২১ জানুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে হোয়াটস অ্যাপ, লাইন, মাই পিপল

0
284

জনপ্রিয় ইনস্ট্যান্ট ম্যাসেজিং অ্যাপ্লিকেশন ভাইবার ও ট্যাঙ্গোর সাথে আজ সোমবার থেকে হোয়াটস অ্যাপ, লাইন ও মাই পিপলও বন্ধ করে দিয়েছে বাংলাদেশ টেলিকম রেগুলেটরি কমিশন। আগামী ২১ জানুয়ারি রাত ১১ টা ৫৯ মিনিট পর্যন্ত সংশ্লিষ্ট অপারেটরদের এসব অ্যাপস বন্ধ রাখতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। 

২১ জানুয়ারি পর্যন্ত বন্ধ থাকবে হোয়াটস অ্যাপ, লাইন, মাই পিপল

এর আগে গতকাল রোববার ‘নিরাপত্তাজনিত কারণে’ ভাইবার ও ট্যাঙ্গো বন্ধ করতে বিটিআরসির সিস্টেম অ্যান্ড সার্ভিস বিভাগের সহকারি পরিচালক তৌসেফ শাহরিয়ার “Stop Viber and Tango Services” শিরোনামের একটি নোটিশ পাঠায় সকল ইন্টারনেট গেটওয়ে প্রতিষ্ঠানের কাছে। সেই নোটিশে বলা হয়েছিল রোববার রাত ১টা থেকে সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত ভাইবার ও ট্যাঙ্গ বন্ধ রাখতে হবে। দ্বিতীয় দফায় তা আজ সোমবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত বন্ধ রাখতে বলা হয়। সর্বশেষ আজ তৃতীয় দফায় আবারও সার্ভিস দুটি ২১ জানুয়ারি রাত ১১ টা ৫৯ মিনিট পর্যন্ত বন্ধ রাখার জন্য সংশ্লিষ্ট অপারেটরদের কাছে নোটিশ পাঠানো হয়।

উল্লেখ্য, ভাইবার এবং ট্যাংগো অ্যাপস ব্যবহার করে মোবাইল ফোন থেকে বিনামূল্যে দেশে-বিদেশ কল করা যায়। সন্ত্রাসী ও জঙ্গিরা ভাইবার ও ট্যাঙ্গোর মতো অ্যাপ ব্যবহার করে নিজেদের মধ্যে যোগাযোগ রাখছে বলে এর আগেও পুলিশের পক্ষ থেকে বলা হয়েছিল। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কর্মকর্তারা বলছেন, তারা ফোন কল পর্যবেক্ষণের মাধ্যমে অপরাধীদের ওপর নজর রাখতে পারলেও সন্ত্রাসীরা ইন্টারনেটভিত্তিক বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশন ব্যবহার করায় তাদের সনাক্ত করা কঠিন হয়ে যাচ্ছে। বিএনপি জোটের অবরোধের মধ্যেও এসব অ্যাপ ব্যবহার করে নাশকতাকারীরা যোগাযোগ রাখছে বলে গোয়েন্দাদের তথ্য। এসব বিষয় বিবেচনা করেই ভাইবার ও ট্যাঙ্গো বন্ধ রাখার অনুরোধ করা হয়েছে বলে র‌্যাবের অতিরিক্ত মহাপরিচালক জিয়াউল আহসান গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে বাংলাদেশ টেলিকম রেগুলেটরি কমিশনের একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানিয়েছেন, গোয়েন্দা সংস্থার অনুরোধের ভিত্তিতে এ দুটি সেবা বন্ধ করা হয়েছে। তিনি জানান, বর্তমান সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ২১ জানুয়ারি মধ্যরাত পর্যন্ত এ দুটি অ্যাপের সেবা বাংলাদেশে বন্ধ থাকবে। তবে প্রয়োজনে এই সময় আরও বাড়তে পারে।

একটি উত্তর ত্যাগ