ভিডিও চ্যাট এর সেরা ৭টি অ্যাপ নিয়ে নিন এখুনি (অ্যান্ড্রয়েড, আইওএস এবং উইন্ডোজ ফোনের জন্য ফ্রী ডাউনলোড)

1
1801

স্মার্টফোনের কল্যানে বর্তমানে অপর প্রান্তের মানুষটিকে সরাসরি দেখেও কথা বলা যায়। এজন্য সাধারণ ফোন কলের পরিবর্তে এখন ভিডিও চ্যাটেই আগ্রহ অনেকের। ভিডিও চ্যাট করার জন্য রয়েছে অনেক অ্যাপ। ভিডিও চ্যাটের সেরা বিনামূল্যের অ্যাপসগুলো নিয়ে সম্প্রতি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে সার্চ ইঞ্জিন জার্নাল ডটকম।

ভিডিও চ্যাট ভিডিও চ্যাট এর সেরা ৭টি অ্যাপ নিয়ে নিন এখুনি (অ্যান্ড্রয়েড, আইওএস এবং উইন্ডোজ ফোনের জন্য ফ্রী ডাউনলোড)

উভু : ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করেই ভিডিও চ্যাট অ্যাপ উভু-তে লগ-ইন করা সম্ভব। তবে অ্যাপটির সবচেয়ে বড় মজা হচ্ছে, এটি আপনার ফেসবুক বন্ধুদের এবং আপনার স্মার্টফোনে থাকা কন্টাক্ট তালিকার মধ্যে সমন্বয় করে। একসঙ্গে ১২ জনের সঙ্গে ভিডিও চ্যাট করা যায় উভু ব্যবহার করে। এছাড়া উভু ব্যবহারকারীরা একে অন্যের সঙ্গে ফ্রি টেক্সট মেসেজ আদান-প্রদানের সুবিধাও রয়েছে। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে উভু ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/8JRAd7 ঠিকানা থেকে, আইওএস ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/HmORH7 ঠিকানা থেকে এবং উইন্ডোজ ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/q8egUE ঠিকানা থেকে।

স্কাইপে : ভিডিও চ্যাটের অ্যাপের বাজারে স্কাইপে সবচেয়ে পরিচিত অ্যাপ। এর ব্যবহারকারীর সংখ্যা ২৯৯ মিলিয়ন। শুধু ভিডিও চ্যাট নয়, স্কাইপ ব্যবহার করে ভিডিও চ্যাট, ভিডিও মেসেজিং, টেক্সট মেসেজিংও পাঠানো সম্ভব। স্কাইপের মাধ্যমে স্মার্টফোন থেকেই ডেস্কটপ, ট্যাবলেটসহ অন্যান্য ডিভাইস ব্যবহারকারীর সঙ্গেও চ্যাটিং করা যায়। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/2ozUFR ঠিকানা থেকে, আইওএস ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/7fgtnl ঠিকানা থেকে এবং উইন্ডোজ ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/N51UaZ ঠিকানা থেকে।

ট্যাঙ্গো : মূলত দু’টি কারণে ট্যাঙ্গো জনপ্রিয়। এটা ব্যবহার করা খুব সহজ এবং এটার জন্য কোনো আলাদা পাসওয়ার্ড দরকার হয় না। অর্থাৎ এটা ব্যবহারের জন্য শুধুমাত্র আপনার নাম, মোবাইল নম্বর এবং ই-মেল ঠিকানার প্রয়োজন হয়। ট্যাঙ্গো অ্যাপটির মাধ্যমে গ্র“প ভিডিও চ্যাট, টেক্সট মেসেজ ও ফটো শেয়ার করা যায়। তবে ‘বিজনেস কলে’-র জন্য অ্যাপটি ব্যবহার ঠিক নয়। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/Pon9r0 ঠিকানা থেকে, আইওএস ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/dFqn2j ঠিকানা থেকে এবং উইন্ডোজ ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/R0j72Z ঠিকানা থেকে।

হ্যাংআউটস : যেহেতু সবাই আজকাল গুগল ব্যবহার করেন, তাই হ্যাংআউটস ব্যবহারকারী খুঁজে পাওয়া আজ আর তেমন কোনো কষ্টের ব্যাপার নয়। গুগল-এর এই সেবা ব্যবহার করে একত্রে দশজন পর্যন্ত ভিডিও চ্যাট করা যাবে। এটিতে ছবি এবং ‘ইমোজিস’ শেয়ার করারও অপশন রয়েছে। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/QHIiuJ ঠিকানা থেকে, আইওএস ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/Nqp9im ঠিকানা থেকে এবং উইন্ডোজ ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/01zsjP ঠিকানা থেকে।

পিয়ার : ব্যবসায়িক চ্যাটের জন্য ভিডিও অ্যাপ খুঁজে থাকলে, নিশ্চিন্তে বেছে নিতে পারেন পিয়ার। প্রফেশনালদের নেটওয়ার্ক লিঙ্কডইনের সঙ্গে সহজেই যুক্ত করা যায় অ্যাপটি। বর্তমানে কেবলমাত্র আইওএস ফোনের জন্য পাওয়া যাবে এই অ্যাপটি। ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/0XPNgP ঠিকানা থেকে।

ভাইবার : একসঙ্গে চল্লিশজনের সঙ্গে ভিডিও চ্যাট করার সুযোগ দেয় ভাইবার। এছাড়া ফ্রি টেক্সট মেসেজ, ফটো মেসেজসহ চ্যাট সম্পর্কিত সব কিছুই করা যায় এটা ব্যবহার করে। মেসেজিংয়ের ক্ষেত্রে ইমোটিকনস এবং ইমোজিস যুক্ত করার সুবিধাও রয়েছে এতে। চাইলে ফাইল শেয়ারও করতে পারেন ভাইবার-এর মাধ্যমে। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/kO7RLV ঠিকানা থেকে, আইওএস ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/OfpClf ঠিকানা থেকে এবং উইন্ডোজ ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/Kyzf6I ঠিকানা থেকে।

ক্যামফ্রগ : অপরিচিত, নতুন কারো সঙ্গে চ্যাট করতে চাইলে ক্যামফ্রগ আদর্শ। বন্ধু-বান্ধব, পরিবারের সদস্য কিংবা পরিচিতজন ছাড়াও চ্যাট রুমে নতুনদের সঙ্গে গল্পগুজবের সুযোগ দেয় ক্যামফ্রগ। অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/jAQeEM ঠিকানা থেকে এবং আইওএস ফোনে ডাউনলোড করা যাবে http://goo.gl/z2wNVm ঠিকানা থেকে।

1 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