কি ওয়ার্ড সম্পের্কে বিস্তারিত তথ্য……….

0
430

প্রথমে আপনাকে জানতে হবে কি -ওয়ার্ড(Keyword) কি?

কি -ওয়ার্ড হলো আমরা যখন Google বা Yahoo বা অন্য সার্চ ইঞ্জিন এ বিভিন্ন ওয়ার্ড বা লাইন লিখে সার্চ দেই  যেমন-Free Movies,Hollywood Movies ইত্যাদি। এই প্রতিটি লাইন বা শব্দ হলো এক একটি কি-ওয়ার্ড।

এখন জানতে হবে কি-ওয়ার্ড কিভাবে কাজ করে ?

ধরেন আপনার একটি ওয়েব সাইট বা ব্লগ সাইট আছে Softwareএর উপর তাহলে এথন ভিজিটর এই সাইট এ যেতে অবশ্যই লখবে না free Movies তারা লখবে Software  ,free software ইত্যাদি।এই রকম হাজারো ওয়েব সাইট আছে Softwareএরউপর।তাইএই কি-ওয়ার্ড এর উপর এস.ই.ও করা খুবই কষ্টের কাজ । এখন আপনাকে Software এর উপর এমন একটি কি-ওয়ার্ড (Keyword) নির্বাচন করতে হবে যার প্রতিযোগী কম এবং ভিজিটর বেশি।এই পদ্ধতি কে কি-ওয়ার্ড (Keyword) রিসার্স বলে।এখন যদি আপনি কোন ব্লগ তৈরি করেন তবে প্রথমে একটি ভালো কি-ওয়ার্ড (Keyword) বেছে নিলে ভালো হয়।

 

নিচে কিছু সাইট এর লিংক দেওয়া হলো যার মাধ্যমে আপনি সঠিক কি-ওয়ার্ড (Keyword) বেছে নিতে পারবেন।

https://adwords.google.com/o/KeywordTool

http://www.wordtracker.com/

http://www.bing.com/toolbox/keywords
কি-ওয়ার্ড (Keyword) এর ব্যবহার:কি-ওয়ার্ড (Keyword)কি তা আমরা জেনে গেছি এখন এর ব্যবহার সম্পর্ক্যে নিম্নে আলোজনা করা হলো:

(১)ডোমেন নেইম (Domain Name):ডোমেন নেইম (Domain Name) একটি অত্যান্ত গুরুত্বপূর্ন বিষয়। আপনার সাইট এর নাম কি হবে তার উপর অনেক কিছু নির্ভর করছে।সাইট এর নাম যদি কোন ভিজিটর মনে রাখতে না পারে তবে সেই সাইট এর নাম বা সেই সাইট তৈরি করার কোন অর্থ দাড়ায় না।এমন নাম দিতে হবে যাতে নামের সাথে সাইট এর বিষয় বস্তুর মিল থাকে। সার্চ ইঞ্জিন প্রথমে সার্চ করার সময় DomainURL সার্চ করে।এই জন্য ডোমেন নেইম এর প্রতি গুরুত্ব দিতে হবে।

(২)ওয়েব সাইট এর টাইটেল:– সাইটের টাইটেল সাইট এর সকল বিষয় বস্তু তুলে ধরে তাই সাইটের টাইটেল অনেক গুরুত্বপূর্ন একটি বিষয় সুতরাং এটি সঠিক ভাবে ব্যবহার করতে না পারলে তবে সাইট এর কোন মূল্য থাকবে না।টাইটেল দ্বারা ২টি বিষয়ে সুবিধা পাবেন একটি সার্চ ইঞ্জিন এ আপনার সাইট খুজে বের করা এবং ভিজিটর আসে যাতে আপনার সাইট এর ভালো ফিটব্যক পাওয়া যায়। সুতরাং কি-ওয়ার্ড (Keyword)এর জন্য সাইট টাইটেলঅনেক গুরুত্বপূর্ন।

(৩)আর্টিকেল লেখা:আর্টিকেল লেখার জন্য কি-ওয়ার্ড অনেক বড় ভুমিকা পালন করে থাকে।আর্টিকেল লেখার সময় খেয়াল রাখতে হবে যে প্রতি ১০০ ওয়ার্ড এর জন্য মিনিমাম ৩টা অথবা মাক্সিমাম ৩টা কি-ওয়ার্ড  ব্যবহার করা হয়।এতে করে আপনার আর্টিকেল টি অনেক আপকারে আসবে।যেমন আমি এই পোষ্ট এ অনেক বার “কি-ওয়ার্ডব্যবহার করেছি।এখন এই পোষ্টটি যদি কোন ফোরাম এ প্রকাশ করা হয় বা আমার এই সাইট থেকে  ৫-৬ পর Googleএ বাংলায়কি-ওয়ার্ডলিখে সার্চ দিলে হয়তো প্রথম পাতাই পেয়ে যেতে পারেন। সুতরাং বুঝতে পাছেন এটির গুরুত্ব কত।

 

 

উপরের আলোচনা থেকে বুঝতে পারছেন যে কি-ওয়ার্ড কতটা উপকারে আসে। একটি সুন্দর কি-ওয়ার্ড দিতে পারে একটি সুন্দর সাইট ।তাই এখনি ঝটপট আপনার সাইট এর জন্য সুন্দর অধিক ভিজিটর সমৃদ্ধ কি-ওয়ার্ড নির্বাচন করুন।

 

আর আমার Blog এ post করার দাওয়াত থাকলো ।

 


একই সাথে Techgolpo.com এ প্রকাশীত ।

একটি উত্তর ত্যাগ