গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

2
434
এটি 283 পর্বের গেমস জোন সিরিজ টিউনের 239 তম পর্ব
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

গেমওয়ালা

হ্যালো! আমি ফাহাদ! গেমওয়ালা হয়ে টিউনারপেজে রয়েছি অনেকদিন ধরেই। আমি একজন পুরোনো টিউনার এই টিউনারপেজের। গেমস নিয়ে রয়েছি আমি তোমাদেরই সাথে। আশা করি আরো বেশ কিছুদিন থাকতে পারবো।
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

মাত্র কিছুদিন আগে এই গেমটির রিভিউ দেয়া হয়েছে গেমস ওর্য়াল্ড থেকে। তবে তোমরা মনে করোনা যে বদলা নেওয়ার জন্য আমি টিউনটি করছি। আসলে গেমস জোনের প্রতিটি পর্বই অনেক আগে থেকে শিডিউল এবং টাইপ করা থাকে। যেমন আগামী ২০টি পর্ব ইতিমধ্যেই আমি টাইপ করে রেখে দিয়েছি। যাই হোক টিউনে আসি।

 

জাস্ট কজ ২ একটি এডভেঞ্চার ধাঁচের ভিডিও নির্মাণ করেছে এভালাঞ্চ স্টুডিও এবং প্রকাশ করেছে ইডিওস ইন্টারএকটিভ আর ডিস্ট্রিবিউট করেছে স্কোয়ার ইনিক্স। গেমটি ২০০৬ সালের জাস্ট কজ গেমটির সিকুয়্যাল।

জাস্ট কজ ২ গেমটিতে ব্যবহার করা হয়েছে এভালাঞ্চ কোম্পানির ইঞ্জিণ ২.০ সংস্করণটি। একই ইঞ্জিণের আগের সংস্করণটি সিরিজের আগের গেমটিতে ইউজ করা হয়েছিল।

গেমটির পটভূমি ফিকশনাল পানাউ আইল্যান্ডে সেট করা হয়েছে। যেটি বাস্তবে দক্ষিণ-পশ্চিম এশিয়াতে অবস্থিত। গেমটিতে প্রায় ৪০০ স্কোয়ার মাইলের ল্যান্ড রয়েছে। রিকো রড্রিগেজ প্লেয়ার চরিত্রে থাকছে।

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

নির্মাতাঃ

এভাল্যান্স স্টুডিও

প্রকাশ করেছেঃ

ইডিওস ইন্টারএকটিভ

ডিস্ট্রিবিউটরঃ

স্কোয়ার ইনিক্স

ইঞ্জিণঃ

এভাল্যান্স ইঞ্জিণ ২

খেলা যাবেঃ

মাইক্রোস উইন্ডোজ,

প্লে-স্টেশন ৩,

এক্সবক্স ৩৬০,

ক্লাউড (অনলাইভ)

মুক্তি পেয়েছেঃ

২০১০ সালের মার্চ – এপ্রিল – জুন জুড়ে

ধরণঃ

একশন – এডভেঞ্চার,

থার্ড পারসন

খেলার ধরণঃ

সিঙ্গেল এবং মাল্টিপ্লেয়ার

সিস্টেম রিকোয়ারমেন্টসঃ

++ উল্লেখ্য যে গেমটি এনভিডিয়া কার্ডের জন্য তৈরি করা হয়েছে, এক্ষেত্রে রাডিয়ন কার্ডের জন্য এক্সট্রা মেমোরির দরকার হবে++

