ক্লাসরুমে মনযোগী হবার কিছু উপায়

0
371

স্কুল কলেজ বা বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়ুয়া অনেক ছাত্রছাত্রী এই সমস্যার সম্মুখীন হয়ে থাকে, ক্লাসে মনোযোগ ধরে রাখতে না পারার ফলে পরীক্ষার ফলাফলেও এর বিরূপ প্রভাব দেখতে পাওয়া যায়। তাই ক্লাসে মনযোগী হওয়াটা প্রতিটা শিক্ষার্থীর জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। এতে করে ক্লাসে শিক্ষকের সুনজর পাওয়া যায়। এছাড়া পরীক্ষায় ফলাফল ভাল করা যায়। মুরুব্বি এবং শিক্ষকেরা বলে থাকেন, ক্লাসে মনযোগী হলে পরীক্ষার পড়া অর্ধেকই হয়ে যায়। তবে আসুন দেখেনেই ক্লাসরুমে মনযোগী হবার কিছু উপায়ঃ

মনযোগী হবার কিছু উপায়ঃ ক্লাসরুমে মনযোগী হবার কিছু উপায়

১. প্রথম দিকের সারিতে বসতে চেষ্টা করুনঃ
প্রথম দিকের সারির বেঞ্চে বসলে বোর্ডের লেখা ভালভাবে দেখা যায় ও ক্লাসটিচারের লেকচার ভালভাবে শুনতে পারা যায়। যা ক্লাসে মনোযোগ ধরে রাখতে উপকারী।

২. সব সময় লেকচার তুলতে কালার পেন ব্যাবহার করুনঃ
ক্লাস লেকচার তোলার জন্য কালার পেন ব্যাবহার করতে পারেন। লেকচারের ইম্পর্ট্যান্ট পয়েন্টগুলো কালার পেন দিয়ে মার্ক করে রাখবেন

৩. ক্লাসে নিজের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করুনঃ
লেকচার শুনতে শুনতে যেসব বিসয় মনে প্রশ্ন আসবে সেগুলো টুকে রাখতে পারেন বা যেসব বিসয়ে সন্দেহ থাকবে সেগুলো টুকে রাখবেন। ক্লাসে যখন বোরিং লাগবে তখন দাঁড়িয়ে প্রশ্ন করে ক্লাসটিচারের সাথে কমিউনিকেশন বজায় রাখুন।

৪. ক্লাসটিচারের সাথে আই কন্ট্যাক্ট রাখুনঃ
ক্লাসে লেকচার শোনার সময় ও লেকচার তোলার মাঝে মাঝে ক্লাসটিচারের সাথে আই কন্ট্যাক্ট রাখার চেষ্টা করবেন। টিচারের সাথে কথা বলার সময় তার চোখের দিকে তাকিয়ে কথা বলার চেষ্টা করলে মনোযোগ পাওয়া যায়।

৫. ক্লাসের কোন জিনিসটা আপনার মনোযোগ ব্যহত করছে খুঁজে বের করুনঃ
ক্লাসের অভ্যন্তরীণ কোনও কারনে যেমন- পাশের শিক্ষার্থীর গালগপ্প, কোনও আওয়াজ ইত্যাদি কারনে যদি আপনার মনোযোগ ব্যহত হয় তাহলে সেটি যত তাড়াতাড়ি সম্ভব বের করে সমাধান করে নিন।

৬. ক্লাসে দিবাস্বপ্ন দেখা পরিহার করুনঃ
অনেকেই ক্লাসে লেকচার শুনতে শুনতে মনকে অন্য কোথাও হারিয়ে ফেলে। মনের ভেতর কোনও চিন্তা ভাবনাকে দূরে রাখতে হবে। তাহলে দিবাস্বপ্ন দূরে থাকবে।

৭. পেছনে হেলান দিয়ে না বসে সোজা হয়ে বসবেনঃ
ক্লাসরুমে নিজের সিটে বসার সময় পেছনে হেলান দিয়ে বসবেন না। হেলান দিয়ে বসলে অনেক সময় ঘুমঘুম ভাব আসতে পারে যা ক্লাসে মনোযোগ রাখতে সমস্যা করতে পারে।

৮. রাতে পরিমিত ঘুমাবেনঃ
রাতের ঘুম খুবই গুরুত্বপূর্ণ একটা বিষয়। রাতের ঘুম ঠিকঠাক না হলে পরের সারাদিন চোখে ঘুম থাকে। আর ঘুম চোখে ক্লাসে মনোযোগ রাখা কষ্টকর। তাই রাতে পরিমিত ঘুম খুব গুরুত্বপূর্ণ।

৯. সকালের নাস্তাঃ
সারাদিনের খাবারের মাঝে সকালের নাস্তা একটি গুরুত্বপূর্ণ বিসয়। সকালে ঘুম থেকে উঠে ভালভাবে নাস্তা করে ক্লাসে গেলে ক্লাসে নিজেকে সতেজ রাখা যায়।

১০. ক্লাস লেকচারের বিষয় আপনার জীবনে কীভাবে প্রতিফলিত হতে পারে সেটা ভাবুনঃ
ক্লাস লেকচারের বিষয়টি দৈনন্দিন জীবন বা বাস্তবতার সাথে মিলিয়ে কোনও উদাহরণ পাওয়া যায় কিনা সেটা ভেবে দেখতে পারেন। এতে করে ক্লাস লেকচার ও মনে থাকে বেশী ও মনোযোগ ও আসে। তবে খেয়াল রাখবেন ভাবতে ভাবতে যেন লেকচারের কোনও পয়েন্ট মিস না যায়।

১১. একটা পয়েন্টের পর পরের পয়েন্ট বা টপিকস নিয়ে আগ্রহী থাকুনঃ
ক্লাসে আলোচিত বিষয়ের একটা টপিকস এর পরে আরেকটা টপিকস কী আসতে পারে বা আরেকটা পয়েন্ট কী আসতে পারে সে ব্যপারে আগ্রহ রাখুন।

১২. ক্লাসের প্রয়োজনীয়তা অনুধাবন করুনঃ
আপনি যেই ক্লাসটায় অংশগ্রহণ করেছেন সেটি আপনার পড়াশোনা, রেজাল্ট ও পরিক্ষার জন্য কতটা গুরুত্বপূর্ণ সেটা অনুধাবন করার চেষ্টা করুন। তাহলে ক্লাসে মনোযোগ আসেব।

এবং সর্বোপরি নিজের জীবনের লক্ষ্য সম্পর্কে সব সময় সচেষ্ট ও সচেতন থাকু। প্রতিটা ক্লাসকে জীবনের লক্ষ্য পূরণে এক একটা ধাপ হিসেবে বিবেচনা করে দেখলে ক্লাসে মনযোগী হওয়া যাবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

one × one =