পত্রিকা হউক সংবাদ প্রচারের মাধ্যম, পর্ণোগ্রাফী কেন?

0
454

আসসালামুয়ালাইকুম, সবাই কেমন আছেন? আশা করি মহান আল্লাহ্‌র অশেষ রহমতে ভাল আছেন, আমিও আল্লাহ্‌র অশেষ রহমতে মোটামোটি ভাল আছি ।

আমি আজ কি নিয়ে আলোচনা করব তার কিছুটা হয়তোবা শিরোনাম দেখে বুঝেগিয়েছেন, এরকম একটি আলোচনা পূর্বে “পত্রিকা তৈরি করুন সংবাদ প্রচার করার জন্য (পর্ণো সাইটের জন্য নয়)” শিরোনামে সবার আগে বাংলাদেশে আমিই দিয়েছিলাম তার পর অনেকেই দেখেছি একই রকম আরও পোস্টের মাধ্যমে পর্ণো সংবাদ মাধ্যমের বিরুদ্ধে লিখেছেন, তবে এতেও দেখছি সরকারের উচ্চ মহলে তেমন কোন প্রতিক্রিয়া দেখা জাচ্ছে না ।

হয়তোবা সময় পেলে কয়েক জন দর্শক আমাদের লিখা গুলো দেখে দু’বা একটা মন্তব্য করে যাচ্ছেন যে, লিখা ভাল হয়ছে বা একমত, তার বেশী কিছু নয়, কেন? আমাদের কথা গুলোকি কাজের কথা নয়? আপনারা বা আপনাদের নিজেদের স্বার্থে পত্রিকার কলামে যাই লিখা হয় তা তো বেশ গুরুত্তদেন ।

আর ডিজিটাল বাংলাদেশের উন্নয়নে বেশ কথা বলেন কিন্তু এই ডিজিটাল কেন দিন দিন ধ্বংসের পথে যাচ্ছে তার গুরুত্ব কেও দেন না। আপনারা যাই করুন না আমরা আমাদের দেশকে ভালবাসি আমরা লিখে যাব প্রতিনিয়ত যদি আতে দু একজন উপকৃত হয় তাহলেই আমার স্বার্থ পূরণ হবে, আগের পোস্টটির অনুরূপ আবার লিখতেছি, আশা করি একটু মনযোগ দিয়ে পড়বেন ।

ইন্টারনেটের ছুঁয়াতে বিশ্বের সবই যখন গতিশীল তখন অনলাইন পত্রিকা গুলো দ্রুত ও সত্য সংবাদ প্রচারে ব্যপক ভূমিকা পালন করছে । এখন আমরা ঘরে বসে বিশ্বের যেকোন জায়গার ঘটে যাওয়া সংবাদটি পাচ্ছি মুহূর্তের মধ্যে, জানতে পারতেছি বিশ্ব সভ্যতা সমাজ ও সংস্কৃতি, এবং সকল খবরাখবর, সবাই যেন আমরা এক বিশ্ব গ্রামে বসবাস করছি । সবই কিন্তু প্রযুক্তির ফলে তবে অনেকে ভাবছে প্রযুক্তি মানে বিপজ্জনক কিছু, যা ব্যবহারে মানুষ পথ ভ্রষ্ট হয়ে যায় প্রযুক্তি মানুষের জীবনকে ধ্বংস করে দেয় । ঠিক তাই ! তবে কিছু ওয়েব সাইটের জন্য ।   আমরা ঘরে বসে বসে বিশ্ব সংবাদ ছাড়াও জানতে পারছি মুহূর্তের মধ্যে আমাদের বাড়ীর পাশে ঘটে যাওয়ার সঠিক সংবাদটিও, ইন্টারনেট সব কিছুকেই সহজ থেকে সহজতর করে দিয়েছে । শুধু সংবাদ নয় জানতে পারছি প্রযুক্তির খবরও, তৈরি হচ্ছে টেকনোলজী ব্লগ যেখানে আইটি ব্লগাররা বিনামূল্যে প্রশিক্ষণ দিয়ে থাকে, সবই যেন কেমন হাতের কাছে ।