** উইন্ডোজ এক্সপি সার্পোট করবে না**

কমপক্ষেঃ

ডুয়াল কোর প্রসেসর,

৫১২ মেগাবাইটের গ্রাফিক্স কার্ড,

২ গিগাবাইট র‌্যাম,

উইন্ডোজ ভিসতা,

ডাইরেক্ট এক্স ১০

অফিসিয়ালঃ

কোর ২ ডুয়ো প্রসেসর,

১ গিগাবাইট গ্রাফিক্স কার্ড,

৩ গিগাবাইট র‌্যাম,

উইন্ডোজ সেভেন

ডাইরেক্স এক্স ১০

ভালো ভাবে খেলতে হলেঃ

কোর আই৫ প্রসেসর,

৬ গিগাবাইট র‌্যাম,

২ গিগাবাইট গ্রাফিক্স কার্ড

উইন্ডোজ এইট

ডাইরেক্স এক্স ১১

গেমটি ওপেন ওর্য়াল্ড ফিচারের গেম। তাই গেমটিতে তুমি তোমার ইচ্ছে মতো ঘুরে বেড়াতে পারবে। গেমটিতে ধ্বংসযঞ্জ বেশি ব্যবহার করা হয়েছে। খাটি ইংরেজি যাকে Chaos বলা হয়! হাহাহা!

গেমটিতে ১০০% স্কোর বা টোটালি গেমওভার করতে হলে তোমাকে Chaos স্কোর অর্জন করতে হবে। যেটা তুমি অর্জন করতে পারো সরকারী সম্পত্তি ধ্বংস করে, আইটেম সংগ্রহ করে ইত্যাদি। Chaos স্কোর নতুন নতুন এজেন্সি মিশন আনলক করবে।

গেমটিতে শত্রুপক্ষও কিন্তু সহজ নয়। শত্রু পরিবেশ এবং আবহাওয়ার সুবিধা নিয়ে তোমাকে আক্রমণ করতে পারবে। মানে গেমটিতে তুমি যা যা করতে পারো তার অনেকাংশই শত্রুরাও করতে পারবে। তবে মানুষের ব্রেইন তো আর পিসির মতো নয়!!

গেমটিতে তোমাকে অস্ত্র সরবরাহ করবে কালো বাজারের বিভিন্ন সদস্যরা। সেখানে তুমি যানবাহনও কিনতে পারো। যানবাহনগুলো হেলির মাধ্যমে তোমার নিজস্ব জায়গায় ডেলিভারিও দিয়ে দিবে তারা! গেমটিতে তুমি যত Chaos পয়েন্ট সংগ্রহ করতে তত অস্ত্র, যানবাহন এবং এক্সট্রাকশন অপশন আনলক হবে এবং কালো বাজারে পাওয়া যাবে।

গেমটিতে মোট ২ হাজারের বেশি পার্টস রয়েছে যেগুলো দিয়ে তুমি তোমার সকল অস্ত্র এবং যানবাহন আপগ্রেড করতে পারবে।

গেমটির একটি ইউনিক ফিচার হচ্ছে তুমি প্লেয়ার চরিত্রের সম্পূর্ণ কন্ট্রোলে থাকবে। যখন যেখানে যেভাবে খুশি তুমি প্লেয়ারকে ব্যবহার করতে পারবে তোমার ইচ্ছে মতো! গেমটিতে তোমার সাথে সব সময় সদা সর্বদা একটি প্যারাসুট থাকবেই। তবে গেমটির বাস্তবিক ইফেক্টে কালি মেখেছে এই ফিচারটি। মাত্র ২ সেকেন্ড আগে ব্যবহার করা হলেও সবসময় তোমার কাছে একটি প্যারাসুট থাকবেই। এর দ্বারা উচুঁ ভবন / পাহাড় থেকে লাফ দিয়ে এক জায়গা থেকে অন্য জায়গা খুব দ্রুতই ভ্রমণ করতে পারবে তুমি।

 

জাস্ট কজ গেমটির চার বছর পর জাস্ট কাজ ২ গেমটির কাহিনী শুরু হয়। যেখানে এজেন্সি অপারেটি রিকো রড্রিগেজ কে পানাউকে পাঠানো হয় প্যানডাক প্যানেয় এর রাজ্যকে ধ্বংস করার জন্য। প্যানেয় একজন সাবেক আমেরিকান এলি। তবে এখন তিনি এন্টি-আমেরিকান মানে আমেরিকাকে ঘৃণা করেন। রিকোর সেখানে সেই আইল্যান্ডে মুল মিশন হচ্ছে পানাউ আইল্যান্ডে প্যানেয় এর চক্রকে কাছে থেকে দেখা এবং প্ল্যান করে সেখান থেকে তার রাজ্যকে ধ্বংস করে দেওয়া। এছাড়াও প্যানেয় এর এসিসটেন্ট টম সেলডনকেও হত্যার করা তার আরেকটি প্রাইমারী মিশন।

