এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

17
397

এয়ারটেল তার সব প্যাকেজে ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন করেছে (কথা ও হৈচৈ প্যাকেজ বাদে)। কথা ও হৈচৈ প্যাকেজে ১ সেকেন্ড পালস রয়েছে। তবে ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন করলেও এয়ারটেল তাদের সব প্যাকেজের কল রেট কিছুটা বাড়িয়েছে।

নিম্নে এয়ারটেলের সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল

গল্পঃ

যেকোনো নম্বরে ফ্ল্যাট কলরেটে ২৪ ঘন্টা কথা বলার স্বাধীনতা। সাথে আছে ১০ সেকেন্ড পালস।

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

গল্প প্যাকেজে মাইগ্রেট করতে টাইপ করুন ‘G’ এবং পাঠিয়ে দিন ‘৭৩৫৩’ নম্বরে, অথবা ডায়াল করুন *১২১*৮*২#

 

আড্ডাঃ

‘আড্ডা’ আপনাকে দিচ্ছে সর্বাধিক এফএনএফ করার সুবিধা এবং চমৎকার কলরেট এবং ১০ সেকেন্ড পালস ।

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।
‘আড্ডা’ প্যাকেজটি ব্যবহার করতে হলে

  • টাইপ করুন ‘A’ অথবা ‘NA’ এবং পাঠিয়ে দিন ‘৭৩৫৩’ নম্বরে অথবা ডায়াল করুন *১২১*৮*১# নম্বরে, পছন্দ করুন আপনার প্রিয় ৮টি এফএনএফ নম্বর (যে কোনো অপারেটর থেকে) এবং উপভোগ করুন বিরামহীন কথা বলার স্বাধীনতা।
  • এফএনএফ নাম্বার যোগ করার জন্য গ্রাহকদের ডায়াল করতে হবে  *১২১*৪১#  অথবা এসএমএস করতে হবে “ADD <স্পেস> ০১৬XXXXXXXX” (কাঙ্ক্ষিত এফএনএফ নাম্বার ) লিখে ৭৩৫৩ নাম্বারে (ফ্রি)
  • এফএনএফ নাম্বার বাদ দেয়ার জন্য গ্রাহকদের ডায়াল করতে হবে  *১২১*৪২#  অথবা এসএমএস করতে হবে ” DELETE <স্পেস> ০১৬XXXXXXXX” (এফএনএফ নাম্বার ) লিখে ৭৩৫৩ নাম্বারে (ফ্রি)

 

ফুর্তিঃ

আপনি আপনার বন্ধুদের সাথে টানা ১৫ ঘন্টা( রাত ১২টা থেকে বিকেল ৩টা) কথা বলতে পারবেন বাজারের সর্বনিম্ন রেট ও ১০ সেকেন্ড পালস-এ ।

বিকেল ৩টা থেকে রাত ১২টা পর্যন্তও ১০ সেকেন্ড পালস সুবিধা থাকবে ।

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

‘F’ লিখে এসএমএস করে পাঠিয়ে দিন ৭৩৫৩ নম্বরে (ফ্রী) এবং উপভোগ করুন আপনার ফুর্তি প্যাকেজ।

 

সবাইঃ

পুরো একটি অপারেটরের সবগুলো নাম্বার হবে  FnF । সাথে আছে ১০ সেকেন্ড পালস।

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

  • FnF অপারেটর সিলেক্ট করতে  :

-প্রথমে S লিখে SMS করতে হবে 7353 নাম্বারে

-এবার কাঙ্ক্ষিত অপারেটরের শর্টকোড লিখে ফ্রী SMS করতে হবে  7353 নাম্বারে।

-বিভিন্ন অপারেটরের শর্টকোড:

