১৯৭১ সালের পর পাকিস্তান আবার হামলা চালাল বাংলোদেশে এবার সাইবার হামলা করল বাংলাদেশের ওয়েব সাইটে।

56
569
১৯৭১ সালের পর পাকিস্তান আবার হামলা চালাল বাংলোদেশে এবার সাইবার হামলা করল বাংলাদেশের ওয়েব সাইটে।

বাংলাদেশ গ্রে হ্যাট হ্যাকারস

আমাদের সম্পর্কে:
সাইবার ওয়ার্ল্ডে বাংলাদেশ কে একটি শক্তিশালী অবস্থানে নিয়ে যাওয়ার জন্যই আমাদের এই প্রচেষ্টা । তবে, আমারা কোনরূপেই বাংলাদেশী কোন ওয়েবসাইট নিয়ে কোন প্রকার এক্সপেরিমেন্ট করি না এবং করব না । আপনি আমাদের সাথে কাজ করতে হলে অথবাফেইসবুক গ্রুপে আমাদের শুভাকাঙ্ক্ষী হিসেবে অবস্থান করতে হলে আমাদের গ্রুপ এর নীতি মালাগুলো মেনে চলতে হবে
১৯৭১ সালের পর পাকিস্তান আবার হামলা চালাল বাংলোদেশে এবার সাইবার হামলা করল বাংলাদেশের ওয়েব সাইটে।

১৯৭১ সালে ৩০ লক্ষ্ মানুষের রক্তের বিনিময়ে বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছে।পাকিস্তানী ও তাদের দোষর রাজাকারদের অত্যাচারের স্মৃতি আজও মানুষের মনে দান টেনে যায়।

আমারা BANGLADESH GREY HAT HACKERS বাংলাদেশের সাইবার স্পেসকে নিরাপদ রাখতে সবর্দা কাজ করে যাচ্ছি। আমরা কখনও বাংলাদেশের কোন সাইট হ্যাক করি নাই এবং করব না। যা আমরা পূর্বে সবাইকে জানিয়েছি।
এই লিংকে ক্লিক করুন আমাদের পূর্বে প্রকাশিত রিপোর্ট দেখেতে

গতকাল পাকিস্তানের তথাকথিত হ্যাকার গ্রুপ পাক সাইবার পাইরেট বাংলাদেশের একটি সরকারি সাইট http://www.nctb.gov.bd/  হ্যাক করে সেখানে আমাদের দায়ি করে। এটা সর্ম্পূন মিথ্যা এবং একটা সাজানো নাটক।

বাংলাদেশের আরেকটি হ্যাকিং গ্রুপ কিছু দিন আগে বলেছে যে তাদের হাতে বাংলাদেশের ৮৫% সাইটের সিকিউরিটি কন্ট্রোল রয়েছে। তারা এও বলেছে যে কোন সাইট হ্যাক হলে তার অল্প সময়ের মাঝে রিকভার করে দিতে পারবে। কিন্ত তারা তা করতে পারে নি।

এক্সপিয়ার সাইবার আর্মি বাংলাদেশের নাম ক্ষুন্ন করছে। তারা পূর্বে আমাদের বলেছিল যে বাংলাদেশের সাইট হ্যাক করে আমাদের নাম দিবে কিন্তু তখন বিভিন্ন ব্লগে এটি প্রকাশিত হওয়াতে সবাই যেনে যায় ফলে তারা তা করতে পারে নি। কিন্তু দেশদ্রোহী এ গ্রুপটি থেমে থাকে নি। তারা এখন ১৯৭১ সালের মত রাজাকারের ভুমিকায় অবতারনা করেছে। আর এখন নিজেরা বাংলাদেশের সাইট পাক সাইবার পাইরেটদের দিয়ে হ্যাক করছে এবং আমাদের দায়ি করছে। প্রমান করে দেই দেখুন

