাকলেও তা কাজ করবে। ভবিষ্যতে ট্যাবলেট বা স্মার্টফোনে এ প্রযুক্তিটি যুক্ত করা সম্ভব হবে।
ওয়াশিংটন বিশ্ববিদ্যালয়ের ইলেকট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং ও কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক ম্যাট রেনল্ড ও শ্বেতক প্যাটেল এই প্রযুক্তি নিয়ে কাজ করছেন।

গবেষক রেনল্ড দাবি করেছেন, ‘এখনকার স্মার্টফোনগুলোতে ক্যামেরা থেকে শুরু করে অ্যাকসিলরোমিটারের মতো বিভিন্ন সেন্সর থাকে, যাতে ফোনের নড়াচড়া শনাক্ত করতে পারে। আমরা এমন একটি সেন্সর তৈরি করেছি, যাতে ফোনের নিজস্ব ওয়্যারলেস ট্রান্সমিশনের প্রতিফলন কাজে লাগিয়ে আশপাশের কোনো ইশারা শনাক্ত করতে পারে। এতে ব্যবহারকারী ফোন স্পর্শ না করে বা ফোনের দিকে না তাকিয়েও ইশারা করতে পারবেন।’
কীভাবে কাজ করবে এই প্রযুক্তি? গবেষকেরা জানিয়েছেন, যখন কেউ ফোন কল করেন বা ইন্টারনেটের মাধ্যমে অ্যাপ ব্যবহার করেন, মোবাইল ফোন তখন টুজি, থ্রিজি বা ফোরজি সেলুলার নেটওয়ার্কে বেতার তরঙ্গ পাঠায়, যাতে সেলুলার বেজ স্টেশনের সঙ্গে যোগাযোগ করা যায়। যখন মোবাইল ফোনের কাছে হাত নড়ানো হয়, তখন ফোন থেকে নির্গত বেতার তরঙ্গ প্রতিফলিত হয়ে ফোনে ফেরত আসে। নতুন এই প্রযুক্তিতে ছোট ছোট একাধিক অ্যানটেনা সেই প্রতিফলিত সংকেতগুলো ধরতে পারে এবং সেই অনুযায়ী ফোনকে কাজ করার নির্দেশ দিতে পারে।
এক খবরে পিটিআই জানিয়েছে, গবেষকেরা তাঁদের এই প্রকল্পের নাম দিয়েছেন ‘সাইডসোয়াইপ’। অক্টোবর মাসে হনুলুলুতে অনুষ্ঠিতব্য ইউজার ইন্টারফেস সফটওয়্যার অ্যান্ড টেকনোলজি বিষয়ক অ্যাসোসিয়েশন ফর কম্পিউটিং মেশিনারিস সিম্পোজিয়ামে এই প্রকল্প সম্পর্কে বিস্তারিত জানাবেন গবেষকেরা।

ফুল ভার্সন সফটওয়্যার ডাউনলোড করতে নিচের লিংকে যান

Download All Full Version Software

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here