বাংলালিংক                         BL অথবা BA

সিটিসেল                          CT অথবা CI

গ্রামীনফোন                        GP অথবা GR

রবি                               RB অথবা RO

টেলিটক                           TT অথবা TE

  •  চাইলে নতুন কোড পাঠিয়ে FnF অপারেটর পরিবর্তন করা যাবে(ন্যূনতম ১ সপ্তাহ পর পর)
  •  শুধুমাত্র এই কাস্টমাররা যেকোনো একটি অপারেটরের সব নাম্বার কে FnF করতে পারবে
  •  সিলেক্ট করা অপারেটরের নাম দেখতে Viewop লিখে পাঠিয়ে দাও 7353 নাম্বারে
  •  পছন্দের অপারেটর FnF অপারেটর হিসেবে সিলেক্ট হলে SMS এর মাধ্যমে জানিয়ে দেওয়া হবে
  • FnF অপারেটরের নাম্বারে কথা বলার ক্ষেত্রে ইনস্ট্যান্ট ক্যাশব্যাক প্রযোজ্য নয়

 

দলবলঃ

যুক্ত হন আপনার প্রিয় দলের সাথে এবং কথা বলুন সর্বনিম্নরেট ও ১০ সেকেন্ড পালস-এ।

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

দলবল প্যাকেজে মাইগ্রেট করতে টাইপ করুন ‘D’ এবং পাঠিয়ে দিন ‘৭৩৫৩’ নম্বরে, অথবা ডায়াল করুন *১২১*৮*৪#

 

কথাঃ

যেকোনো অপারেটরে ১ সেকেন্ড পালস-এ কথা বলার সুবিধা।

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

‘কথা’ প্যাকেজটি ব্যবহার করার জন্য টাইপ করুন ‘k’ আর পাঠিয়ে দিন ৭৩৫৩ নম্বরে অথবা ডায়াল করুন *১২১*৮*৩#

 

হৈচৈঃ

‘হৈচৈ’ প্যাকেজে থাকবে প্রতি সেকেন্ডের হিসাবঃ

  • প্রথম সেকেন্ড থেকেই ১ সেকেন্ড পাল্‌স
  • ২টি স্পেশাল FnF নাম্বার (১টি এয়ারটেল নাম্বার ও ১টি অন্য অপারেটরের নাম্বার
  • এয়ারটেল FnF নাম্বারে কলরেট আধা পয়সা/সেকেন্ড ও অন্য অপারেটরের FnF নাম্বারে ১ পয়সা/সেকেন্ড কলরেট
  • অন্যান্য কলের ক্ষেত্রে ১.৬৫ পয়সা/সেকেন্ড কলরেট

এয়ারটেলের ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন। আপনাদের জন্য সবগুলো প্যাকেজের বিস্তারিত দেয়া হল।

হৈচৈ প্যাকেজে মাইগ্রেট করতে টাইপ করুন H আর পাঠিয়ে দিন ৭৩৫৩ নাম্বারে

FnF  নাম্বার অ্যাড করতে ADD <স্পেস>০১৬XXXXXXXX (FnF নাম্বার) টাইপ করে পাঠিয়ে দিন ৭৩৫৩ নাম্বারে (ফ্রি)

 

 

 

পরিশেষে আমার এই কথাগুলো ভালোভাবে লক্ষ করুন। আমার মনে হচ্ছে ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন করাতে গ্রাহকদের তুলনায় অপারেটররা বেশি লাভবান হচ্ছে। কারণ তারা  ১০ সেকেন্ড পালস বাস্তবায়ন করলেও কল রেট বাড়িয়েছে। কেউ তো আর ফোন করে সাধারনত ২-৩ মিনিটের কম কথা বলে না। সে যদি ২.০২ মিনিটে কলটি শেষ করে তবে  ১০ সেকেন্ড পালস হিসাবে যে বিল আসবে তা কিন্তু আগের  বিলের চেয়ে বেশি। তাছাড়া তারা fnf রেটও বারিয়েছে। fnf এ মানুষ এমনিতেই বেশি কথা বলে।  fnf এ রেট যেহেতু কম সেহেতু এখানে ১০ সেকেন্ড পালস তেমন কোন কাজে আসেনা। কিন্তু তারা এর সাথে  ১০ সেকেন্ড পালস যোগ করে রেট আরও বাড়িয়ে দিয়েছে। 

এমনটি কিন্তু কথা ছিল না। আমরা সবাই আশা করেছিলাম আগের কলরেটের সাথে ১০ সেকেন্ড পালস যুক্ত করা হবে। বিটিআরসির অবশ্যই এই বিষয়টায় গুরুত্ব দেয়া উচিত।

আপনাদের মতামত দয়া করে জানাবেন।

17 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