এখানে যে ছবিটা দিলাম তা
১৯৭১ সালের পর পাকিস্তান আবার হামলা চালাল বাংলোদেশে এবার সাইবার হামলা করল বাংলাদেশের ওয়েব সাইটে।
এক্সপিয়ারদের সম্পর্কের আপনারা সবাই জানেন যে তারা কখনও ভাল কাজ করে নি এবং কেউ করতে চাইলে সবসময় বাধা দিয়েছে যেমন বাংলাদেশ সাইবার আর্মির সাথে তারা সবসময় ঝগড়া করত এবং এখনও করে ঠিক তেমনি আমাদের সাথেও তারা একই কাজ করছে।

এক্সপিয়রের যতপ্রকার টুলস এবং স্ক্রিপ্ট আছে তা সবই পাকিস্তানের কাছ থেকে নেয়া। তারা যে পাকিস্তানের দালার তা তাদের গ্রুপে গেলেই বুঝা যায়।আপনারা জানেন তাদের এডমিন সবাই ব-কলম তারা লিনাক্স কি সেটাও চিনে না এবং ওপেনর্সোস বলতে কি বুঝায় তা জানে না।  কিছু ‍দিন আগে বাংলাদেশ সাইবার আর্মির একজন এডমিনকে বলেছিল যে তারা বিসিএ কে শিক্ষা দেয়ার জন্য পাকিস্তানী হ্যাকার ভাড়া করেছে। ঠিক একইভাবে এখন আমাদের জন্য পাক সাইবার পাইরেটদেরকে ভাড়া করেছে এক্সপিয়ার।
আমাদের ধারনা কিছুদিনের ভেতর এক্সপিয়ার বাংলাদেশের গুরুত্বর্পূণ সাইট হ্যাক করে সকল ডাটা পাকিস্তানের কাছে দিয়ে দিবে। এত করে পাকিস্তানি অপশক্তি হয়ত মাথাচারা দিয়ে উঠতে পারে এবং যুদ্ধাপরাধীদের বিচার ব্যাহত হতে পারে।

আমার BANGLADESH GREY HAT HACKERS কোন বাংলাদেশী সাইট হ্যাক করি নাই এবং হ্যাক করতে সাহায্যও করি নাই। আমাদের সাথে পাকিস্তানের কোন প্রকার সর্ম্পক নাই এবং আমরা দেশের সাইবার স্পেসের জন্য হুমকি হয় এমন দেশের আক্রমন সহ্য করব না।

আমরা স্পষ্ট করে বলতে চাই http://www.nctb.gov.bd/ এটা হ্যাক হওয়ার পেছনে আমারা দায়ি নই এবং এর ডিফেজ পেজে যে নম্বার ও ছবি দেয়া হয়েছে তা সর্ম্পূন মিথ্যা এবং বানোয়াট।

BANGLADESH GREY HAT HACKERS এর কোন এডমিন বাংলাদেশে থাকে না সুতরাং বাংলাদেশের নাম্বার ব্যবহারের প্রশ্ন আসে না।

তারা যে ছবি দিয়েছে তা সর্ম্পূন বানোয়াট।

এক্সপিয়ার সাইবার আর্মি একটি দেশদ্রোহী ও রাজাকার হ্যাকিং গ্রুপ। পাক সাইবার পাইরেট এর মেম্বার ও এডমিন গোলাম আইনাব এর নিয়মিত এক্সপিয়ার গ্রুপে পোষ্ট থেকে প্রমান হয় যে এক্সপিয়ার পাকিস্তানি দোষর রাজাকার। এরা বাংলাদেশের তথ্য পাকিস্তানের কাছে দিয়ে দিচ্ছে। আপনার সবাই এদের থেকে সাবধান থাকবেন।এবং এসব দেশদ্রোহী গ্রুপ থেকে সাবধান থাকবেন।

তাদের কথঅ বিস্বাষ করবেন না এবং বিভ্রান্ত হবেন না।

▬▬▬▬▬▬▬আমরা Bangladesh Grey Hat Hackers (BGHH)  সর্বদা দেশের জন্য নিবেদিত▬▬▬▬▬▬

১৯৭১ সালের পর পাকিস্তান আবার হামলা চালাল বাংলোদেশে এবার সাইবার হামলা করল বাংলাদেশের ওয়েব সাইটে।

 

56 মন্তব্য

একটি উত্তর ত্যাগ