অনলাইনে পর্ন দেখা যখন নেশায় ৫২ লাখ টাকারও বেশি ব্যয়

1
502

অনলাইনে পর্ন দেখা যখন নেশা হয়ে দাঁড়ায় তখন কেমন হতে পারে অবস্থা? সম্প্রতি এ নেশায় দিশাহারা এক যুবকের অভিজ্ঞতা তুলে ধরেছে টেলিগ্রাফ।

Advertisement

পর্ন অনলাইনে পর্ন দেখা যখন নেশায় ৫২ লাখ টাকারও বেশি ব্যয়মার্টিন ডেবনে নামে যুক্তরাজ্যের বার্মিংহাম শহরের সেই যুবকের প্রথমে অনলাইনে পর্ন দেখেই সময় কাটানোর নেশা পেয়ে বসে। পরবর্তীতে সে নেশাতেই তার জীবন ধ্বংস হওয়ার উপক্রম হয়।

২৩ বছর বয়সী সে যুবক জানান তিনি প্রাথমিকভাবে বিনামূল্যের পর্ন দেখলেও ক্রমে অর্থ খরচ করে পর্ন দেখার নেশায় আক্রান্ত হন। এতে তার অর্থ খরচ হতে থাকে পানির মতো।

পর্ন দেখার জন্য বাড়তি এ অর্থ সংগ্রহ করতে গিয়ে তিনি সম্ভব-অসম্ভব সব উপায়ের আশ্রয় নেন। ফলে সত্যিকার নেশার চেয়েও কোনো অংশে এটি কম নয়।

তার পর্ন দেখার এ নেশা থেকে পরবর্তীতে পর্ন শিল্পীদের সঙ্গে দেখা করার প্রবল ইচ্ছা তৈরি হয়। একটি ওয়েবসাইটও তার এ কামনা বাস্তব হওয়ার সুযোগ দেয়। এতে তার অর্থ খরচ হয় দেদারসে। প্রতি মাসে তাকে হাত পাততে হয় অন্যের কাছে। এছাড়া তার উপার্জিত সমুদয় অর্থও এতে ব্যয় হয় বলে তিনি জানান।

তিনি এক হিসাবে জানান, এ নেশাতে তার মোট ৫২ লাখ টাকারও বেশি ব্যয় হয়, যা ঠিকভাবে ব্যয় করলে তিনি বহু ভালো কাজই করতে পারতেন।
এ নেশা চরম পরিস্থিতিতে যাওয়ার ফলে তাকে চিকিৎসকের দ্বারস্থ হতে হয়। তিনি থেরাপি নিয়ে পরবর্তীতে সুস্থ হয়েছেন। পর্নগ্রাফির নেশায় মানুষের কতোখানি ক্ষতি হতে পারে, সম্প্রতি তাকে সেক্ষেত্রে উদাহরণ হিসেবে দেখানো হচ্ছে।

1 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