টমকে খুঁজার জন্য আইল্যান্ডের তিনটি লিডিং ক্রিমিনাল গ্রুপের সাথে বন্ধুত্ব করে নেয় রিকো। ক্রিমিনাল গ্রুপের তথ্যের উপর টমকে রিকো খুঁজে বের করতে সক্ষম হয় কিন্তু টমকে রিকো হত্যার না করে তাকে বাঁচিয়ে রাখে। তার নিজের স্বার্থের জন্যেই। টম হয়ে যায় রিকোর তথ্যমেশিন। টমের তথ্যের উপর ভিক্তি করে রিকো আইল্যান্ডে একের পর এক Chaos বা ধ্বংসজঞ্জ চালাতে থাকে। রিকো কি পারবে একাই প্যানেয় এর রাজ্য ধ্বংস করতে? জানতে হলে গেমটি এখনই খেলতে বসে পড়ো!

 

গেমটি অরিজিনালি ২০০৮ সালের শেষের দিকে রিলিজ পাবার কথা থাকলেও গেমটি গ্রাফিক্স আপগ্রেডের কারণে আরো কাজ করতে হয় এবং গেমটির রিলিজ ডেট ২০১০ সাল পর্যন্ত পিছিয়ে দেওয়া হয়। গেমটিতে ব্যবহার করা হয়েছে ডাইরেক্ট এক্স ১০ এর উপকরণ তাই গেমটি উইন্ডোজ এক্সপিকে চলবে না। গেমটির পিসি সংস্করণে রয়েছে এক্সট্রা গ্রাফিক্স ইফেক্ট যা অন্যান্য গেমিং কনসোলে পাওয়া যাবে না।

গেমটির ১০টি ডাউনলোডেবল কনটেন্স রয়েছে যা শুধুমাত্র এক্সবক্স ৩৬০ এবং প্লে-স্টেশন ৩ গেমিং কনসোলেই খেলা যাবে।

 

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
টাইটেল স্ক্রিণ
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
মেইন মেনু
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
ওয়াওওওও!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
রিলোড এর টাইম!

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
গাড়িটা এখন মোর!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
হাই কোয়ালিটি গ্রাফিক্স!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
উচ্চতাভীতি রয়েছে আমার!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
ঠিসা ঠিসা!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
বিমানের উপ্রে!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
আসাম !
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
ক্ষিদা লাগছে! হোটেল কই!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
বাহির হ!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
ফার ক্রাই সিরিজের গ্রাফিক্স এর মতো!
গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
ঠান্ডা মাথায় ভাবতে হবে কি করা যায়।

 

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)
গোসল করতে হবে!

ডাউনলোডঃ

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

ftp://serv2.2fun.ge/games/Just%20Cause%202/Just%20Cause%202.iso

Just Cause 2 Immortal (2011):

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

DVD 1:

ftp://serv2.2fun.ge/games/Just%20Cause%202%20Immortal/Just%20Cause%202%20Immortal.CD1.rar

DVD 2:

ftp://serv2.2fun.ge/games/Just%20Cause%202%20Immortal/Just%20Cause%202%20Immortal.CD2.rar

অথবা, গেমটি সুলভ মুল্যে ঘরে বসেই পেতে চলে আসো গেমস জোনের অনলাইন ডিভিডি শপেঃ www.facebook.com/games.zone.bd

 

জ্ঞাতব্য:

