Windows ব্যবহারকারীদের জন্য প্রয়োজনীয় কিছু টিপস

0
396

আপনার পাওয়ার বাটন কি নষ্ট হয়ে গিয়েছে অথবা আপনি কি অধৈর্য্য হয়ে পড়েছে রিসাইকেল বিনের নাম পরিবর্তন করতে না পেরে। অথবা এও হতে পারে পিসিতে কাজের চাপে এক গাদা উইন্ডো আপনাকে জালিয়ে যাচ্ছে। আপনি যদি এমন অসুবিধার সম্মুখীন হোন তাহলে আপনি সঠিক জায়গাতেই আছেন। উইন্ডোজ ব্যবহারকারীদের জন্য কয়েকটি পুরাতন ও কার্যকরী টিপস এই লেখায় সকলের সামনে উপস্থাপন করব।

পরিবর্তন করুন রিসাইকেল বিনের নাম

ডেস্কটপের যে কোন শর্টকাট কি, আইকন থেকে শুরু করে যে কোন ফোল্ডার বা ফাইলের নামকে আপনি রিনেম করতে পারেন খুব সহজেই কিন্তু আপনি রিসাইকেল বিনকে রিনেম করতে গিয়েই পারেননি। কারণ রিসাইকেল বিন-এর ওপর মাউসের রাইট বাটন ক্লিক করলে সেখানে কোন রিনেম অপশনই থাকে না। কিন্তু আপনি চাইলেই ভিন্ন উপায়ে আপনার পছন্দ মত নাম দিয়ে রিনেম করতে পারেন। এর জন্য প্রথমেই আপনাকে স্টার্ট মেন্যু থেকে গিয়ে রান অপশনে গিয়ে লিখতে হবে regedit.exe, তারপর এন্টার চাপুন। সেখানে আপনি বামের দিকে থাকা HKEY_CLASSES_ROOT রুট ফোল্ডারটি ওপেন করে CLSID খুঁজে বের করুন। তারপর সেখানে {645FF040-5081-101B-9F08-00AA002F954E} ফোল্ডারটি ওপেন করে যে মান “40 01 00 20” দেওয়া আছে সেটা পরিবর্তন করে “70 01 00 20” এই মানে পরিবর্তন করুন। এবার দেখুন আপনি সহজেই রিসাইকেল বিনকে রিনেম করতে পারছেন।

কম্পিউটার চালু করুন কি-বোর্ডের মাধ্যমে

কম্পিউটার চালু করার ট্রাডিশেনাল পদ্ধতি হচ্ছে পাওয়ার বাটন চেপে পিসি অন করা। কিন্তু ধরুণ হঠাৎ করে আপনার এই ট্রাডিশেন হারিয়ে গেল অর্থ্যাৎ পাওয়ার যদি নষ্ট হয়ে যায় তাহলে আপনি কি করবেন। এর একটি উপায় হচ্ছে প্রথমে কম্পিউটার চালু হওয়ার সময় কিবোর্ড থেকে Del বাটনটি চেপে ধরে Bios এ প্রবেশ করতে হবে। এরপরে Power Management Setup নির্বাচন করে এন্টার চাপুন। এখন Power on my keyboard নির্বাচন করে এন্টার দিন। তারপর আবার Password নির্বাচন করে এন্টার দিন। Enter Password এ কোন একটি কি পাসওয়ার্ড হিসেবে দিয়ে সেভ (F10) করে বেরিয়ে আসুন। হয়ে গেল কাজ। এরপর কিবোর্ড থেকে উক্ত কি অর্থ্যাৎ পাসওয়ার্ড কি চেপে পিসিটি চালু করতে পারবেন। গিগাবাইট এবং অন্যান্য মাদারবোর্ডের ক্ষেত্রে একই শর্ত প্রযোজ্য।

নিজেই তৈরী করুন Hot Keys

দ্রুত কাজের সুবিধার্থে হটকিস একটি কার্যকর ফিচার। হটকিস দিয়ে মূলত যেকোন কাজ কিবোর্ডের কি চেপে দ্রুত সময়ে করা যায়। উইন্ডোজে কাজে সুবিধার জন্য অনেক হটকিস তৈরী করে রাখা আছে। আপনি নিজের কাজের সুবিধার জন্য প্রয়োজনে নিজের হটকিস তৈরী করে নিতে পারবেন। এই ঠিকানা থেকে খুব ছোট সাইজের টুলটি নামিয়ে নিন। হটকি তৈরী করতে টুলটি চালু করুন। একটি ফোল্ডার ওপেন করুন এবং সুবিধা মত কি প্রদান করুন। পরবর্তীতে সেই কি চেপে আপনি আপনার প্রয়োজনীয় প্রোগ্রামটি ওপেন করতে পারবেন।

সয়ংক্রিয়ভাবে অচল উইন্ডোগুলোকে মিনিমাইজ করুন

একসাথে অনেক কাজ করলে মাঝেমধ্যে ডেস্কটপে বিভিন্ন উইন্ডোর ঝঞ্জাল সৃষ্টি হয়। কাজে বেশি ব্যস্ত থাকলে সেইসব উইন্ডোগুলোকে আর বন্ধ করা বা মিনিমাইজ করা হয় না। আপনি চাইলে ৪৩৮ কেবির একটি সফটওয়্যার ইন্সটলের মাধ্যমে ইনএকটিভ উইন্ডোগুলোকে স্বয়ংক্রিয়ভাবে মিনিমাইজ করাতে পারেন। নির্দিষ্ট সময় পরপর সফটওয়্যারটি অচল উইন্ডো গুলোকে মিনিমাইজ করে দেয়। চাইলে নির্দিষ্ট সময়কে ইচ্ছামত পরিবর্তন করতে পারবেন।
সফটওয়্যারটি ডাউনলোড করুন এখান থেকে

ভুলবশত বন্ধ করে ফেলা উইন্ডো ফিরিয়ে আনুন

ডেস্কটপে কাজ করতে করতে অনেক সময় ভুলবশত কোন দরকারী উইন্ডো বন্ধ হয়ে যেতে পারে। এবং এতে আপনার আফসোসের শেষ থাকবে না। হায় রে! এ কি করলাম। কিন্তু হারানো উইন্ডো আপনি চাইলে সহজে ফিরিয়ে আনতে পারেন ছোট একটি ফ্রীওয়্যার দিয়ে। এই লিঙ্ক থেকে ফ্রীওয়্যারটি ডাউনলোড করে নিন। আপনি যখনই একটি উইন্ডো ক্লোজ করবেন সফটওয়্যারটি ৬০ সেকেন্ডের জন্য সেটি সেভ করে রাখবে। আপনি সিস্টেম ট্রে থেকে সফটওয়্যারের আইকনে ক্লিক করে উইন্ডো ফিরিয়ে আনতে পারবেন। ৬০ সেকেন্ডের সময়কে আপনি চাইলে বারিয়ে নিতে পারেন।

একটি উত্তর ত্যাগ