৮ টা টিপস যার মধ্যমে আপনি আপনার পিসি বা লেপটপকে নিরাপদে রাখবে

8
1337
৮ টা টিপস যার মধ্যমে আপনি আপনার পিসি বা লেপটপকে নিরাপদে রাখবে

কাজী আসিফ বিল্লাহ্

একলাপথিক ডট কম এর একজন এডমিন এবং লেখক। ব্লগিং হচ্ছে নেশা আর এসইও তে ভালোবাসা। এছাড়াও 'ফেসবুকে বন্ধু' হিসেবে এড করে নিতে পারেন। ধন্যবাদ।
৮ টা টিপস যার মধ্যমে আপনি আপনার পিসি বা লেপটপকে নিরাপদে রাখবে

কেমন আছেন সবাই? একলাপথিক এর আজকের পোস্ট এ স্বাগতম আজ আপনাদের জানাবো আপনার প্রিয় লেপটপ বা কম্পউটার কিভাবে নিরাপদে ব্যবহার করতে পারেন। অনেকেই বলতে পারেন আমার পিসি তো নিরাপদেই ব্যবহার করতেছি কিন্তি আমি বলবো নিরাপদেই ব্যবহার করেন তবুও একটু জেনে নিন। জানার অনেক দরকার আছে। আর বেশি কথা না বলে এবার কাজের কথায় আশি।

৮ টা টিপস যার মধ্যমে আপনি আপনার পিসি বা লেপটপকে নিরাপদে রাখতে পারেন।

১. এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার

এটা সবাই জানে তবুও লিখলাম কারণ যেহেতু আপনার পিসির নিরাপত্তা নিয়ে এই পোস্ট। সবসময় নতুন আপডেট এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার ব্যবহার করুন যাতে আপনার পিসির গুরুত্তপূর্ণ তথ্য গুলো নিরাপদে থাকে। বাজারে অনেক ভালো ভালো এন্টিভাইরাস সফটওয়্যার আছে তার ভেতর আপনি যেটা ব্যবহার করে সাছন্দ পান সেটা ব্যবহার করেন।

২. ফায়ারওয়েল

আপনি যদি ডিফল্ট উইন্ডোজ ফায়ারওয়েল ব্যবহার করে থাকেন আর ভাবেন ইরাপাদে আছেন। এবার একটু চিন্তা করে দেখেন আসলেই নিরাপদে আছেন। ডিফল্ট উইন্ডোজ যেটা আছে সেটা খুব ভালো কাজ করেনা। ফায়ারওয়েল অন করা থাকলে যেসব প্রোগ্রাম ইন্টারনেট কানেকশন দরকার হয় সেই সব প্রোগ্রামকে মনিটরিং করে যাতে আপনার পিসির কোনো ডাটা চুরি না হয়। ইন্টারনেট খুজলে আপনি অনেক ফ্রী ফায়ারওয়েল প্রোগ্রাম পাবেন। ফায়ারওয়েল আমি যেটা ব্যবহার করি আপনারা সেটা ব্যহ করে দেখতে পারেন comodo firewall এটার আপডেট ভার্শন ব্যবহার করলে অনেক কাজের।

৩. পিসির সফটওয়্যার আপডেট রাখুন

আপনার পিসির সব সফটওয়্যার নিয়ামিতো আপডেট করুন কারন পুরনো সফটওয়্যার গুলোতে ভাইরাস আক্রমন করার সম্ভাবনা বেশি থাকে। নিয়মিত সফটওয়্যার আপডেট রাখলে ভাইরাস এর আক্রমন থেকে কিছুটা হলেও নিরাপদে থাকা যায়।

৪. পিসি ঠিকভাবে সাটডাউন করুন

Windows/Linux এবং Mac এই সবগুলো অপারেটিংসিস্টেম গুলোর নিজস্ব সাটডাউন করার বাটন আছে। এর মধ্যমে মূলত পিচি সাটডাউন করা উচিত। সময় বাচানোর জন্য ধুম ধাম সুইচ বন্ধ করা উচিত না। এতে আপনার পিসির ডাটা নস্ট হবার সম্ভাবনা থাকে।

৫. লেপটপ এ ট্রাকইং সফটওয়্যার সেটাপ দিন

লেপটপ পোর্টেবল যার কারণে আমরা বাইরে নিয়ে যাই এর কারণে এটা হারানোর সম্ভাবনা বেশি থাকে। ট্রাকইং সফটওয়্যার ব্যবহার করুন যাতে আপনার হারানো পিসিটা আপনি ট্রাক করতে পারেন। Adeona এটা একটি ট্রাকইং সফটওয়্যার ব্যবহার কর্তী পারেন।

৬. নিয়ামিতো ফাইল ব্যকআপ রাখুন

সতর্কতা হল রোগের চিকিত্সার চেয়ে বেশী ভাল। নিয়ামিতো ফাইল ব্যকআপ রাখুন যাতে ডাটা গুলো হারানোর থেকে আগের থেকে সতর্ক হয়ে যান। এতে আপনার পিসির ডাটা গুলো অনেক সুরক্ষিত থাকবে। আপনি সিডি রাইট করে ব্যকআপ রাখতে পারেন অথবা Skydrive রাখতে পারেন Skydrive আপনাকে ২৫ জিবি ফ্রী স্পেস দিবে। এখানে একাউন্ট করতে হটমেইল ইমেইল লাগবে।

৭. লগইন পাসওয়ার্ড ব্যবহার করুন

বেশির ভাগ লেপটপ ইউসার পাসওয়ার্ড ব্যবহার করতে পছন্দ করেনা। এটা করা উচিতনা কারণ যে কেউ আপনার লেপটপ এর নাঅন্ত্রন নিয়ে নিতে পারে। লেপটপ অনেক দামি একটি জিনিস টাই এটাকে পাসওয়ার্ড ছাড়া ফেলে রাখা উচিত না। পাসওয়ার্ড সবসময় একটু ভিন্ন ধরনের দিয়াটাই ভালো।

৮. ডিফ্রেগমেনন্টেশন

নিয়ামিতো আপনার পিসিটি ডিফ্রেগমেন্ট করুন এটা আপনার পিসির ড্রাইভ গুলো অনেক ভালো থাকবে। ডাটা গুলো অনেকদিন ভালো থাকে। নিয়ামিতো ডিফ্রেগমেন্ট করলে ড্রাইভ গুলোতে ব্যাডসেক্টর পারেনা এবং আপনার পিসির ড্রাইভ অনেক ভালো থাকে।

হ্যাকিং থেকে নিজেকে নিরাপদে রাখার কিসু নিয়ম

লিখায় কোনো ভুল থাকলে ক্ষমা করেদিয়েন। আর কেমন লাগলো তা জানাবেন। ধন্যবাদ পোস্ট টি পারার জন্য। একলাপথিক

8 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