নতুন আইফোনে বেশ কিছু আকর্ষণীয় ফিচার যুক্ত (আইফোন ৬ ও ৬ প্লাস)

0
580
নতুন আইফোনে বেশ কিছু আকর্ষণীয় ফিচার যুক্ত হয়েছে। নতুন অ্যাপ্লিকেশন ও নানা সুযোগ-সুবিধাসহ আইফোনের এই দুটো নতুন মডেল দিয়ে হয়তো অ্যাপল ক্রেতাদের অ্যান্ড্রয়েডের দিকে ঝুঁকে পড়ার প্রবণতা ঠেকাতে পারবে। নতুন আইফোনের আকর্ষণীয় ১০ টি ফিচারের মধ্যে রয়েছে রেটিনা এইচডি ডিসপ্লে, আইওন শক্তির স্ক্রিন, দ্বিতীয় প্রজন্মের ৬৪ বিট প্রসেসর, মেটাল এপিআই, এম৮ হেলথ চিপ, উন্নত ব্যাটারি, দ্রুতগতির ওয়াই, উন্নত ক্যামেরা, সেলফি ক্যামেরা ও আইওএস৮।
আইফোন নতুন আইফোনে বেশ কিছু আকর্ষণীয় ফিচার যুক্ত (আইফোন ৬ ও ৬ প্লাস)
আইফোন ৬ ও ৬ প্লাসের আকর্ষণীয় ফিচার
রেটিনা এইচডি
নতুন দুইটি মডেলের আইফোনের ক্ষেত্রে উন্নত রেটিনা এইচডি ডিসপ্লে ব্যবহার করেছে অ্যাপল। আইফোন ৬ এ ব্যবহূত রেটিনা এইচডি ডিসপ্লে হচ্ছে অত্যন্ত পাতলা আইপিএস ডিসপ্লে যাতে ৩২৬ পিপিআই পিক্সেল ঘনত্ব রয়েছে যাতে প্রসস্ত ভিউয়িং অ্যাঙ্গেল পাওয়া যায়। আইফোন ৬ প্লাসে রয়েছে ১৩৩৪ বাই ৭৫ পিক্সেলের ডিসপ্লে যাতে ফুল এইচডি মানের ভিডিও দেখা যায়।
আইওন সুরক্ষিত ডিসপ্লে
নতুন আইফোনের সুরক্ষা হিসেবে গোরিলা গ্লাস, স্যাফায়ার স্ক্রিন থাকবে দীর্ঘদিন ধরে এমন গুজব থাকলেও অ্যাপল তাদের নতুন আইফোন আইওন দিয়ে সুরক্ষিত করেছে। নতুন এই স্ক্রিন প্রযুক্তি সম্পর্কে অবশ্য বিস্তারিত ধারণা নেই প্রযুক্তি বিশ্লেষকেদের।
দ্বিতীয় প্রজন্মের ৬৪ বিট প্রসেসর
মোবাইল প্রযুক্তির যুগে আরও একধাপ এগিয়ে গেল অ্যাপল। নতুন আইফোনে ৬৪ বিটের প্রসেসরের দ্বিতীয় প্রজন্মের সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দিল প্রতিষ্ঠানটি।এই প্রসেসর দীর্ঘ সময় ধরে উন্নত পারফর্মমেন্স দেখাতে পারবে বলেই অ্যাপলের দাবি।
মেটাল এপিআই
গেম নির্মাতাদের জন্য মেটাল এপিআই উন্মুক্ত হয়েছে। মোবাইলে গেমিং অভিজ্ঞতা আরও উন্নত করতে নতুন গেম ইঞ্জিন কাজে লাগবে।
উন্নত হেলথ চিপ
নতুন আইফোনে অ্যাপলের এম৮ হেলথ চিপ আরও উন্নত হয়েছে। এতে বুদ্ধিমত্তার সঙ্গে স্বাস্থ্যসংক্রান্ত বিভিন্ন তথ্য উপস্থাপন করতে পারে আপনার আইফোন।
উন্নত ব্যাটারি
স্মার্টফোন ব্যবহারকারীদের সবচেয়ে বড় দুশ্চিন্তার নাম ব্যাটারি। দীর্ঘক্ষণ চার্জ ধরে রাখার জন্য নতুন আইফোনে আরও উন্নত ব্যাটারি যুক্ত করেছে অ্যাপল। অ্যাপল জানিয়েছে, আইফোন ৬ এ ১৪ ঘণ্টা এবয় আইফোন ৬ প্লাসে থ্রিজি টকটাইম হবে ২৪ ঘণ্টা।
দ্রুতগতির ওয়াই-ফাই
নতুন দুটি মডেলের আইফোন দ্রুতগতির নতুন ওয়াই-ফাই ব্যান্ড সমর্থন করে। অ্যাপল দাবি করেছে, ওয়াই-ফাই ব্যবহার করে নতুন আইফোনে এখনকার চেয়েও তিনগুণ দ্রুত ব্রাউজ করা যাবে।
উন্নত ক্যামেরা
অ্যাপল নতুন আইফোনে বেশি মেগাপিক্সেল যোগ করেনি তবে ৮ মেগাপিক্সেলের ক্যামেরাকে আরও উন্নত করেছে। এতে যুক্ত হয়েছে ট্রু টোন ফ্ল্যাশ ও ১.৫ মাইক্রন পিক্সেল সেন্সর। এ ছাড়াও দ্রুতগতির অটোফোকাস ক্যামেরার জন্য ফোকাস পিক্সেল যুক্ত করেছে অ্যাপল।
সেলফি ক্যাম
বর্তমানে সেলফি এখন তুমুল জনপ্রিয়। অ্যাপলও এ জোয়ারে গা ভাসিয়েছে। নতুন আইফোনের সামনের ক্যামেরাও সেলফি তোলার জন্য উন্নত হয়েছে। উন্নত ফেস ডিটেকশন প্রযুক্তি সুবিধায় ফেসটাইম এইচডি ক্যামেরা যুক্ত হয়েছে নতুন আইফোনে।
আইওএস৮
নতুন আইফোন কেকের ওপর চেরি ফল হচ্ছে আইওএস৮। ইতিমধ্যেই আইওএস৮ এর বিভিন্ন ফিচার সম্পর্কে জানিয়েছে অ্যাপল। অ্যাপলের প্রধান নির্বাহি টিম কুকের তথ্য অনুযায়ী, আইফোনের নতুন অপারেটিং সিস্টেমে আরও বেশি ইন্টিগ্রেশন সুবিধা যুক্ত হচ্ছে। আইওএস প্ল্যাটফর্মে হেলথকিট ও হোমকিট যুক্ত হয়েছে যাতে বিভিন্ন অ্যাপ্লিকেশনের মাধ্যমে স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও স্মার্টহোম ব্যবহারের সুবিধা নেওয়া যাবে। আইওএস ৮ এর সঙ্গে সোয়াইপ কিবোর্ড ও মার্কআপ নামের বিশেষ ফিচারও থাকবে। ১৭ সেপ্টেম্বর নতুন আইওএস আপডেট পাওয়া যাবে।

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here

seven + 4 =