যাই হোক,আন্তর্জাতিক অনলাইন সংবাদ পত্রের পাশাপাশি আমাদের দেশের অনলাইন ও জাতিয় দৈনিক অনলাইন এ তাৎক্ষনিক সংবাদ গুলো পাওয়া যাচ্ছে । যেমনঃ বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর ডটকম, বিডিনিউজটোয়েন্টিফোর ডটকম, জাতীয় দৈনিকের প্রথম-আলো ডটকম ছাড়াও রয়েছে বহু সাইট যেখানে মুহূর্তের ঘটে যাওয়া সংবাদ গুলো পাচ্ছি তাৎক্ষনিক ।   কিন্তু প্রযুক্তি মানে বিপজ্জনক তার কারণ হল কিছু ওয়েবসাইট অনলাইন পত্রিকার নাম করে বিনোদনের নামে চালিয়ে যাচ্ছে পর্ণোগ্রাফী, বর্তমানে লক্ষ করা যায় নিচু মানের কিছু অনলাইন পত্রিকা অর্থাৎ যারা ভিজিটরের জন্য অশ্লীশতার পথ বেঁছে নিয়েছে, সে সাইট গুলো পুরো পর্ণো সাইট হয়েগেছে ।

সংবাদের নাম করে নিউজের ভেতর ঢুকিয়ে দিচ্ছে পর্ণো ভিডিও অথবা স্কেন্ডাল ভিডিও, পত্রিকায় দিয়ে যাচ্ছে চটি গল্প যা দিনে দিনে অনলাইন পত্রিকার মান কমিয়ে দিচ্ছে, আমি মনে করি সভ্য সমাজে তা কখনই গ্রহণ যোগ্য নয় ।   দেশের শীর্ষস্থানীয় অনলাইন গুলো যেখানে সামাজিক সংবাদ প্রচার করে মানুষকে প্রযুক্তিতে উপকৃত করাচ্ছে, সেখানে কিছু অনলাইন পত্রিকা বিনোদনের নামে অশ্লীশতা করে আমাদের দেশের ভবিষ্যৎ প্রজন্মকে প্রযুক্তি থেকে দূরে ঠেলে দিচ্ছে । ধ্বংস করছে আমাদের সমাজ, বুঝতে দিচ্ছে না বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পর্কে । এখনও অনেক মানুষ ভাবছে প্রযুক্তি মানে বিপজ্জনক যা ব্যবহারেই মানুষ ধ্বংস হয়ে যায়, এগুলো মনেকরার কারণ হলঃ একটি লোক যখন ইন্টারনেট শেখে তখন প্রথমে কোন কিছু সার্চ দেয়া বা খুজা, তারপর ই-মেইল এবং সংবাদপত্র পড়া ।

যখন লোকটি শীর্ষস্থানীয় পত্রিকা ছাড়া বাংলাদেশের অন্যান্য অনলাইন অর্থাৎ পর্ণো পত্রিকা গুলোতে যাবে এবং সে দেখবে অনলাইন পত্রিকা গুলো তে আসলে কি লিখা হয় । কি ?   কি পাবে সেখানে সে ? আপনি কি পাচ্ছেন সেও তা পাবে ! কি পাবেঃ সেক্স ভিডিও অথবা এসব টিপস অথবা চটি গল্প ।   তিনি ইন্টারনেট কে কীভাবে নিবেন যদি তিনি সচেতন ও ধার্মিক হয়ে থাকেন ? তিনি কি তার ছেলে মেয়ে, আত্মীয়স্বজনকে অথবা পাড়া-পরশি বন্ধু বান্দব কে ইন্টারনেট এ আগ্রহী করাবে ?

এতে আমাদের দেশ ডিজিটাল হওয়ায় কতটা ভূমিকা পালন করবে অথবা আসলে কি প্রযুক্তি তাই? 

 

বাংলায় সহীহ বুখারী শরীফের হাদিস পড়তে এখানে ক্লিক করুন ।

#ফেইসবুকে আমি

একটি উত্তর ত্যাগ