> গেমস জোন শুধুমাত্র বিনোদনের জন্য তৈরি করা হয়েছে। এর উপাদান সমূহের দ্বারা কেউ মনে কষ্ট কিংবা আঘাত পেলে তা ক্ষমাসুন্দর দৃষ্টিতে দেখার আহ্বান জানাচ্ছি।

> গেমস জোনে ব্যবহৃত বাংলা কভার, ওয়ালপেপারসমূহ সর্ম্পূণ ভাবে লেখকের নিজস্ব সৃস্টি। এর সাথে আসল গেমটির কোনো সর্ম্পক নেই

> গেমস জোন এর সাথে উক্ত গেমসগুলোর কোনো সরাসরি সম্পৃত্ত নেই এবং থাকবে না।

> গেমস জোন এর গেমসগুলোর রিলিজ তারিখ, নির্মাতা, প্রকাশক, মুক্তির তারিখ, সিস্টেম রিকোয়ারমেন্টস এবং চিটকোড তথ্য গুলো বিভিন্ন ওয়েবসাইট হতে সংগৃহকৃত। লেখক এখানে শুধুমাত্র বাংলায় লিখেছেন।

> ডাউনলোড লিংক এবং এর ফাইলসমূহ সর্ম্পূণ ভাবে অন্য সাইট হতে কপিকৃত। লেখকের সাথে ডাউনলোড লিংক এর কোনো সম্পৃত্ততা নেই।

> সর্বপরি গেমস জোন লেখক গেমওয়ালার ব্যক্তিগত কর্ম মাত্র। এর সাথে এই ব্লগের কোনো সর্ম্পক নেই এবং গেমস জোনের সকল তথ্য (ডাউনলোড লিংক ব্যাতিত) এর জন্য শুধুমাত্র লেখক গেমওয়ালা দায়ী থাকবে।

> গেমস জোন একটি সর্ম্পূণ ফ্রি গেমস রিভিউ এবং প্রিভিউ টিউন। তাই এর যেকোনো উপদান স্বাধীনভাবে “ব্যক্তিগত” উদ্দেশ্যে যে কেউ ব্যবহার করতে পারবে। তবে গেমস জোন কে “করপোরেট” ভাবে কখনোই ব্যবহার করা যাবে না।

> বর্তমানে গেমস জোন লেখক এর দ্বারা নিচের ব্লগ সমূহে টিউন করা হচ্ছে:

www.tunerpage.com

www.techtunes.com.bd

> অনলাইন ডিভিডি সার্ভিসটি অনলাইন ডিভিডি শপ “পপকর্ণ” এর দ্বারা পরিচালিত হচ্ছে এবং এই বিষয়ের কোনো প্রকারের দায়িত্ব গেমস জোন নিবে না।

> গেমস জোন সংক্রান্ত যেকোনো সমস্যা, পরামর্শ, অভিযোগ এবং অন্যান্য যে কোনো বিষয়ের জন্য গেমস জোন এর ফেসুবক পেইজ www.facebook.com/games.zone.bd তে যোগাযোগ করুন অথবা সরাসরি লেখক গেমওয়ালার সাথে যোগাযোগ করতে পারেন www.facebook.com/talented.fahad

 

গেমস জোন :: Just Cause 2: Immortal (২০১১)

Series Navigation << গেমস জোন :: হাফ-লাইফ ২ সমগ্র (২০০৪-২০০৭)গেমস জোন :: নিজেই বানাই NFS Most Wanted Unique!! (Mod) >>

2 মন্তব্য

  1. ভাইয়া দারুন লিখেছেন। ভাইয়া এই পোস্টটা সহ আমার ব্লগেও নিয়মিত পোস্ট করতে পারেন। আমার ব্লগেও অনেক ভিজিটর বিশ্বাস না হলে দেখে আসুন। আর এখন আমি প্রতি ব্লগের জন্য ৫ টাকা করে দেই। সুতরাং দেখে আসুন আর ব্লগ করা শুরু করুন এক্ষুনি। Techalarmbd.com

একটি উত্তর ত্যাগ